ঢাকা ১০:২৭ পূর্বাহ্ন, শনিবার, ২০ জুলাই ২০২৪, ৫ শ্রাবণ ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

হজযাত্রীদের জন্য সৌদি সরকারের সতর্কবার্তা

  • Reporter Name
  • আপডেট টাইম : ১০:১৭:১৭ পূর্বাহ্ন, শনিবার, ১৫ জুন ২০২৪
  • ২০ বার

সৌদি আরবে শুরু হয়েছে চলতি বছরের হজের আনুষ্ঠানিকতা। গ্রীষ্মের মৌসুম হওয়ায় বর্তমানে ব্যাপক গরম সৌদিতে; এই পরিস্থিতিতে হজযাত্রীদের উদ্দেশে তাপ সতর্কবার্তা জারি করেছে দেশটির হজ ও ওমরাহ বিষয়ক মন্ত্রণালয়।

প্রসঙ্গত, বিগত অন্যান্য বছরের জুন মাসের মতো এবারও ব্যাপক গরম পড়েছে সৌদিতে। সমতলভূমিতে প্রতিদিনই তাপমাত্রা ছাড়িয়ে যাচ্ছে ৪০ ডিগ্রি। কোনো কোনো পাহাড়ি অঞ্চলে তাপমাত্রা পৌঁছেছে ৭০ ডিগ্রি সেলসিয়াসে। মক্কায় বর্তমানে গড় তাপমাত্রা ৪৪ ডিগ্রি সেলসিয়াস।

ইসলামের বিধান মোতাবেক, ১০ জিলহজ মিনায় প্রত্যাবর্তনের পর হাজিদের পর্যায়ক্রমে চারটি কাজ সম্পন্ন করতে হয়। শয়তানকে পাথর নিক্ষেপ, আল্লাহর উদ্দেশে পশু কুরবানি, মাথা মুণ্ডন করা এবং তাওয়াফে জিয়ারত। এরপর ১১ ও ১২ জিলহজ অবস্থান করে প্রতিদিন তিনটি শয়তানকে প্রতীকী পাথর নিক্ষেপ করবেন হাজিরা। সবশেষে কাবা শরিফকে বিদায়ি তাওয়াফের মধ্য দিয়ে শেষ হবে হজের আনুষ্ঠানিকতা।

চলতি বছর মক্কায় প্রবেশের তাসরিহ বা নুসুক কার্ড ছাড়া কাউকে পাওয়া গেলে ১০ হাজার সৌদি রিয়াল অর্থদণ্ড ও কারাদণ্ডের বিধান করা হয়েছে। ডিজিটাল এ নুসুক কার্ডে সংশ্লিষ্ট হজযাত্রীর প্রয়োজনীয় সব তথ্য থাকে। হজের জন্য মিনা, আরাফাত, মুজদালিফা, মসজিদুল হারামে প্রবেশ করতে চাইলে এ কার্ড অবশ্যই দেখাতে হবে।

 

 

Tag :

Write Your Comment

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Save Your Email and Others Information

About Author Information

Haor Barta24

জনপ্রিয় সংবাদ

হজযাত্রীদের জন্য সৌদি সরকারের সতর্কবার্তা

আপডেট টাইম : ১০:১৭:১৭ পূর্বাহ্ন, শনিবার, ১৫ জুন ২০২৪

সৌদি আরবে শুরু হয়েছে চলতি বছরের হজের আনুষ্ঠানিকতা। গ্রীষ্মের মৌসুম হওয়ায় বর্তমানে ব্যাপক গরম সৌদিতে; এই পরিস্থিতিতে হজযাত্রীদের উদ্দেশে তাপ সতর্কবার্তা জারি করেছে দেশটির হজ ও ওমরাহ বিষয়ক মন্ত্রণালয়।

প্রসঙ্গত, বিগত অন্যান্য বছরের জুন মাসের মতো এবারও ব্যাপক গরম পড়েছে সৌদিতে। সমতলভূমিতে প্রতিদিনই তাপমাত্রা ছাড়িয়ে যাচ্ছে ৪০ ডিগ্রি। কোনো কোনো পাহাড়ি অঞ্চলে তাপমাত্রা পৌঁছেছে ৭০ ডিগ্রি সেলসিয়াসে। মক্কায় বর্তমানে গড় তাপমাত্রা ৪৪ ডিগ্রি সেলসিয়াস।

ইসলামের বিধান মোতাবেক, ১০ জিলহজ মিনায় প্রত্যাবর্তনের পর হাজিদের পর্যায়ক্রমে চারটি কাজ সম্পন্ন করতে হয়। শয়তানকে পাথর নিক্ষেপ, আল্লাহর উদ্দেশে পশু কুরবানি, মাথা মুণ্ডন করা এবং তাওয়াফে জিয়ারত। এরপর ১১ ও ১২ জিলহজ অবস্থান করে প্রতিদিন তিনটি শয়তানকে প্রতীকী পাথর নিক্ষেপ করবেন হাজিরা। সবশেষে কাবা শরিফকে বিদায়ি তাওয়াফের মধ্য দিয়ে শেষ হবে হজের আনুষ্ঠানিকতা।

চলতি বছর মক্কায় প্রবেশের তাসরিহ বা নুসুক কার্ড ছাড়া কাউকে পাওয়া গেলে ১০ হাজার সৌদি রিয়াল অর্থদণ্ড ও কারাদণ্ডের বিধান করা হয়েছে। ডিজিটাল এ নুসুক কার্ডে সংশ্লিষ্ট হজযাত্রীর প্রয়োজনীয় সব তথ্য থাকে। হজের জন্য মিনা, আরাফাত, মুজদালিফা, মসজিদুল হারামে প্রবেশ করতে চাইলে এ কার্ড অবশ্যই দেখাতে হবে।