,

rasmika

জেনে-বুঝেই কাজটা ছেড়ে দিয়েছি

হাওর বার্তা ডেস্কঃ জনপ্রিয় চিত্রনায়িকা বিদ্যা সিনহা মিম সাম্প্রতিক কাজ ও অন্যান্য বিষয় নিয়ে কথা বললেন।

পূজা কেটেছে মোটামুটি। লাস্টের দিকে এমন একটা সিচুয়েশন ছিল যে কিছুটা আপসেট ছিলাম। পরিস্থিতি ভালো না থাকায় খুব একটা বেরও হইনি। সবাই খুব ভয়ে ছিল। কী হয় না হয়। বাসা থেকে কেউ বের হইনি। তো সব মিলিয়ে মন-টন খারাপ ছিল। আমি একটা কথা বলতে চাই, এ দেশের প্রত্যেকটা মানুষকে প্রত্যেকটা ধর্মের প্রতি সম্মান দেখানো উচিত। আমি নিজেও অন্য ধর্মের প্রতি সম্মান করি। আমি পূজা যেভাবে পালন করি, ঈদও কিন্তু সেভাবেই আনন্দ নিয়ে উদযাপন করি। সবারই উচিত অন্যের ধর্মকে সম্মান জানানো।ব্যস্ততা…

আজ একটা নরমাল শ্যুটে ছিলাম। সম্প্রতি পূজা শেষ করে বাড়ি থেকে ফিরেছি। কাল (আজ) মা-বাবার চিকিৎসার জন্য আবার ইন্ডিয়ায় যাব। ওখানে ডাক্তার দেখিয়েছিলাম আগে, আবারও দেখাতে হবে। ইন্ডিয়া থেকে ফিরে আবার কাজ শুরু করব।সামনের কাজ…

হাতে অন্তর্জাল আছে। এর বাইরে কয়েকটা ওয়েব ফিল্মের কথা হচ্ছে। আশা করছি, নভেম্বর থেকে সেগুলোর শ্যুটিং শুরু করতে পারব।অন্তর্জাল…

অন্তর্জালে আমার অংশের সামান্য কিছু কাজ বাকি আছে। শিগগিরই বাকি কাজ করব। অন্তর্জালের অভিজ্ঞতা ভালোই ছিল। দর্শকরা বাইরের মতো একটা কাজ দেখতে পারবে। ছবিটি নিয়ে আমি বেশ আশাবাদী।খুফিয়া…

আমার ছেড়ে দেওয়া বলিউডের ‘খুফিয়া’ সিনেমায় বাঁধন কাজ করছে। আমার আফসোস হচ্ছে কি না, জানতে চেয়েছেনÑ জবাবে বলব যে আমার আফসোস কেন কাজ করবে। ছাড়ার সিদ্ধান্ত আমার ছিল। সেটা নিয়ে এখন কোনো আফসোস নেই। এটা ছাড়ার কারণ আগেও বলেছি। আমার মনে হয়েছে ছবিটা করা উচিত না। একেকজন মানুষের চিন্তা তো একেক ধরনের। ফলে এখনো যদি সেইম প্রস্তাব দেওয়া হয় তাহলে আমি এখনো না করব। মানে আমি যেটা করব না, সেটার মানে আগে-পরেও আমি করব না। জেনে-বুঝেই কাজটা ছেড়ে দিয়েছি।সতর্কতা…

করোনার পর তো আবারও সবকিছু স্বাভাবিক হয়েছে। এখন অনেকেই আর আগের মতো সতর্কতা বজায় রেখে চলছে না এটা ঠিক। তারপরও আমরা যারা শ্যুটিং করছি, তারা যতটা সতর্কতা বজায় রেখে কাজ করা যায় তা করছি। শ্যুটিং স্পটে সবাই সতর্ক থাকার চেষ্টা করছি।পরিবর্তন…

আগের চেয়ে এখন সিনেমায় নানা পরিবর্তন এসেছে। ক্যারিয়ারের শুরুর দিকে যে সিনেমাগুলোতে কাজ করেছি, সেগুলো একরকম ছিল। এখন সিনেমা আগের চেয়ে আরও আধুনিক হচ্ছে। আর আগে এক ক্যাটাগরির সিনেমা বেশি হতো। আর এখন মানুষ রিয়ালিস্টিক টাইপের সিনেমা বেশি পছন্দ করছে। আমাদের সিনেমার মেকিং বা অন্য কিছু নিয়ে কিছু বলব না এতটুকু বলব যে গল্প বলার ধরনে অনেক পরিবর্তন এসেছে। মানুষও খুব ন্যাচারাল গল্প পছন্দ করে, মানে আমাদের চারপাশের চিরচেনা গল্প দেখতেই বেশি পছন্দ করে। সেই চাহিদার সঙ্গে তাল মিলিয়ে আমাদের এখানেও সে ধরনের গল্পে সিনেমা নির্মাণের চেষ্টা চলছে। এই পরিবর্তনটা দেখে বেশ ভালো লাগছে।

Print Friendly, PDF & Email

     এ ক্যাটাগরীর আরো খবর