,

image-541430-1649908108

কী এমন অপরাধ আমার যে মধ্যরাতে আদালত বসালেন: ইমরান

হাওর বার্তা ডেস্কঃ পাকিস্তানের সদ্য সাবেক প্রধানমন্ত্রী ও তেহরিক-ই ইনসাফ (পিটিআই) দলের প্রধান ইমরান খান দেশটির বিচার বিভাগ নিয়ে প্রশ্ন তুলেছেন।

ইমরান বলেন, আমাকে ক্ষমতাচ্যুত করতে আপনাদের এত তাড়াহুড়া কেন? মধ্যরাতে কেন আদালত বসানো হলো?

অথচ আমি বিচার বিভাগের স্বাধীনতা চেয়ে আন্দোলন করে জেল খেটেছি।আর আপনারা এই প্রতিদান দিলেন।খবর দ্যা ডন ও বিবিসির।

পাকিস্তানের পেশোয়ারে বুধবার রাতে অনুষ্ঠিত বিশাল এক সমাবেশে বিচার বিভাগ নিয়ে এসব কথা বলেন।

এ সমাবেশের মাধ্যমে দেশজুড়ে ধারাবাহিক জনসভার কর্মসূচি শুরু করেছেন ইমরান খান।

সমাবেশে তিনি তার বিরুদ্ধে অনাস্থা ভোট নিয়ে মধ্যরাতে আদালত বসানোর সমালোচনা করেছেন।

আবেগ মথিত কণ্ঠে ইমরান খান বলেন, কী এমন অপরাধ আমি করেছি যে আপনারা রাত ১২টায় আদালত বসালেন, আপনারা রাতের অন্ধকারে আদালত বসালেন। অথচ আমি কখনো কোন প্রতিষ্ঠান বা আদালতের বিরুদ্ধে মানুষকে উসকে দেইনি।

তিনি আরও বলেন, আমার ২৫ বছরের রাজনৈতিক জীবনে কখনো আদালত অবমাননা করিনি, দীর্ঘ খেলোয়াড়ি জীবনে কখনও কেউ ম্যাচ ফিক্সিংয়ের অভিযোগ তুলতে পারেনি।

আমি সব সময় আদালতের সম্মান অক্ষুন্ন রাখতে চেয়েছি, কারণ এদেশে জন্মেছি, এদেশেই মরতে চাই। দেশের বিচার ব্যবস্থাকে তাই আমি কখনও অন্যতে হয়রানি করার হাতিয়ার বানাইনি।

প্রসঙ্গত, পাকিস্তানের পার্লামেন্টে ইমরান খানের বিরুদ্ধে বিরোধীদের আনা অনাস্থা ভোট ডেপুটি স্পিকার নাকচ করে দেয়ার পর দেশটির আদালত থেকে পার্লামেন্ট পুর্নবহাল করে অনাস্থা ভোট গ্রহণের নির্দেশ এসেছিল। শনিবার অনেক নাটকীয়তার পর অনাস্থা ভোটে হেরে প্রধানমন্ত্রীর পদ হারিয়েছিলেন তিনি।

শনিবার মধ্যরাতে ইসলামাবাদ হাইকোর্ট খোলা হয় এবং সেখানকার প্রধান বিচারপতি আতহার মিনাল্লাহর কর্মকর্তা-কর্মচারীদের ডেকে পাঠান।

 

Print Friendly, PDF & Email

     এ ক্যাটাগরীর আরো খবর