,

21

শি জিনপিংয়ের সঙ্গে প্রথম ফোনালাপে যা বললেন বাইডেন

হাওর বার্তা ডেস্কঃ চীনের প্রেসিডেন্ট শি জিনপিংকে দেয়া প্রথম ফোন কলে মার্কিন প্রেসিডেন্ট জো বাইডেন মানবাধিকার লঙ্ঘন নিয়ে কথা বলেছেন। হোয়াইট হাউসের বরাত দিয়ে এ তথ্য জানিয়েছে বিবিসি।

এছাড়া বাণিজ্য, হংকংয়ের ওপর চীনের দমন পীড়ন ও তাইওয়ানের সঙ্গে চলমান উত্তেজনা নিয়েও কথা বলেন বাইডেন। এদিকে চীনের রাষ্ট্রীয় টেলিভিশন জানিয়েছে, বৈরি সম্পর্ক দুই দেশের জন্যই বিপর্যয় ডেকে আনবে বলে বাইডেনকে সতর্ক করে দিয়েছেন শি।

বাণিজ্য, গুপ্তচরবৃত্তি ও মহামারি নিয়ে সম্প্রতি চীন ও যুক্তরাষ্ট্রের মধ্যে উত্তেজনা বৃদ্ধি পেয়েছে।

চীন ও যুক্তরাষ্ট্রের মধ্যে সম্পর্ক উভয় দিক থেকেই বৈরি পর্যায়ে রয়েছে। তবে ডোনাল্ড ট্রাম্পের সময় সম্পর্কের যে অবনতি হয়েছিল তা উন্নত করতে যুক্তরাষ্ট্রের নতুন প্রশাসনের প্রতি বারবার আহ্বান জানাচ্ছে চীন।

চীনের নতুন চান্দ্র বর্ষের শুরুতেই যুক্তরাষ্ট্র থেকে এই কল এল যা শুভেচ্ছার নিদর্শন হিসেবে দেখা হচ্ছে।

ফোনালাপের পর বাইডেন টুইট করেছেন, ‘আমি চীনের সঙ্গে কাজ করব যখন তা মার্কিন জনগণকে উপকৃত করবে।’

এক বিবৃতিতে হোয়াইট হাউসের পক্ষ থেকে বলা হয়েছে, ‘বেইজিং এর দমনমূলক ও অন্যায্য অর্থনৈতিক চর্চা, হংকং প্রতি কঠোর পদক্ষেপ, জিনজিয়াংয়ে মানবাধিকার লঙ্ঘন ও তাইওয়ানসহ এই অঞ্চলে ক্রমবর্ধমান বিরোধপূর্ণ আচরণের নিয়ে প্রেসিডেন্ট তার উদ্বেগের প্রতি জোর দিয়েছেন।’

জিনজিয়াংয়ে দশ লাখেরও বেশি উইঘুর মুসলিমদের বন্দি করে রাখার অভিযোগ রয়েছে চীনের বিরুদ্ধে। যদিও চীন এই কাজকে ‘পুনরায় শিক্ষা প্রদানের ক্যাম্প’ বলে উল্লেখ করে। উইঘুরদের শ্রমে বাধ্য করা ও নারীদের জোর করে বন্ধ্যাকরণের অভিযোগও রয়েছে চীনের প্রতি। তবে চীন এই অভিযোগ অস্বীকার করে আসছে।

ফোনালাপে দুই পরাশক্তির শীর্ষ নেতা করোনাভাইরাস মহামারি মোকাবিলার বিষয়ে আলাপ করেছেন। এছাড়া বৈশ্বিক স্বাস্থ্য, জলবায়ু পরিবর্তন ও অস্ত্র বৃদ্ধি নিয়ন্ত্রণের চ্যালেঞ্জ নিয়েও তারা কথা বলেন।

চীনের রাষ্ট্রীয় টেলিভিশন সিসিটিভি বলেছে, দুই নেতা দ্বিপাক্ষিক সম্পর্ক এবং আন্তর্জাতিক ও আঞ্চলিক পর্যায়ের প্রধান ইস্যুগুলো নিয়ে তাদের সুচিন্তিত মতামত বিনিময় করেছেন।

Print Friendly, PDF & Email

     এ ক্যাটাগরীর আরো খবর