,

1652759961_pap-purno

দেশ-বিদেশের ১২০ প্রেক্ষাগৃহে মুক্তি পাচ্ছে ‘পাপ পুণ্য’

হাওর বার্তা ডেস্কঃ আসছে গিয়াস উদ্দিন সেলিমের সিনেমা ‘পাপ পুণ্য’। তারকাবহুল সিনেমাটি মুক্তি পেতে যাচ্ছে আগামী শুক্রুবার (২০ মে)। একসঙ্গে দেশ-বিদেশের ১২০ প্রেক্ষাগৃহে মুক্তি পাবে সিনেমাটি। তবে ২০ মে পর্যন্ত বাড়তে পারে আরও কিছু প্রেক্ষাগৃহ। সোমবার (১৬ মে) ‘পাপপুণ্য’ মুক্তি উপলক্ষ্যে চ্যানেল আইয়ের নিজস্ব স্টুডিওতে সংবাদ সম্মেলনের আয়োজন করে প্রযোজনা প্রতিষ্ঠান ইমপ্রেস টেলিফিল্ম।

সংবাদ সম্মেলনে উপস্থিত ছিলেন ইমপ্রেস টেলিফিল্মের পরিচালক জহির উদ্দিন মাহমুদ মামুন, অভিনেতা মামুনুর রশীদ, আফসানা মিমি, চঞ্চল চৌধুরী, সিয়াম আহমেদ ও নবাগতা সুমিসহ আরো অনেকে। সংবাদ সম্মেলনে দেখানো হয় সিনেমাটির ট্রেলার ও গান।

‘পাপ পুণ্য’ দিয়ে ‘মনপুরা’র পর আবার সেলিমের পরিচালনায় সিনেমায় অভিনয় করলেন চঞ্চল চৌধুরী। সিনেমাটি নিয়ে এই অভিনেতা বলেন, ‘‘পাপপুণ্য’ দেখার পেছনে অনেকগুলো ফ্যাক্টর আছে। এটি গিয়াসউদ্দিন সেলিমের সিনেমা, সেই সঙ্গে এতে বেশ কয়েকজন গুণী অভিনেতা রয়েছেন। বিশেষ করে আফসানা মিমি। আপনারা সিনেমাটি দেখে নিরাশ হবেন না। পৃথিবীর বাংলা ভাষাভাষী দর্শকদেরকে ‘পাপপুণ্য’ দেখার আহ্বান জানাচ্ছি। ’’

চিত্রনায়ক সিয়াম বলেন, ‘‘মনপুরা’ আমি আমার বাবা-মাকে নিয়ে দেখেছিলাম। তখন ছিলাম ছাত্র। সেই সিনেমার অভিনয়শিল্পী, সেই সিনেমার পরিচালকদের সঙ্গে কাজ করার অভিজ্ঞতা কতটা যে স্পেশাল, সেটা বোঝানো যাবে না। তাদের সঙ্গে কাজ করা কতটা সৌভাগ্যের, সেটা আসলেই বোঝানো যাবে না। ’’

‘পাপ পুণ্য’ সিনেমায় মামুনুর রশীদ অভিনয় করেছেন জনপ্রতিনিধির চরিত্রে। তিনি বলেন, ‘গিয়াস উদ্দিন সেলিমের মনপুরা সিনেমায় কাজ করেছিলাম। জাতীয় চলচ্চিত্র পুরস্কারও পেয়েছি। তাই সেলিমের সিনেমা শুনে আর না করিনি। কাজ তো করে ফেলেছি, এখন দর্শকদের দেখার পালা।’

এই সিনেমা দিয়ে অনেকদিন পর অভিনয়ে ফিরলেন আফসানা মিমি। তিনি বলেন, ‘সিনেমাটি আমার ফেরার জন্য ভালো একটি সুযোগ বলে মনে করেছি। সিনেমাটির পরিচালক আমার বন্ধু। তাঁর প্রথম লেখায় কাজ করেছি, তাঁর প্রথম পরিচালনাতেও কাজ করেছি। চঞ্চল যখন কাজ শুরু করেছে তখন আমি কিছুটা আড়ালে চলে গেছি। তাঁর সঙ্গেও কাজ করার সুযোগ পাওয়া গেল এ সিনেমার মাধ্যমে। সিনেমায় চঞ্চল ও আমার সম্পর্কটা অনেক জটিল, তাই আমাদের অনেক ভালো ভালো দৃশ্য রয়েছে। আশা করছি দর্শকদের ভালো লাগবে।’

‘পাপ-পুণ্য’তে চঞ্চল চৌধুরী অভিনয় করেছেন খোরশেদ চরিত্রে। আফসানা মিমি রয়েছেন পারুল চরিত্রে, আল-আমিন চরিত্রে সিয়াম আহমেদ এবং নবাগত শাহনাজ সুমিকে দেখা যাবে সাথী চরিত্রে।

Print Friendly, PDF & Email

     এ ক্যাটাগরীর আরো খবর