ঢাকা ১০:৩৭ অপরাহ্ন, বৃহস্পতিবার, ১৩ জুন ২০২৪, ৩০ জ্যৈষ্ঠ ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

গরু নিয়ে মুখ খোলায় লেখিকাকে ধর্ষণের হুমকি

  • Reporter Name
  • আপডেট টাইম : ১২:১১:০৭ পূর্বাহ্ন, সোমবার, ২৬ অক্টোবর ২০১৫
  • ২৮৪ বার

ভারতে গরু নিয়ে ঘটে যাচ্ছে তুলকালাম সব কাণ্ড। হিন্দু সংস্কার নিয়ে মুখ খোলায় এবার হুমকি পেলেন এক লেখিকা। হিন্দু সংস্কারকে প্রশ্নবিদ্ধ করায় ধর্ষণ, অ্যাসিড নিক্ষেপসহ বিভিন্ন হুমকি দেয়া হয়েছে চেতনা তীর্থথলি নামের ওই লেখিকাকে।

ভারতীয় সংবাদমাধ্যম জানায়, হিন্দু সংস্কারের সমালোচনা করে মুসলিম-প্রকাশনাসহ বিভিন্ন ম্যাগাজিনে ওই লেখিকা নিবন্ধ লেখার পর থেকেই হুমকি পেয়ে আসছেন। গরু কেনা-বেচার সমর্থনে ব্যাঙ্গালুরুতে বিপুল পরিমাণ লেখক ও নারীবাদীর সাম্প্রতিক মিছিলটিতেও ছিলেন তিনি।

পুলিশকে চেতনা জানিয়েছেন, গেল কয়েকমাস ধরে ফেসবুকে অব্যাহতভাবে হুমকি পেয়ে আসছেন তিনি। সব বিবেচনা করে শনিবার হনুমন্থ নগর পুলিশের কাছে অভিযোগ করেন তিনি।

অভিযোগে তিনি বলেন, ৫/৬ মাস হলো বিভিন্ন হুমকিসহ মেসেজ পেয়ে আসছি। প্রথমদিককার সব বার্তাই আসতো ভুয়া প্রোফাইল থেকে। এগুলো ছিল আমার ফেসবুক পোস্ট নিয়ে। আমি সেগুলো পাত্তা দিতাম না। কিছুদিন পর মধুসূদন আমাকে অব্যাহতভাবে বার্তা পাঠাতে থাকে, বিশেষত সাম্প্রতিক প্রতিবাদী মিছিলের পর থেকে।

তিনি জানান, কালুবুর্গির হত্যাকাণ্ড এবং সে ঘটনার তদন্তে অগ্রগতি না হওয়াতে তিনি আর নিজেকে নিরাপদ মনে করছেন না।

এর আগে গরুর মাংস খাওয়া এবং সংরক্ষণ করার গুজবকে কেন্দ্র করে গত ২৮ সেপ্টেম্বর ভারতের উত্তর প্রদেশে মোহাম্মদ আখলাক নামে ৫০ বছর বয়সী এক ব্যক্তিকে পিটিয়ে হত্যা করা হয়। আর পাকিস্তানের সাবেক পররাষ্ট্রমন্ত্রী খুরশিদ মাহমুদ কাসুরির বইয়ের মোড়ক উন্মোচন অনুষ্ঠানে শিবসেনার হাতে লাঞ্ছিত হয়েছেন আয়োজক সুধেন্দ্র কুলকার্নি। প্রকাশ্যে সুধেন্দ্রর মুখে কালি ঢেলে দেয় কট্টর হিন্দুত্ববাদী সংগঠন শিবসেনার কর্মীরা।

Tag :

Write Your Comment

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Save Your Email and Others Information

About Author Information

Haor Barta24

গরু নিয়ে মুখ খোলায় লেখিকাকে ধর্ষণের হুমকি

আপডেট টাইম : ১২:১১:০৭ পূর্বাহ্ন, সোমবার, ২৬ অক্টোবর ২০১৫

ভারতে গরু নিয়ে ঘটে যাচ্ছে তুলকালাম সব কাণ্ড। হিন্দু সংস্কার নিয়ে মুখ খোলায় এবার হুমকি পেলেন এক লেখিকা। হিন্দু সংস্কারকে প্রশ্নবিদ্ধ করায় ধর্ষণ, অ্যাসিড নিক্ষেপসহ বিভিন্ন হুমকি দেয়া হয়েছে চেতনা তীর্থথলি নামের ওই লেখিকাকে।

ভারতীয় সংবাদমাধ্যম জানায়, হিন্দু সংস্কারের সমালোচনা করে মুসলিম-প্রকাশনাসহ বিভিন্ন ম্যাগাজিনে ওই লেখিকা নিবন্ধ লেখার পর থেকেই হুমকি পেয়ে আসছেন। গরু কেনা-বেচার সমর্থনে ব্যাঙ্গালুরুতে বিপুল পরিমাণ লেখক ও নারীবাদীর সাম্প্রতিক মিছিলটিতেও ছিলেন তিনি।

পুলিশকে চেতনা জানিয়েছেন, গেল কয়েকমাস ধরে ফেসবুকে অব্যাহতভাবে হুমকি পেয়ে আসছেন তিনি। সব বিবেচনা করে শনিবার হনুমন্থ নগর পুলিশের কাছে অভিযোগ করেন তিনি।

অভিযোগে তিনি বলেন, ৫/৬ মাস হলো বিভিন্ন হুমকিসহ মেসেজ পেয়ে আসছি। প্রথমদিককার সব বার্তাই আসতো ভুয়া প্রোফাইল থেকে। এগুলো ছিল আমার ফেসবুক পোস্ট নিয়ে। আমি সেগুলো পাত্তা দিতাম না। কিছুদিন পর মধুসূদন আমাকে অব্যাহতভাবে বার্তা পাঠাতে থাকে, বিশেষত সাম্প্রতিক প্রতিবাদী মিছিলের পর থেকে।

তিনি জানান, কালুবুর্গির হত্যাকাণ্ড এবং সে ঘটনার তদন্তে অগ্রগতি না হওয়াতে তিনি আর নিজেকে নিরাপদ মনে করছেন না।

এর আগে গরুর মাংস খাওয়া এবং সংরক্ষণ করার গুজবকে কেন্দ্র করে গত ২৮ সেপ্টেম্বর ভারতের উত্তর প্রদেশে মোহাম্মদ আখলাক নামে ৫০ বছর বয়সী এক ব্যক্তিকে পিটিয়ে হত্যা করা হয়। আর পাকিস্তানের সাবেক পররাষ্ট্রমন্ত্রী খুরশিদ মাহমুদ কাসুরির বইয়ের মোড়ক উন্মোচন অনুষ্ঠানে শিবসেনার হাতে লাঞ্ছিত হয়েছেন আয়োজক সুধেন্দ্র কুলকার্নি। প্রকাশ্যে সুধেন্দ্রর মুখে কালি ঢেলে দেয় কট্টর হিন্দুত্ববাদী সংগঠন শিবসেনার কর্মীরা।