,

image-555909-1653731502

৪১ বছর আগের প্রতিশোধ নিতে চায় রিয়াল মাদ্রিদ

হাওর বার্তা ডেস্কঃ উয়েফা চ্যাম্পিয়ন্স লিগের ফাইনালের মঞ্চ প্রস্তুত। বাংলাদেশ সময় রাত ১টায় প্যারিসের স্ট্যাড ডি ফ্রান্সে ইংলিশ ক্লাব লিভারপুলের মুখোমুখি হবে রিয়াল মাদ্রিদ।

স্বপ্নের ফাইনাল ঘিরে প্যারিসে এখন সাজসাজা রব, চারদিকে প্রাণের উচ্ছ্বাস। ৪০ হাজার টিকিটবিহীন লিভারপুল সমর্থক দাপিয়ে বেড়াচ্ছে ফ্রান্সের রাজধানী।

পানশালাগুলো চলে গেছে তাদের দখলে। কফি শপগুলোতে রিয়াল মাদ্রিদ সমর্থকদের সরব উপস্থিতি। দুই পক্ষের সম্ভাব্য সংঘর্ষ ঠেকাতে স্টেডিয়াম থেকে রাজপথে টহল দিচ্ছে সাত হাজার নিরাপত্তা রক্ষী। বারুদের গন্ধে বাতাস ভারি করা এমন অগ্নিগর্ভ আবহে কে হবে ইউরোপসেরা?

২০১৮ সালের প্রতিশোধ নিতে মুখিয়ে মোহামেদ সালাহ। সেবার সের্হিও রামোসের রাফ ট্যাকলে চোট নিয়ে মাঠ ছাড়তে হয়েছিল লিভারপুলের প্রাণভোমরাকে।  হাতছাড়া হয় শিরোপা।

সেই হারের যন্ত্রণা এখনও যে তাড়িয়ে বেড়ায় মিসরীয় তারকাকে তা বোঝা গেল তার মুখের কথায়, ‘এটা প্রতিশোধের ম্যাচ।’

তবে প্রতিশোধটা যে সহজ নয় – সেটা ভালোই জানা সালাহ-মানেদের। কারণ প্রতিপক্ষ দলটা রিয়াল মাদ্রিদ।

ফাইনালে অপ্রতিরোধ্য হয়ে উঠে স্প্যানিশ জায়ান্টরা।  ফাইনালে উঠতে পারলেই উয়েফা চ্যাম্পিয়ন্স লিগের চ্যাম্পিয়ন রিয়াল মাদ্রিদ। গত চার দশক ধরে এমনটিই চলছে ইউরোপের ক্লাব ফুটবলে।

শেষ সাতবার ফাইনালে উঠে প্রতিবারই শিরোপা হাতে নিয়ে মাঠ ছেড়েছে স্প্যানিশ ক্লাবটি।  কার্লো আনচেলত্তির শিষ্যরা সে ধারা অব্যাহত রাখার প্রত্যয়ী।

তাদের জন্যও প্রতিশোধের ম্যাচ এটি, জানালেন রিয়াল কোচ আনচেলত্তি।  কারণ চ্যাম্পিয়ন্স লিগের ফাইনালে রিয়াল সবশেষ হেরেছিল এই লিভারপুলের কাছে, সেই ১৯৮১ সাল।

৪১ বছর আগের সেই ঘটনাকে স্মরণ করে রিয়াল কোচ বললেন, ‘রিয়াল মাদ্রিদেরও প্রতিশোধ নেওয়ার আছে। আমি যদিও বিষয়টির তেমন গুরুত্ব দেখি না। দুর্দান্ত দুটি দল একে অপরের মুখোমুখি হবে এবং যারা বেশি সাহস ও দৃঢ় মানসিকতার প্রমাণ রাখতে পারবে তারাই শেষ পর্যন্ত জয়ী হবে।’

এ লড়াইয়ে রিয়ালের প্রধান অস্ত্র করিম বেনজেমা।  তুরুপ তাসকে সর্বোচ্চ ব্যবহার করতে যান আনচেত্তলি।

চ্যাম্পিয়ন্স লিগে এবার ১১ ম্যাচে ১৫ গোল করে বেনজেমা আছেন সর্বোচ্চ গোলদাতার তালিকায় শীর্ষে। এই ১৫ গোলের ১০টিই আবার নকআউট পর্বে। তার এই পারফরম্যান্সই রিয়ালকে ৯ বছরে পঞ্চমবারের মতো ইউরোপের সেরার ট্রফি জয়ের দ্বারপ্রান্তে নিয়ে এসেছে।

চারটি চ্যাম্পিয়ন্স লিগ ফাইনাল খেলার অভিজ্ঞতা আছে বেনজেমার।  আর ফাইনালে লিভারপুলের বিপক্ষেই আছে তার সুখস্মৃতি। ২০১৮ সালের সেই ফাইনালে বেনজেমার গোলেই এগিয়ে গিয়েছিল রিয়াল।  এরপর সেই ম্যাচ ৩-১ গোলে জিতে টানা তৃতীয় ও রেকর্ড ১৩তম শিরোপা ঘরে তুলে রিয়াল।

Print Friendly, PDF & Email

     এ ক্যাটাগরীর আরো খবর