ঢাকা ১১:১৮ পূর্বাহ্ন, বুধবার, ২৯ মে ২০২৪, ১৫ জ্যৈষ্ঠ ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

আমার কাজ দর্শকের সঙ্গে সংযুক্ত থাকা

  • Reporter Name
  • আপডেট টাইম : ১০:২২:২৬ পূর্বাহ্ন, শনিবার, ৬ এপ্রিল ২০২৪
  • ১৯ বার

ঢালিউডের আলোচিত নায়িকা অপু বিশ্বাস। একসময় অনেক ব্যবসাসফল সিনেমা উপহার দিয়েছেন। আসন্ন ঈদে মুক্তি পাচ্ছে না তার কোন নতুন সিনেমা। বর্তমান ব্যস্ততা ও সমসাময়িক বিভিন্ন প্রসঙ্গ নিয়ে আজকের ‘হ্যালো…’ বিভাগে কথা বলেছেন তিনি।

ঈদে আপনার নতুন সিনেমা নেই। কী নিয়ে ব্যস্ত আছেন?

ঈদে টেলিভিশন চ্যানেলগুলোতে আমাকে যেতে হচ্ছে। যেহেতু আমার আগের অনেকগুলো সিনেমা আছে, সেগুলো ঈদে রিলিজ হচ্ছে নতুন করে টেলিভিশনে। আমি ব্র্যান্ড অ্যাম্বাসেডর, ফটোশুট এবং আমার নিজস্ব বিজনেস নিজস্ব প্রতিষ্ঠান- এগুলো নিয়েই ব্যস্ত আছি। প্রত্যেকটাই তো কাজ। প্রত্যেকটা একটা পার্ট। প্রত্যেকটাই ব্যস্ততার একটা জায়গা। এভাবেই ব্যস্ততা চলছে। তবে ইম্পর্টেন্ট ব্যস্ততা হচ্ছে আমার সন্তানকে (আব্রাম খান জয়) নিয়ে।

হাতে কী নতুন সিনেমার কাজ আছে?

হুম, আগামীতে দেখা যাবে। সিনেমায় আসলে গল্প নির্বাচনসহ অনেক কিছুই থাকে। সেরকম একটা কিছুর জন্যই টাইম নিছি। তবে আলোচনা হচ্ছে। আশা করি দেখতে পাবেন।

আপনার শুটিং ব্যস্ততা এখন কী তাহলে অনেক কম?

না না, একদম শুটিং ব্যস্ততা কম নয়।  সিনেমাকেন্দ্রিক শুটিং ব্যস্ততা একটু লিমিটেড। তবে আমার তো এখন শুধু সিনেমাকেন্দ্রিক কাজ করা হয় না, আমার এখন অনেক ধরনের কাজ করা হয়। আমি কিন্তু এখন প্রচুর ব্যস্ত এবং প্রচুর টায়ার্ড। তার জন্য গত কিছুদিন আগে আমি আমার বাচ্চাকে নিয়ে দেশের বাহিরে ঘুরতে গিয়েছিলাম। কারণ আমার মনে হয়েছে নিজেকে একটু সময় দেয়া দরকার এখন এবং আমার বাচ্চাকেও সময় দেয়া দরকার।

ঈদে অনেকগুলো সিনেমা মুক্তির ব্যাপারটা কীভাবে দেখছেন?

এটা একদিকে নেতিবাচক আবার একদিকে ইতিবাচক। আমি এই কারণেই নেতিবাচক বলব,  সিনেমা শুধু ঈদেই কেন আসতে হবে! ঈদকে কেন্দ্র করেই কেন মুক্তি দিতে হবে! আমি আগে দেখব আমার সিনেমার মেরিটটা কেমন। যদি দেখি ঈদের পরে আসলে সমস্যা নেই, তাহলে আমি বলব ঈদেই পরেই মুক্তি দেয়া উচিত। আর যদি ব্যাপারটা এমন হয় যে ঈদেই মুক্তি দিতে হবে, সিনেমার মেরিটটাই এমন তাহলে ঠিক আছে। আমাদের সিনেমাহলের সংখ্যা অনেক কম। ১৩টা সিনেমা মুক্তি দেওয়ার মতো সিনেমাহল নেই। আর যেখানে শাকিব খানের সিনেমা আসছে, সেখানে স্বাভাবিকভাবেই বুঝাই যায় বাকিরা কয়টা হল পেতে পারে।

শিল্পী সমিতির নির্বাচন ঘিরে তর্কযুদ্ধ চলছে। আপনার মন্তব্য কী?

