,

kurigram-2109070848

নারীর মুখে পুরুষের মতো দাড়ি

হাওর বার্তা ডেস্কঃ কুড়িগ্রামের মরিয়ম বেগমের মুখে পুরুষের মতো দাড়ি গজিয়েছে। এ খবর ছড়িয়ে পড়তেই দূর-দূরান্ত থেকে তাকে দেখতে আসছে শত শত উৎসুক মানুষ।

মরিয়ম বেগম রৌমারী সদর ইউনিয়নের চুলিয়ারচর গ্রামের আলী হোসেনের স্ত্রী।

জানা গেছে, ১৫ বছর আগে আলী হোসেনের সঙ্গে বিয়ে হয় মরিয়মের। তারা একই গ্রামের বাসিন্দা। বিয়ের এত বছর পরও তাদের কোনো সন্তান হয়নি। অন্যের জমিতে বসবাস ও দিনমজুরির কাজ করে তাদের সংসার চলে। অভাবের সংসার হলেও দাম্পত্য জীবনে সুখেই ছিলেন মরিয়ম-আলী হোসেন দম্পতি। এরইমধ্যে একদিন মরিয়মের মুখে দাড়ি গজাতে শুরু করে। এতে বিপাকে পড়েন স্বামী আলী হোসেন। চিকিৎসা করালে এ রোগ ভালো হবে জেনেও অর্থের অভাবে স্ত্রীকে উন্নত চিকিৎসা দিতে পারছেন না তিনি। ফলে মরিয়মের মুখের দাড়ি দিনদিন বাড়তে থাকে।

মরিয়ম বেগম বলেন, পুরুষের মতো দাড়ি আমাকে লজ্জায় ফেলে দিয়েছে। আমি মানুষের সামনে যেতে পারছি না। প্রথম দিকে দাড়ি কেটে ফেলতাম। কিন্তু আবার দাড়ি বড় হয়ে যেত। এ কারণে এখন আর কাটি না। আমি চিকিৎসা নিয়ে এ সমস্যা থেকে মুক্তি পেতে চাই।

রেীমারী উপজেলা স্বাস্থ্য কর্মকর্তা ডা. আসাদুজ্জামান জানান, নারীদের মুখে গোঁফ বা দাড়ি হওয়াকে হিরসুটিজম বলে। যেকোনো বয়সে এটি হতে পারে। অনেক সময় বংশগত কারণে এমনটি হয়ে থাকে। নারীদের শরীরে এন্ড্রোজেন নামক হরমোনের আধিক্যই এ রোগের কারণ। উন্নত চিকিৎসার মাধ্যমে এ থেকে মুক্তি পাওয়া সম্ভব।

Print Friendly, PDF & Email

     এ ক্যাটাগরীর আরো খবর