ঢাকা ০৭:১২ অপরাহ্ন, শনিবার, ১৫ জুন ২০২৪, ১ আষাঢ় ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

ভাইরাল ছবি নিয়ে জবাব কঙ্গনার

  • Reporter Name
  • আপডেট টাইম : ১১:১২:০৬ পূর্বাহ্ন, মঙ্গলবার, ২৮ মে ২০২৪
  • ৯ বার

গত কয়েকদিন ধরে সোশ্যাল মিডিয়ায় রীতিমতো ভাইরাল একটি ছবি। ছবিতে পানীয় গ্লাসে হাতে দেখা গিয়েছে বিজেপির লোকসভা পদপ্রার্থী কঙ্গনা রানাউতকে। মান্ডির প্রার্থীর পাশে বিয়ারের বোতল হাতে দাঁড়িয়ে রয়েছেন সাদা শার্ট পরা এক ব্যক্তি। নাইটক্লাবের ভেতরে বার-কাউন্টারের সামনে বসে পোজ দিচ্ছেন কঙ্গনা। সেই ছবি নিয়েই উত্তাল বিরোধী শিবির। গ্যাংস্টার আবু সালেমের সঙ্গে পার্টি করেছিলেন কঙ্গনা এমন দাবি নিয়েও নেটপাড়ায় সরব হয়েছেন অনেকেই।

এবার নিজের ইনস্টাগ্রাম স্টোরিতে সেই ভাইরাল ছবির স্ক্রিনশট শেয়ার করে সপাট জবাব দিলেন কঙ্গনা। তিনি স্পষ্ট জানান, তার পাশে দাঁড়ানো ব্যক্তি মোটেই আবু সালেম নন, বরং এক প্রখ্যাত বিনোদন সাংবাদিক।

কঙ্গনা ছবিটির একটি স্ক্রিনশট শেয়ার করেছেন ‘মরিয়া কংগ্রেস নেতারা ছবিটির ক্যাপশন দিয়ে ছড়িয়ে দিচ্ছেন যে আমি গ্যাংস্টার আবু সালেমের সঙ্গে পার্টি করছি। জানিয়ে দিই ইনি টাইমস অব ইন্ডিয়ার সাবেক বিনোদন সম্পাদক, সাংবাদিক মার্ক ম্যানুয়েল। এটা তার জন্য অসম্মানজনক। তিনি আবু সালেম নন এবং ছবিটি ফিল্মি পার্টিতে তোলা’।

কংগ্রেসের আইটি সেলই তার ছবিটি নিয়ে ভুয় প্রচার চালাচ্ছে, অভিযোগ নায়িকার। জানিয়ে রাখি, ২০০৬ সালে অনুরাগ বসুর ‘গ্যাংস্টার: এ ট্রু লাভস্টোরি’ দিয়ে বলিউডে পা রাখেন কঙ্গনা। বলা হয়, এ ছবির অনুপ্রেরণা গ্যাংস্টার আবু সালেম ও বলিউড অভিনেত্রী মণিকা বেদীর প্রেম কাহিনি।

গত ২৪ মে মান্ডিতে খোদ ভারতের প্রধানমন্ত্রী কঙ্গনার হয়ে প্রচারে গিয়েছিলেন এবং একটি জনসভায় ভাষণ দেন মোদি। প্রধানমন্ত্রীকে একটি লাল গোলাপ উপহার দিতে দেখা গিয়েছিল কঙ্গনাকে।  মোদির নেতৃত্বে কাজ করার সুযোগ পেয়ে কৃতজ্ঞতা প্রকাশ করে তিনি বলেন, ‘প্রধানমন্ত্রী মোদির নির্দেশনায় কাজ করার দিন এসেছে। প্রধানমন্ত্রী মোদির প্রশংসা করা সূর্যকে মোমবাতি দেখানোর মতো। তিনি যে কারিগরি ও আধুনিক উন্নয়নমূলক কাজ করেছেন তা অসাধারণ। এখন আমি তার দলের অংশ এবং দলীয় কর্মী হিসেবে মান্ডির উন্নয়নমূলক কাজে প্রতিশ্রুতিবদ্ধ।’

কঙ্গনা আগেই ইঙ্গিত দিয়েছেন নির্বাচনে জয় পেলে অভিনয় ক্যারিয়ারে ইতি টানতে পারেন তিনি। আগামীতে কঙ্গনাকে পর্দায় দেখা যাবে ইন্দিরা গান্ধী রূপে। এমার্জেন্সি ছবিতে দেশের একমাত্র নারী প্রধানমন্ত্রীর চরিত্রে অভিনয় করবেন কঙ্গনা, এ ছবির পরিচালকও তিনি। নির্বাচনের জন্যই মুক্তি পিছিয়েছে এমার্জেন্সির। কঙ্গনা ছাড়াও ছবিতে দেখা যাবে অনুপম খের, মিলিন্দ সোমান, মহিমা চৌধুরী, সতীশ কৌশিক এবং শ্রেয়াস তালপাড়ের মতো তারকাদের।

