,

1649993259_500-321-Inqilab-white

যুদ্ধজাহাজ ডুবির পর ইউক্রেনে হামলা আরো তীব্র হচ্ছে

হাওর বার্তা ডেস্কঃ কৃষ্ণসাগরে ইউক্রেনের ক্ষেপণাস্ত্র হামলায় রুশ যুদ্ধজাহাজ ডুবির পর ইউক্রেনের রাজধানী কিয়েভে শক্তিশালী বিস্ফোরণের শব্দ শোনা গেছে। শুক্রবার (১৫ এপ্রিল) সকালে কিয়েভে বিস্ফোরণের পাশাপাশি ইউক্রেনজুড়ে বিমান হামলার সাইরেন বেজে ওঠে। কৃষ্ণসাগরে অগ্নিকাণ্ডের পর রুশ যুদ্ধজাহাজ মসকোভা ডুবে যাওয়ার পর ইউক্রেনে হামলা আরও তীব্র হচ্ছে।

চলতি মাসের শুরুর দিকে ইউক্রেনের দক্ষিণ ও পূর্বাঞ্চলে যুদ্ধ জোরদার করার জন্য রাজধানী কিয়েভের আশেপাশের এলাকা থেকে সেনা প্রত্যাহার করে নেয় রাশিয়া। কিন্তু এখন দেখা যাচ্ছে কিয়েভ এলাকায় ফের হামলা শুরু করেছে রুশ সেনারা।
ইউক্রেন মসকোভা ডুবে যাওয়ার দায় স্বীকার করে বলেছে, রাশিয়ার ব্ল্যাক সি ফ্লিটের সোভিয়েত যুগের ফ্ল্যাগশিপ তাদের তৈরি নেপচুন অ্যান্টি-শিপ মিসাইল দিয়ে আঘাত করা হয়েছিল।

রাশিয়ার প্রতিরক্ষা মন্ত্রণালয় জানিয়েছে, বৃহস্পতিবার গভীর রাতে জাহাজটি বন্দরে নিয়ে যাওয়ার সময় ডুবে যায়। ক্ষেপণাস্ত্র ক্রুজারে থাকা ৫০০এর বেশি ক্রুকে বিস্ফোরণের পরে সরিয়ে নেওয়া হয়েছিল বলে জানিয়েছে রাশিয়া।
এদিকে আজভ সাগরের পার্শ্ববর্তী ইউক্রেনের ওডেসা ও মারিউপোলের বাসিন্দারা রাশিয়ার নতুন আক্রমণের জন্য প্রস্তুত হচ্ছে।
ইউক্রেনের প্রেসিডেন্ট ভলোদিমির জেলেনস্কি ভোরবেলা এক ভিডিও ভাষণে ডুবে যাওয়া যুদ্ধজাহাজের দিকে ইঙ্গিত করে মারিউপোলসহ পূর্ব ডনবাস অঞ্চলকে লক্ষ্যবস্তু করার রাশিয়ার অভিপ্রায় সম্পর্কে সতর্ক করেছেন।

কিয়েভ, খেরসন, খারকিভ ও দেশটির পশ্চিমে ইভানো-ফ্রাঙ্কিভস্ক শহরে বিস্ফোরণের পর তাৎক্ষণিকভাবে কোনো ক্ষয়ক্ষতির খবর পাওয়া যায়নি। তবে, ইউক্রেনের সংবাদমাধ্যম কিয়েভের কিছু অংশে বিদ্যুৎ বিভ্রাটের খবর দিয়েছে। সূত্র: রয়টার্স।

Print Friendly, PDF & Email

     এ ক্যাটাগরীর আরো খবর