ঢাকা ০৬:১৫ পূর্বাহ্ন, বুধবার, ১৯ জুন ২০২৪, ৫ আষাঢ় ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

বড়শিতে ধরা পড়ল ১০০ কেজির বিরল ডলফিন

  • Reporter Name
  • আপডেট টাইম : ০৪:১৬:৩০ অপরাহ্ন, রবিবার, ৩১ জুলাই ২০২২
  • ১২৩ বার

হাওর বার্তা ডেস্কঃ টাঙ্গাইলের নাগরপুরের ধলেশ্বরী নদী থেকে বড়শিতে ধরা পড়েছে ১০০ কেজি ওজনের বিরল প্রজাতির ডলফিন। সমুদ্রের দুর্লভ মাছ নদীতে ভেসে লোকালয়ে আসায় স্থানীয় লোকজনের মধ্যে ব্যাপক কৌতূহল দেখা দিয়েছে। এক নজর ডলফিনটি দেখতে হাজার হাজার উৎসক মানুষ ভিড় করছেন।

রোববার ভোরে উপজেলার সহবতপুর ইউনিয়নের জাঙ্গালিয়া ধলেশ্বরী নদীতে সেন্টু নামে এক যুবকের বড়শিতে ধরা পড়ে এ ডলফিনটি। সেন্টু উপজেলার সহবতপুর ইউনিয়নের চরডাঙ্গা গ্রামের আমজাদ আলীর ছেলে।

স্থানীয়রা জানান, রোববার ভোরে উপজেলার সহবতপুর ইউনিয়নের জাঙ্গলিয়া এলাকায় ধলেশ্বরী নদীতে সেন্টু নামে এক যুবক সন্ধ্যারাতে বোয়ালমাছ মারা বড়শি  (জিয়ালা বড়শি) নদীতে ফেলে আসে। বড়শি ফেলার পর ছোট একটি বোয়াল মাছ  বড়শিতে আটকে যায়। ওই যুবক মাছটি খুলে আনার জন্য যায়। এ সময় আকস্মিকভাবে বিশাল আকৃতির শুশুক মাছ বড়শিতে আটকে যাওয়া বোয়াল মাছকে গিলতে গিয়ে আটকে যায়। পরে সেন্টু শুশুকটি দেখে ভয় পেয়ে চিৎকার করতে থাকে। এ সময় তার চিৎকার শুনে নদীপারের লোকজন ঘটনাস্থলে ছুটে আসেন। স্থানীয় জনতার সহায়তায় মাছটি ডাঙ্গায় তুলে আনা হয়। এর পর শুশুকটি স্থানীয় জাঙ্গালিয়া ভোরবাজারে নেওয়া হয়। মুহুর্তের মধ্যে এ খবর ছড়িয়ে পড়লে আশপাশের লোকসহ দূরদূরান্ত থেকে হাজারও মানুষ শুশুকটি দেখতে সেখানে ভিড় জমা।

এদিকে স্থানীয় ইসমাইল মিয়া জানান, ডলফিনটি ১৫ হাজার টাকায় সেন্টুর কাছ থেকে কিনে নেন এলাকাবাসী।

নাগরপুর উপজেলা মৎস্য কর্মকর্তা মাছুম বিল্লা বলেন, শুশুকটি বিলুপ্তির পথে । এটি সংরক্ষিত প্রাণী। যদি জীবিত থাকত তা হলে আমরা উদ্ধার করে অবমুক্ত করতাম।

Tag :

Write Your Comment

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Save Your Email and Others Information

About Author Information

Haor Barta24

বড়শিতে ধরা পড়ল ১০০ কেজির বিরল ডলফিন

আপডেট টাইম : ০৪:১৬:৩০ অপরাহ্ন, রবিবার, ৩১ জুলাই ২০২২

হাওর বার্তা ডেস্কঃ টাঙ্গাইলের নাগরপুরের ধলেশ্বরী নদী থেকে বড়শিতে ধরা পড়েছে ১০০ কেজি ওজনের বিরল প্রজাতির ডলফিন। সমুদ্রের দুর্লভ মাছ নদীতে ভেসে লোকালয়ে আসায় স্থানীয় লোকজনের মধ্যে ব্যাপক কৌতূহল দেখা দিয়েছে। এক নজর ডলফিনটি দেখতে হাজার হাজার উৎসক মানুষ ভিড় করছেন।

রোববার ভোরে উপজেলার সহবতপুর ইউনিয়নের জাঙ্গালিয়া ধলেশ্বরী নদীতে সেন্টু নামে এক যুবকের বড়শিতে ধরা পড়ে এ ডলফিনটি। সেন্টু উপজেলার সহবতপুর ইউনিয়নের চরডাঙ্গা গ্রামের আমজাদ আলীর ছেলে।

স্থানীয়রা জানান, রোববার ভোরে উপজেলার সহবতপুর ইউনিয়নের জাঙ্গলিয়া এলাকায় ধলেশ্বরী নদীতে সেন্টু নামে এক যুবক সন্ধ্যারাতে বোয়ালমাছ মারা বড়শি  (জিয়ালা বড়শি) নদীতে ফেলে আসে। বড়শি ফেলার পর ছোট একটি বোয়াল মাছ  বড়শিতে আটকে যায়। ওই যুবক মাছটি খুলে আনার জন্য যায়। এ সময় আকস্মিকভাবে বিশাল আকৃতির শুশুক মাছ বড়শিতে আটকে যাওয়া বোয়াল মাছকে গিলতে গিয়ে আটকে যায়। পরে সেন্টু শুশুকটি দেখে ভয় পেয়ে চিৎকার করতে থাকে। এ সময় তার চিৎকার শুনে নদীপারের লোকজন ঘটনাস্থলে ছুটে আসেন। স্থানীয় জনতার সহায়তায় মাছটি ডাঙ্গায় তুলে আনা হয়। এর পর শুশুকটি স্থানীয় জাঙ্গালিয়া ভোরবাজারে নেওয়া হয়। মুহুর্তের মধ্যে এ খবর ছড়িয়ে পড়লে আশপাশের লোকসহ দূরদূরান্ত থেকে হাজারও মানুষ শুশুকটি দেখতে সেখানে ভিড় জমা।

এদিকে স্থানীয় ইসমাইল মিয়া জানান, ডলফিনটি ১৫ হাজার টাকায় সেন্টুর কাছ থেকে কিনে নেন এলাকাবাসী।

নাগরপুর উপজেলা মৎস্য কর্মকর্তা মাছুম বিল্লা বলেন, শুশুকটি বিলুপ্তির পথে । এটি সংরক্ষিত প্রাণী। যদি জীবিত থাকত তা হলে আমরা উদ্ধার করে অবমুক্ত করতাম।