,

sunny-leone-01-samakal-622a

নার্স হতে গিয়ে হলেন পর্ন তারকা, ১৬ বছরেই শয্যাসঙ্গিনী ছিলেন সানি

হাওর বার্তা ডেস্কঃ সবার জীবনেই কোনো না কোনো গোপন অধ্যায় থাকে। সেগুলোর কিছু হলেও পরবর্তীতে প্রকাশ্যে আসে। তবে এই গোপন অধ্যায়জুড়েই থাকে নানা ‘নিষিদ্ধ’ অভিজ্ঞতার ঝুলি। আর তারকাদের জীবনে তো এমন অভিজ্ঞতা অফুরান বলে মনে করে দর্শকমহল। বিশেষ করে সেই তারকা যদি সানি লিওনি হন, তবে তো কথাই নেই। তার ‘ডার্টি সিক্রেট’-এর ঝুলি ফুরনোর নয়!

ভক্তরা মনে করেন, বলিপাড়ায় সবচেয়ে বেশি গোপন সম্ভার রয়েছে অভিনেত্রী সানি লিওনির জীবন-সিন্দুকে। ফাঁকফোকর গলে তার জীবনের লুকোনো তথ্য জানার জন্য মুখিয়ে থাকেন ভক্তেরা। তেমনই সানিও যেন চমক দিতেই থাকেন।

এক সাক্ষাৎকারে অকপট ‘রাগিণী এমএমএস ২’-এর নায়িকা। জানালেন, জীবনের প্রথম চুম্বন ১১ বছর বয়সে। ১৬ বছর বয়সে স্কুলের এক বাস্কেট বল খেলোয়াড়ের শয্যাসঙ্গিনী হন সানি। সেই প্রথম শরীরের নিষিদ্ধ আস্বাদন। তবে তিনি যে নারী এবং পুরুষ উভয়কেই কামনা করেন, তা উপলব্ধি করেছিলেন ১৮ বছর বয়স নাগাদ।

যৌবনের প্রারম্ভে ‘উভচরী’ সানির প্রেমিকাদের সংখ্যাও কম ছিল না। তার পর যখন নার্সিংয়ের জন্য পড়াশোনা করছিলেন সানি, স্বপ্ন দেখছিলেন সেবিকা হওয়ার, পর্ন-ছবিতে অভিনয়ের প্রস্তাব এলো। আর ব্যস্, বদলে গেল জীবন। যৌনতাকে সঙ্গী করেই তারকা হয়ে গেলেন সানি।

বলিউডের অভিনয় জগতেও পা রাখলেন এক সময়। কোনো কিছুতেই যে তিনি কম নন, বার বার প্রমাণ দিয়েছেন। বর্তমানে স্বামী এবং দুই পুত্র নিয়ে সুখে সংসার করছেন তারকা। একাধিক প্রসাধনী ব্র্যান্ডের কর্ণধার তিনি। ফ্যাশনেরও মুখ।

Print Friendly, PDF & Email

     এ ক্যাটাগরীর আরো খবর