,

12

মিয়ানমারে মানবতাবিরোধী অপরাধের প্রতিবাদে রাখাইনদের মানববন্ধন

হাওর বার্তা ডেস্কঃ মিয়ানমারের সামরিক জান্তা জেনেভা কনভেনশন লংঘন করে বাংলাদেশের সীমান্তে সেনা সমাবেশে ঘটিয়েছে বলে অভিযোগ করেছে বাংলাদেশে বসবাসরত রাখাইন সম্প্রদায়। মিয়ানমারের আরাকানে রাখাইন বৌদ্ধদের হত্যা, বাড়িঘরে অগ্নিসংযোগ ও ধর্ষণসহ মানবতাবিরোধী অপরাধের প্রতিবাদে রবিবার (১১ অক্টোবর) রাজধানীর শাহবাগে মানববন্ধনে এসব অভিযোগ করেন তারা।
বক্তারা বলেন, মিয়ানমারের সামরিক জান্তা সব ধরনের আন্তর্জাতিক আইন লংঘন করে রাখাইনদের ওপর গণহত্যা চালাচ্ছে। কয়েক লাখ রাখাইনকে বাড়িছাড়া করা হয়েছে।
আন্তর্জাতিক সহায়তা সংস্থাগুলোকে আরাকানে প্রবেশ করে নির্যাতিত রাখাইন সম্প্রদায়কে ত্রাণ সরবরাহ করতে বাধা দেওয়া হচ্ছে। আরাকানে ইন্টারনেট সংযোগ বন্ধ করে দেয়া হয়েছে বলেও অভিযোগ করেন তারা।
‘কক্সবাজার, বান্দরবান, রাঙামাটি, খাগড়াছড়ি, চট্টগ্রাম, ঢাকা, বরগুনা ও পটুয়াখালী জেলার সাত শতাধিক রাখাইন সম্প্রদায়ের মানুষ এ মানববন্ধনে অংশ নেবেন। এদের মধ্যে রাখাইন সম্প্রদায়ের প্রতিনিধিত্বশীল নেতৃত্ব, ভান্তেগণ, নারী ও শিক্ষার্থীরা রয়েছেন।’
বিশ্ববাসী এবং জাতিসংঘের কাছে আয়োজকদের দাবি, এইরূপ অত্যাচারের বিরুদ্ধে যদি অতিসত্তর রুখে দাঁড়ানো না হয়, তাহলে রাখাইন প্রদেশের সব জনগণ অচিরেই পৃথিবী থেকে বিলুপ্ত হয়ে যাবে। আর এই পরিস্থিতিতে আমরা রাজধানীর বুকে সমাবেত হয়ে মিয়ানমারের বর্বর সামরিক বাহিনীর বিরুদ্ধে তীব্র নিন্দা জ্ঞাপনের সিদ্ধান্ত নিতে বাধ্য হয়েছি।
Print Friendly, PDF & Email

     এ ক্যাটাগরীর আরো খবর