 

Tag :

Write Your Comment

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Save Your Email and Others Information

About Author Information

Haor Barta24

ভাইরাল ছবি নিয়ে জবাব কঙ্গনার

আপডেট টাইম : ১১:১২:০৬ পূর্বাহ্ন, মঙ্গলবার, ২৮ মে ২০২৪

গত কয়েকদিন ধরে সোশ্যাল মিডিয়ায় রীতিমতো ভাইরাল একটি ছবি। ছবিতে পানীয় গ্লাসে হাতে দেখা গিয়েছে বিজেপির লোকসভা পদপ্রার্থী কঙ্গনা রানাউতকে। মান্ডির প্রার্থীর পাশে বিয়ারের বোতল হাতে দাঁড়িয়ে রয়েছেন সাদা শার্ট পরা এক ব্যক্তি। নাইটক্লাবের ভেতরে বার-কাউন্টারের সামনে বসে পোজ দিচ্ছেন কঙ্গনা। সেই ছবি নিয়েই উত্তাল বিরোধী শিবির। গ্যাংস্টার আবু সালেমের সঙ্গে পার্টি করেছিলেন কঙ্গনা এমন দাবি নিয়েও নেটপাড়ায় সরব হয়েছেন অনেকেই।

এবার নিজের ইনস্টাগ্রাম স্টোরিতে সেই ভাইরাল ছবির স্ক্রিনশট শেয়ার করে সপাট জবাব দিলেন কঙ্গনা। তিনি স্পষ্ট জানান, তার পাশে দাঁড়ানো ব্যক্তি মোটেই আবু সালেম নন, বরং এক প্রখ্যাত বিনোদন সাংবাদিক।

কঙ্গনা ছবিটির একটি স্ক্রিনশট শেয়ার করেছেন ‘মরিয়া কংগ্রেস নেতারা ছবিটির ক্যাপশন দিয়ে ছড়িয়ে দিচ্ছেন যে আমি গ্যাংস্টার আবু সালেমের সঙ্গে পার্টি করছি। জানিয়ে দিই ইনি টাইমস অব ইন্ডিয়ার সাবেক বিনোদন সম্পাদক, সাংবাদিক মার্ক ম্যানুয়েল। এটা তার জন্য অসম্মানজনক। তিনি আবু সালেম নন এবং ছবিটি ফিল্মি পার্টিতে তোলা’।

কংগ্রেসের আইটি সেলই তার ছবিটি নিয়ে ভুয় প্রচার চালাচ্ছে, অভিযোগ নায়িকার। জানিয়ে রাখি, ২০০৬ সালে অনুরাগ বসুর ‘গ্যাংস্টার: এ ট্রু লাভস্টোরি’ দিয়ে বলিউডে পা রাখেন কঙ্গনা। বলা হয়, এ ছবির অনুপ্রেরণা গ্যাংস্টার আবু সালেম ও বলিউড অভিনেত্রী মণিকা বেদীর প্রেম কাহিনি।

গত ২৪ মে মান্ডিতে খোদ ভারতের প্রধানমন্ত্রী কঙ্গনার হয়ে প্রচারে গিয়েছিলেন এবং একটি জনসভায় ভাষণ দেন মোদি। প্রধানমন্ত্রীকে একটি লাল গোলাপ উপহার দিতে দেখা গিয়েছিল কঙ্গনাকে।  মোদির নেতৃত্বে কাজ করার সুযোগ পেয়ে কৃতজ্ঞতা প্রকাশ করে তিনি বলেন, ‘প্রধানমন্ত্রী মোদির নির্দেশনায় কাজ করার দিন এসেছে। প্রধানমন্ত্রী মোদির প্রশংসা করা সূর্যকে মোমবাতি দেখানোর মতো। তিনি যে কারিগরি ও আধুনিক উন্নয়নমূলক কাজ করেছেন তা অসাধারণ। এখন আমি তার দলের অংশ এবং দলীয় কর্মী হিসেবে মান্ডির উন্নয়নমূলক কাজে প্রতিশ্রুতিবদ্ধ।’

কঙ্গনা আগেই ইঙ্গিত দিয়েছেন নির্বাচনে জয় পেলে অভিনয় ক্যারিয়ারে ইতি টানতে পারেন তিনি। আগামীতে কঙ্গনাকে পর্দায় দেখা যাবে ইন্দিরা গান্ধী রূপে। এমার্জেন্সি ছবিতে দেশের একমাত্র নারী প্রধানমন্ত্রীর চরিত্রে অভিনয় করবেন কঙ্গনা, এ ছবির পরিচালকও তিনি। নির্বাচনের জন্যই মুক্তি পিছিয়েছে এমার্জেন্সির। কঙ্গনা ছাড়াও ছবিতে দেখা যাবে অনুপম খের, মিলিন্দ সোমান, মহিমা চৌধুরী, সতীশ কৌশিক এবং শ্রেয়াস তালপাড়ের মতো তারকাদের।