টেকসই উন্নয়নের উদাহরণ পদ্মা সেতু: অর্থ প্রতিমন্ত্রী

অর্থ প্রতিমন্ত্রী এবং বাংলাদেশ আওয়ামী লীগের অর্থ ও পরিকল্পনাবিষয়ক সম্পাদক ওয়াসিকা আয়শা খান বলেছেন, পদ্মা সেতু আমাদের গর্ব। পদ্মা সেতু বাঙালির শক্তি ও মর্যাদার প্রতীক। প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা পদ্মা সেতু নির্মাণের মাধ্যমে বাঙালিকে বিশ্বে মর্যাদার আসনে প্রতিষ্ঠিত করেছেন। অন্তর্ভুক্তিমূলক ও টেকসই উন্নয়নের উৎকৃষ্ট উদাহরণ এই পদ্মা সেতু।

মঙ্গলবার (২ এপ্রিল) ঢাকায় বাংলাদেশ ইনস্টিটিউট অব ইন্টারন্যাশনাল স্ট্র্যাটেজিক স্টাডিজ অডিটোরিয়ামে গবেষণাগ্রন্থ ‘ডেভেলপমেন্ট—হিউম্যান সিকিউরিটি নেক্সাস’র মোড়ক উন্মোচন অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তব্যে এসব কথা বলেন তিনি।

অর্থ প্রতিমন্ত্রী বলেন, পদ্মা সেতু দক্ষিণ-পশ্চিমাঞ্চলের ২১টি জেলাকে জাতীয় অর্থনীতির সঙ্গে সংযুক্ত করে দেশের অর্থনৈতিক উন্নয়নে গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা রাখছে। পদ্মা সেতু নিয়ে অনেক ষড়যন্ত্র হওয়ার পরেও প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা যখন বিশ্বব্যাংকের প্রেসিডেন্টকে পদ্মা সেতুর ছবি উপহার দেন, তখন আমরা সবাই গর্ব বোধ করেছি।

তিনি বলেন, অন্তর্ভুক্তিমূলক ও টেকসই উন্নয়ন মানুষের নিরাপত্তা নিশ্চিত করে। বর্তমান সরকার যেকোনো উন্নয়ন প্রকল্প বাস্তবায়নের ক্ষেত্রে সাধারণ মানুষের উপযোগিতা ও নিরাপত্তার বিষয়টি সর্বাধিক গুরুত্ব দেয়, যার অন্যতম উদাহরণ পদ্মা সেতু প্রকল্প বাস্তবায়ন।

বাংলাদেশ ইনস্টিটিউট অব ইন্টারন্যাশনাল স্ট্র্যাটেজিক স্টাডিজের চেয়ারম্যান রাষ্ট্রদূত এ এফ এম গওসোল আযম সরকারের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠানে স্বাগত বক্তব্য দেন ইনস্টিটিউটের মহাপরিচালক মেজর জেনারেল মো. আবু বকর সিদ্দিক খান।

গবেষণাগ্রন্থের পরিচিতি তুলে ধরেন বাংলাদেশ ইনস্টিটিউট অব ইন্টারন্যাশনাল স্ট্র্যাটেজিক স্টাডিজের সিনিয়র রিচার্স ফেলো ড. রাজিয়া সুলতানা। গবেষণার ফল উপস্থাপন করেন রিসার্চ অফিসার মো. রাফিদ আবরার মিয়া।

গবেষণাগ্রন্থের ওপর আলোচনা করেন ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের আন্তর্জাতিক সম্পর্ক বিভাগের অধ্যাপক এবং পিএসসির সদস্য অধ্যাপক ড. দেলোয়ার হোসেন এবং আইইউসিএন বাংলাদেশের পরিচালক শেখ মো. মেহেদি হাসান। পরে বইয়ের ওপর উন্মুক্ত আলোচনা হয়।

Print Friendly, PDF & Email

     এ ক্যাটাগরীর আরো খবর