,

আগামী নির্বাচনে আমলনামা দেখে মনোনয়ন দেওয়া হবে: প্রধানমন্ত্রী

হাওর বার্তা ডেস্কঃ আগামী দ্বাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনে আমলনামা দেখে দলের প্রার্থী মনোনয়ন দেওয়া হবে বলে জানিয়েছেন আওয়ামী লীগ সভাপতি ও প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা।

তিনি বলেছেন, জনগণের সঙ্গে যাদের সুসম্পর্ক রয়েছে, যারা জনগণের পাশে দাঁড়ায়, তারাই মনোনয়ন পাবেন। আর যারা জনবিচ্ছিন্ন, এলাকার মানুষের সঙ্গে যাদের সুসম্পর্ক নেই, তাদের মনোনয়ন দেওয়া হবে না।

বৃহস্পতিবার (১২ জানুয়ারি) জাতীয় সংসদ ভবনে অনুষ্ঠিত আওয়ামী লীগের সংসদীয় দলের সভায় তিনি এসব কথা বলেন।

জাতীয় সংসদ ভবনের সরকারি দলের সভাকক্ষে দল ও সরকারের প্রধান প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার সভাপতিত্বে এ সভা অনুষ্ঠিত হয়। রাত ৮টায় শুরু হয়ে প্রায় দেড় ঘণ্টা চলে সভা।

সংসদীয় দলের সভা সূত্রে জানা গেছে, সভায় প্রধানমন্ত্রী আগামী জাতীয় সংসদ নির্বাচন, বিরোধীদলের আন্দোলনসহ সাম্প্রতিক নানা ইস্যু নিয়ে কথা বলেন। সভায় বেশ কয়েকজন সংসদ সদস‌্যও বক্তব‌্য রাখেন।

সূত্র জানায়, বৈঠকে আওয়ামী লীগ সভাপতি আগামী নির্বাচনে প্রার্থী বাছাইয়ের জন‌্য সার্ভে করেছেন উল্লেখ করে বলেন, তার কাছে সার্ভে রিপোর্ট রয়েছে। রিপোর্ট অনুযায়ী যারা ভালো কাজ করেছেন, যারা জনগণের কাছে যান, আওয়ামী লীগের উন্নয়নের কথা বলেন, ভোট চান, জনগণের সুযোগ-সুবিধা দেখেন এবং জনগণ যাদের চায়, তাদেরকেই মনোনয়ন দেওয়া হবে। আর যারা জনবিচ্ছিন্ন এবং এলাকার লোকজনের সঙ্গে যাদের সুম্পর্ক নেই, এলাকায় যান না- তাদের মনোনয়ন দেওয়া হবে না।

সভায় বিরোধীদলের আন্দোলন প্রসঙ্গে প্রধানমন্ত্রী বলেন, নিয়মতান্ত্রিক আন্দোলন করলে কোনো বাধা দেওয়া হবে না। তবে আন্দোলনের নামে ২০১৩-১৪ ও ২০১৫ সালের মতো সহিংসতা এবং অগ্নিসন্ত্রাস করলে আইনানুগ ব‌্যবস্থা নেওয়া হবে এবং তাদের কঠোর হস্তে দমন করা হবে।

নিজ এমপিদের হুঁশিয়ারি দিয়ে শেখ হাসিনা বলেন, সংসদ সদস্য হতে হলে অবশ্যই জনগণের জন্য কাজ করতে হবে। বৈঠকে প্রধানমন্ত্রী দলের সংসদ সদসদের এলাকায় যাওয়ার নির্দেশনাও দেন।

একই সঙ্গে বর্তমান সরকারের উন্নয়নমূলক কর্মকাণ্ড জনগণের কাছে তুলে ধরার পরামর্শ দিয়ে বিরোধীদলের অপপ্রচারের বিরুদ্ধে জনগণকে সচেতন করতে দলের এমপিদের আরও তৎপর হতে বলেন তিনি।

Print Friendly, PDF & Email

     এ ক্যাটাগরীর আরো খবর