,

গোল করেই যাচ্ছেন মেসি-এমবাপে,সহজ জয়ে শীর্ষে ফিরল পিএসজি

হাওর বার্তা ডেস্কঃ ফ্রেঞ্চ লিগ,চ্যাম্পিয়নস লিগ কিংবা আন্তর্জাতিক ম্যাচ- ফুটবলের যে কোন সংস্করণে গোল করাটাকে অভ্যাসে পরিণত করে ফেলেছেন পিএসজির ম্যাজিক্যাল ত্রয়ী।সদ্য সমাপ্ত আন্তর্জাতিক প্রীতি ম্যাচগুলোতে দারুণ ফর্মের ধারা লিগ ওয়ানেও টেনে এনেছেন মেসি এমবাপে। এই দুইজনের গোলে গতকাল নিসেকে ২-১ গোলে হারিয়েছে পিএসজি।

পিএসজির ঘরের মাঠে অনুষ্ঠিত এ ম্যাচে আন্তর্জাতিক ম্যাচের বিরতির পর ফের একসাথে হয়েছিল মেসি-নেইমার-এমবাপে।তবে এদিন একাদশে শুরু থেকে ছিলেন না এমবাপে।

প্রথমার্ধে খেলা কিছুটা নিরুত্তাপ গতিতে চললেও মেসির জাদুতে ম্যাচে প্রাণ ফিরে। ২৭ মিনিটে নিজেদের ডি-বক্সের ঠিক বাইরে নিসের ব্রাজিলিয়ান ডিফেন্ডার দান্তে মেসিকে ফাউল করে হলুদ কার্ড পান। রেফারি পিএসজির পক্ষে ফ্রি-কিকের সিদ্ধান্ত দেন।

সেই ফ্রি-কিক থেকে নিখুঁত এক শটে বল জালে জড়িয়ে ফ্রেঞ্চ জায়ান্টদের এগিয়ে দেন মেসি। নিসের মানব প্রাচীরের ওপর দিয়ে বাঁ পায়ে নেওয়া মেসির ফ্রি-কিকটি কার্ল করে পোস্ট ঘেষে জাল খুঁজে নেয়। চোখের পলক ফেলার আগেই আর্জেন্টাইন ফরোয়ার্ডের নেওয়া জোরালো শটের সামনে নিসে গোলরক্ষক ক্যাসপার স্মেইকেল ছিলেন অনেকটা অসহায়।

লিড নিয়ে প্রথমার্ধ শেষ করলেও বিরতির পর ফিরে সেই লিড বেশিক্ষণ ধরে রাখতে পারেনি গলতিয়ের শিষ্যরা।ম্যাচের ৪৭ মিনিটের ফরাসি ফরোয়ার্ড লাবোর্দের করা গোলে ম্যাচে ফেরে নিসে।

৫৯তম মিনিটে ম্যাচের শুরু থেকে খেলা একিতেকে-কে তুলে এমবাপেকে নামান পিএসজি কোচ ।ম্যাজিকাল ত্র‍য়ীকে একসঙ্গে পেয়ে ম্যাচে আক্রমণের ধার বাড়ায় পিএসজি। মাঠে নামতে দেরি হলেও স্কোরশিটের নাম লেখাতে দেরি করেননি এমবাপে।৮৩ মিনিটে মাথায় বক্সে ফ্রান্স জাতীয় দলে তার সতীর্থ ডিফেন্ডার নর্দি মুকিয়েলের পাস পাওয়া বল প্রথমট টাচেই নিশানাভেদ করেন এই ফরাসি ফরোয়ার্ড।

লিগে সর্বোচ্চ গোলদাতার তালিকায় নেইমার সাথে ভাগ বসিয়েছেন এমাবাপে।আসরে আট ম্যাচে ৮ গোল করে নেইমারের সঙ্গে যৌথভাবে সর্বোচ্চ গোলদাতা এখন এই ফ্রেঞ্চ তারকা।

লিগ ওয়ানে ৯ ম্যাচে আট জয় ও এক ড্র থেকে ২৫ পয়েন্ট তুলে নিয়ে এখন সবার উপরে পিএসজি।

Print Friendly, PDF & Email

     এ ক্যাটাগরীর আরো খবর