,

11

মেসির রেকর্ডের রাতে নায়ক শচীন

হাওর বার্তা ডেস্কঃ জাঁকজমকপূর্ণ অনুষ্ঠানে সোমবার রাতে বার্লিনে দেয়া হলো ২০১৯ লরিয়াস ক্রীড়া পুরস্কার। প্রথম ফুটবলার হিসেবে এ সম্মানে ভূষিত হয়েছেন লিওনেল মেসি। সঙ্গে সঙ্গে ইতিহাসে লিখে ফেলেছেন তিনি।

অবশ্য একা বর্ষসেরা ক্রীড়া ব্যক্তিত্ব হতে পারেননি মেসি। ফর্মুলা ওয়ান তারকা লুইস হ্যামিল্টনের সঙ্গে যৌথভাবে এ পুরস্কার জেতেন তিনি। এ নিয়ে ২০ বছরের ইতিহাসে প্রথমবার দুজন বিজয়ী পেলেন লরিয়াস পুরস্কার।

তবে মেসি-হ্যামিল্টনকে ছাপিয়ে রাতে জনতার নায়ক হয়েছেন শচীন টেন্ডুলকার। গেল ২০ বছরে সেরা ক্রীড়া মুহূর্তের পুরস্কার জিতেছেন তিনি।

২০১১ বিশ্বকাপ জয়ের পর টেন্ডুলকারকে ঘাড়ে তুলে উদযাপন করে ভারতীয় দল। সেই স্মৃতি এখনও সমর্থকদের মনে গেঁথে আছে। সেই সুবাদেই পুরস্কারটি জিতেছেন তিনি।

বর্ষসেরা নারী ক্রীড়াবিদ হয়েছেন যুক্তরাষ্ট্রের জিমন্যাস্ট সিমোনা বাইলস। আর বিশ্বসেরা দল নির্বাচিত হয়েছে ২০১৯ বিশ্বকাপজয়ী দক্ষিণ আফ্রিকা রাগবি দল।

ছুটিতে থাকায় অনুষ্ঠানে ছিলেন না মেসি। তবে সবার উদ্দেশে ভিডিওবার্তা দিয়েছেন তিনি। তাতে ছোট ম্যাজিসিয়ান বলেছেন, কোনো দলীয় খেলা থেকে প্রথম ব্যক্তি হিসেবে এ পুরস্কার জেতায় আমি গর্বিত।

অস্ট্রেলিয়া কিংবদন্তি স্টিভ ওয়াহর কাছ থেকে মর্যাদাকর পুরস্কার গ্রহণ করেন টেন্ডুলকার। ভারতীয় ক্রিকেটের প্রথম লিটল মাস্টার বলেন, এখানে অসংখ্য অ্যাথলেট আছেন, যাদের অনেক কিছু ছিল না। তবু প্রাপ্ত সুযোগের সদ্ব্যবহার করেছেন তারা। খেলাকে পেশা হিসেবে বেছে নিয়েছেন উনারা। পথিমধ্যে নিজের স্বপ্ন পূরণ করেছেন। এর মাধ্যমে তরুণদের অনুপ্রাণিত করায় আমি তাদের ধন্যবাদ জানাই। এ পুরস্কার শুধু আমার নয়, তাদের সবার।

Print Friendly, PDF & Email

     এ ক্যাটাগরীর আরো খবর