শিল্পী সমিতির বিষয়গুলো নিয়ে আমার কোনো মন্তব্য নেই। আমি এগুলোতে সম্পৃক্ত নই। তাই আমি ততোটা জানি না। উনারা যেটা ভালো মনে করছেন সেটাই করছেন। কাদা ছোড়াছুড়ি বিষয়ে তাই আমার কোনো মন্তব্য নেই। আমি শিল্পী সমিতির নির্বাচন করতে কখনোই যাইনি, আর যাবও না। আমার কাজ অভিনয় করা, আমার কাজ দর্শকের সঙ্গে রিলেট করে থাকা। আমার মন্তব্যের জায়গাটা হচ্ছে, আমি বিনোদনের একজন মানুষ, বিনোদনটা নিয়েই থাকতে চাই।

আগামীতে তাহলে আপনাকে কখনোই নির্বাচনে দেখা যাবে না?

শিল্পী সমিতির নির্বাচনে দেখতে পাবেন না। তবে অবশ্যই জাতীয় নির্বাচনে অংশগ্রহণ করব। যেহেতু আমি এটাতে একটিভ তাই বলবো এটা বিদ্যমান থাকবে।

ঈদ নিয়ে পরিকল্পনা কী?

ঈদের পরিকল্পনা আমার পুচকাকে (ছেলে) নিয়ে। আমার ছেলে ঈদের নামাজ পরার জন্য মুখিয়ে আছে। সে প্রত্যেকদিনই রোজা রাখে, তবে লাঞ্চটাইম হলেই বলে ‘মম ক্ষুধা লেগেছে’। এটা ভালো লাগে যে, রোজাটা সে বুঝতে পারে। হয়তোবা সে বাচ্চা মানুষ, তাই রোজাটা ধরে রাখতে পারে না। বুঝতে পারে, এটাই অনেক কিছু। আর ঈদে বাচ্চাকে নিয়ে ঘুরাঘুরি করব, পরিবারকে সময় দেব। এছাড়া আর তেমন কোনো পরিকল্পনা আপাতত নেই।

Tag :

Write Your Comment

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Save Your Email and Others Information

About Author Information

Haor Barta24

আমার কাজ দর্শকের সঙ্গে সংযুক্ত থাকা

আপডেট টাইম : ১০:২২:২৬ পূর্বাহ্ন, শনিবার, ৬ এপ্রিল ২০২৪

ঢালিউডের আলোচিত নায়িকা অপু বিশ্বাস। একসময় অনেক ব্যবসাসফল সিনেমা উপহার দিয়েছেন। আসন্ন ঈদে মুক্তি পাচ্ছে না তার কোন নতুন সিনেমা। বর্তমান ব্যস্ততা ও সমসাময়িক বিভিন্ন প্রসঙ্গ নিয়ে আজকের ‘হ্যালো…’ বিভাগে কথা বলেছেন তিনি।

ঈদে আপনার নতুন সিনেমা নেই। কী নিয়ে ব্যস্ত আছেন?

ঈদে টেলিভিশন চ্যানেলগুলোতে আমাকে যেতে হচ্ছে। যেহেতু আমার আগের অনেকগুলো সিনেমা আছে, সেগুলো ঈদে রিলিজ হচ্ছে নতুন করে টেলিভিশনে। আমি ব্র্যান্ড অ্যাম্বাসেডর, ফটোশুট এবং আমার নিজস্ব বিজনেস নিজস্ব প্রতিষ্ঠান- এগুলো নিয়েই ব্যস্ত আছি। প্রত্যেকটাই তো কাজ। প্রত্যেকটা একটা পার্ট। প্রত্যেকটাই ব্যস্ততার একটা জায়গা। এভাবেই ব্যস্ততা চলছে। তবে ইম্পর্টেন্ট ব্যস্ততা হচ্ছে আমার সন্তানকে (আব্রাম খান জয়) নিয়ে।

হাতে কী নতুন সিনেমার কাজ আছে?

হুম, আগামীতে দেখা যাবে। সিনেমায় আসলে গল্প নির্বাচনসহ অনেক কিছুই থাকে। সেরকম একটা কিছুর জন্যই টাইম নিছি। তবে আলোচনা হচ্ছে। আশা করি দেখতে পাবেন।

আপনার শুটিং ব্যস্ততা এখন কী তাহলে অনেক কম?

