,

08

সৌমিত্রর প্রথম প্রয়াণবার্ষিকী, শুরু ওয়েব সিরিজের শ্যুটিং

হাওর বার্তা ডেস্কঃ সৌমিত্র চট্টোপাধ্যায়ের প্রথম প্রয়াণবার্ষিকী ১৫ নভেম্বর। বাংলা সিনেমার কিংবদন্তী অভিনেতা তিনি। ৮৬ বছর বয়সে গেল বছর না ফেরার দেশে চলে যান এই গুণি অভিনেতা।

১৯৩৫ সালের ১৯ জানুয়ারি পশ্চিমবঙ্গের নদীয়া জেলায় জন্মগ্রহণ করেন সৌমিত্র চট্টোপাধ্যায়। বাবা ছিলেন কলকাতা হাইকোর্টের আইনজীবী।

ছোটবেলা থেকেই নাটকে অভিনয় শুরু করেন তিনি। কলকাতার সিটি কলেজ থেকে বাংলা সাহিত্য নিয়ে পড়াশোনা শেষ করে সৌমিত্র ভর্তি হন কলকাতা বিশ্ববিদ্যালয়ে। সেখান থেকে বাংলা সাহিত্যে স্নাতকোত্তর করেন।

কলেজের ফাইনাল ইয়ারে হঠাৎ একদিন মঞ্চে শিশির ভাদুড়ীর নাটক দেখার সুযোগ হয় তার। সেদিনই জীবনের মোড় ঘুরে যায়। তিনি পুরোদস্তুর নাটকে মনোনিবেশ করেন।

দীর্ঘ ৬০ বছরের ক্যারিয়ারে সৌমিত্র চট্টোপাধ্যায় সত্যজিত রায়, মৃণাল সেন, তপন সিংহসহ বহু নামী পরিচালকের সিনেমাতে অভিনয় করেছেন। তার জনপ্রিয় সিনেমাগুলোর মধ্যে রয়েছে- মৃণাল সেনের ‘আকাশ-কুসুম’, তপন সিংহের ‘ক্ষুধিত পাষাণ’, ‘ঝিন্দের বন্দী’, অজয় করের ‘অতল জলের আহ্বান’, ‘সাত পাকে বাঁধা’, ‘পরিণীতা’, আশুতোষ বন্দোপাধ্যায়ের ‘তিন ভুবনের পারে’ ইত্যাদি।

এছাড়া ‘অশনিসংকেত’, ‘সোনার কেল্লা’, ‘দেবদাস’, ‘নৌকাডুবি’, ‘গণদেবতা’, ‘হীরক রাজার দেশে’, ‘আতঙ্ক’, ‘গণশত্রু’, ‘তিন কন্যা’, ‘আগুন’, ‘শাস্তি’, ‘জয় বাবা ফেলুনাথ’ অন্যতম।

মঞ্চ নাটকেও তার পদচারণা ছিলো দুর্দান্ত। নাটক লিখেছেন, অভিনয় করেছেন।

এদিকে, প্রথম প্রয়াণবার্ষিকীর একদিন আগে সৌমিত্র অভিনীত বিখ্যাত নাটক ‘টিকটিকি’ অবলম্বনে নিজের প্রথম ওয়েব সিরিজের শুটিং শুরু করেছেন পরিচালক ধ্রুব বন্দ্যোপাধ্যায়। তিনি ‘গোলন্দাজ’ সিনেমার পরিচালক। জনপ্রিয় ওয়েব প্ল্যাটফর্ম ‘হইচই’তে স্ট্রিমিং হবে এই সিরিজ।

জানা গেছে, আগামী ১৪ দিন ধরে একটানা এই ওয়েব সিরিজের শ্যুটিং চলবে পুরুলিয়াতে।

উল্লেখ্য, এই সিরিজটির নামও রাখা হয়েছে ‘টিকটিকি’। সিরিজের মুখ্যচরিত্রেও রয়েছে বাংলা ফিল্ম ইন্ডাস্ট্রির দুই মহারথী। কৌশিক গঙ্গোপাধ্যায় এবং অনির্বাণ ভট্টাচার্য। এর মধ্য দিয়ে ‘টিকটিকি’ নাটকে প্রয়াত কিংবদন্তি অভিনেতা সৌমিত্র চট্টোপাধ্যায়ের মঞ্চস্থ করা চরিত্রটিকেই এবার পর্দায় রূপ দিতে চলেছেন কৌশিক।

এ প্রসঙ্গে ধ্রুব বন্দ্যোপাধ্যায় আগেই জানিয়েছিলেন, ‘অনেকসময় গল্পের স্ট্রাকচারেই মজা লুকিয়ে থাকে। বাড়তি পরীক্ষানিরীক্ষা করলে সেটাতে হিউম্যান কানেক্ট নষ্ট হয়। তাই নাটকের গল্প অনসুরণ করেই এগোবে এই সিরিজের গল্প।’
সূত্র : হিন্দুস্তান টাইমস

Print Friendly, PDF & Email

     এ ক্যাটাগরীর আরো খবর