ঢাকা ০৪:৩৭ অপরাহ্ন, শুক্রবার, ১৯ জুলাই ২০২৪, ৪ শ্রাবণ ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

এপিজে কালামের কোনো সম্পত্তি নেই

  • Reporter Name
  • আপডেট টাইম : ১১:৫৩:৫৬ অপরাহ্ন, সোমবার, ৩ অগাস্ট ২০১৫
  • ৩৭৭ বার

‘পিপলস প্রেসিডেন্ট’ পরিচিতি পাওয়া ভারতের সদ্য প্রয়াত প্রেসিডেন্ট এপিজে আবদুল কালামের কোনো সহায়-সম্পত্তি ছিল না। তার সম্পত্তি বলতে ছিল কেবল তার বই ও ভারতের ৬৪ কোটি তরুণ জনগোষ্ঠী। আবদুল কালামের বিজ্ঞানবিষয়ক উপদেষ্টা ভি পনরাজ তামিল নাড়ুর রামেশ্বরমে সাংবাদিকদের একথা জানান। খবর দ্য হিন্দুর

ভি পনরাজ প্রায় দুই দশক করে আবদুল কালামের সঙ্গে কাজ করেছেন। বেঙ্গালুরুতে সাবেক এই প্রেসিডেন্টের একটি বাড়ি ছিল। এই বাড়িটি সম্পর্কে সাংবাদিকদের এক প্রশ্নের জবাবে পনরাজ জানান যে, একটি মানবিক কাজের জন্য তিনি বাড়িটি ছেড়ে দিয়েছেন। তবে কারো নামে কোনো সম্পত্তি তিনি উইল করে গেছেন কিনা তা জানা নেই বলে জানান পনরাজ।

এপিজে কালাম নিজের লেখা বইয়ের জন্য স্বত্ব এবং সরকারের কাছ থেকে অবসরভাতা পেতেন। এজন্য তিনি কাউকে মনোনিত করে গেছেন কিনা তাও জানা যায়নি। এসব বিষয় নিয়ে তার পরিবারের লোকদের সঙ্গে আলোচনা করে সুরাহা করা হবে বলেও জানান পনরাজ।

উল্লেখ্য, ২৭ জুলাই ভারতের মেঘালয় রাজ্যের শিলংয়ে ইন্ডিয়ান ইনস্টিটিউট অব ম্যানেজমেন্টের শিক্ষার্থীদের উদ্দেশ্যে এক অনুষ্ঠানে বক্ততা দেওয়ার সময়ই হার্ট অ্যাটাকে আক্রান্ত হন এপিজে আবদুল কালাম। পরে স্থানীয় বেথানি হাসপাতালে নেওয়া হলে সেখানে কর্তব্যরত চিকিৎসক তাকে মৃত ঘোষণা করেন। ৩০ জুলাই তাকে নিজ জন্মস্থান তামিল নাড়ুর রামেশ্বরমে রাষ্ট্রীয় মর্যাদায় দাফন করা হয়।

Tag :

Write Your Comment

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Save Your Email and Others Information

About Author Information

Haor Barta24

জনপ্রিয় সংবাদ

এপিজে কালামের কোনো সম্পত্তি নেই

আপডেট টাইম : ১১:৫৩:৫৬ অপরাহ্ন, সোমবার, ৩ অগাস্ট ২০১৫

‘পিপলস প্রেসিডেন্ট’ পরিচিতি পাওয়া ভারতের সদ্য প্রয়াত প্রেসিডেন্ট এপিজে আবদুল কালামের কোনো সহায়-সম্পত্তি ছিল না। তার সম্পত্তি বলতে ছিল কেবল তার বই ও ভারতের ৬৪ কোটি তরুণ জনগোষ্ঠী। আবদুল কালামের বিজ্ঞানবিষয়ক উপদেষ্টা ভি পনরাজ তামিল নাড়ুর রামেশ্বরমে সাংবাদিকদের একথা জানান। খবর দ্য হিন্দুর

ভি পনরাজ প্রায় দুই দশক করে আবদুল কালামের সঙ্গে কাজ করেছেন। বেঙ্গালুরুতে সাবেক এই প্রেসিডেন্টের একটি বাড়ি ছিল। এই বাড়িটি সম্পর্কে সাংবাদিকদের এক প্রশ্নের জবাবে পনরাজ জানান যে, একটি মানবিক কাজের জন্য তিনি বাড়িটি ছেড়ে দিয়েছেন। তবে কারো নামে কোনো সম্পত্তি তিনি উইল করে গেছেন কিনা তা জানা নেই বলে জানান পনরাজ।

এপিজে কালাম নিজের লেখা বইয়ের জন্য স্বত্ব এবং সরকারের কাছ থেকে অবসরভাতা পেতেন। এজন্য তিনি কাউকে মনোনিত করে গেছেন কিনা তাও জানা যায়নি। এসব বিষয় নিয়ে তার পরিবারের লোকদের সঙ্গে আলোচনা করে সুরাহা করা হবে বলেও জানান পনরাজ।

উল্লেখ্য, ২৭ জুলাই ভারতের মেঘালয় রাজ্যের শিলংয়ে ইন্ডিয়ান ইনস্টিটিউট অব ম্যানেজমেন্টের শিক্ষার্থীদের উদ্দেশ্যে এক অনুষ্ঠানে বক্ততা দেওয়ার সময়ই হার্ট অ্যাটাকে আক্রান্ত হন এপিজে আবদুল কালাম। পরে স্থানীয় বেথানি হাসপাতালে নেওয়া হলে সেখানে কর্তব্যরত চিকিৎসক তাকে মৃত ঘোষণা করেন। ৩০ জুলাই তাকে নিজ জন্মস্থান তামিল নাড়ুর রামেশ্বরমে রাষ্ট্রীয় মর্যাদায় দাফন করা হয়।