না না, একদম শুটিং ব্যস্ততা কম নয়।  সিনেমাকেন্দ্রিক শুটিং ব্যস্ততা একটু লিমিটেড। তবে আমার তো এখন শুধু সিনেমাকেন্দ্রিক কাজ করা হয় না, আমার এখন অনেক ধরনের কাজ করা হয়। আমি কিন্তু এখন প্রচুর ব্যস্ত এবং প্রচুর টায়ার্ড। তার জন্য গত কিছুদিন আগে আমি আমার বাচ্চাকে নিয়ে দেশের বাহিরে ঘুরতে গিয়েছিলাম। কারণ আমার মনে হয়েছে নিজেকে একটু সময় দেয়া দরকার এখন এবং আমার বাচ্চাকেও সময় দেয়া দরকার।

ঈদে অনেকগুলো সিনেমা মুক্তির ব্যাপারটা কীভাবে দেখছেন?

এটা একদিকে নেতিবাচক আবার একদিকে ইতিবাচক। আমি এই কারণেই নেতিবাচক বলব,  সিনেমা শুধু ঈদেই কেন আসতে হবে! ঈদকে কেন্দ্র করেই কেন মুক্তি দিতে হবে! আমি আগে দেখব আমার সিনেমার মেরিটটা কেমন। যদি দেখি ঈদের পরে আসলে সমস্যা নেই, তাহলে আমি বলব ঈদেই পরেই মুক্তি দেয়া উচিত। আর যদি ব্যাপারটা এমন হয় যে ঈদেই মুক্তি দিতে হবে, সিনেমার মেরিটটাই এমন তাহলে ঠিক আছে। আমাদের সিনেমাহলের সংখ্যা অনেক কম। ১৩টা সিনেমা মুক্তি দেওয়ার মতো সিনেমাহল নেই। আর যেখানে শাকিব খানের সিনেমা আসছে, সেখানে স্বাভাবিকভাবেই বুঝাই যায় বাকিরা কয়টা হল পেতে পারে।

শিল্পী সমিতির নির্বাচন ঘিরে তর্কযুদ্ধ চলছে। আপনার মন্তব্য কী?

শিল্পী সমিতির বিষয়গুলো নিয়ে আমার কোনো মন্তব্য নেই। আমি এগুলোতে সম্পৃক্ত নই। তাই আমি ততোটা জানি না। উনারা যেটা ভালো মনে করছেন সেটাই করছেন। কাদা ছোড়াছুড়ি বিষয়ে তাই আমার কোনো মন্তব্য নেই। আমি শিল্পী সমিতির নির্বাচন করতে কখনোই যাইনি, আর যাবও না। আমার কাজ অভিনয় করা, আমার কাজ দর্শকের সঙ্গে রিলেট করে থাকা। আমার মন্তব্যের জায়গাটা হচ্ছে, আমি বিনোদনের একজন মানুষ, বিনোদনটা নিয়েই থাকতে চাই।

আগামীতে তাহলে আপনাকে কখনোই নির্বাচনে দেখা যাবে না?

শিল্পী সমিতির নির্বাচনে দেখতে পাবেন না। তবে অবশ্যই জাতীয় নির্বাচনে অংশগ্রহণ করব। যেহেতু আমি এটাতে একটিভ তাই বলবো এটা বিদ্যমান থাকবে।

ঈদ নিয়ে পরিকল্পনা কী?

ঈদের পরিকল্পনা আমার পুচকাকে (ছেলে) নিয়ে। আমার ছেলে ঈদের নামাজ পরার জন্য মুখিয়ে আছে। সে প্রত্যেকদিনই রোজা রাখে, তবে লাঞ্চটাইম হলেই বলে ‘মম ক্ষুধা লেগেছে’। এটা ভালো লাগে যে, রোজাটা সে বুঝতে পারে। হয়তোবা সে বাচ্চা মানুষ, তাই রোজাটা ধরে রাখতে পারে না। বুঝতে পারে, এটাই অনেক কিছু। আর ঈদে বাচ্চাকে নিয়ে ঘুরাঘুরি করব, পরিবারকে সময় দেব। এছাড়া আর তেমন কোনো পরিকল্পনা আপাতত নেই।