,

image-181531-1655351149

তাইওয়ানকে চীনের অংশ বলায় কাতারের সমালোচনা

হাওর বার্তা ডেস্কঃ ফুটবল বিশ্বকাপের আয়োজক কাতার তাদের এক ওয়েবসাইটে তাইওয়ানকে চীনের অংশ বলে উল্লেখ করেছে৷ সে কারণে বুধবার কাতারের সমালোচনা করেছে তাইওয়ান৷

যারা বিশ্বকাপের টিকিট কেটেছেন তাদের সবাইকে ‘হায়া’ কার্ডের জন্য আবেদন করতে হচ্ছে৷ কারণ, এই কার্ড কাতারের ভিসা হিসেবে কাজ করবে৷ মঙ্গলবার এই কার্ডের আবেদন সংশ্লিষ্ট ওয়েবসাইটের জাতীয়তা অংশের ড্রপ-ডাউন তালিকায় তাইওয়ানের নাম ছিল না৷ এর কারণ হিসেবে কাতারের এক কর্মকর্তা তাইওয়ানের নাগরিকদের চীনা হিসেবে বিবেচনা করা হবে বলে জানিয়েছিলেন৷ এরপর বুধবার ওয়েবসাইটে ‘তাইওয়ান, চীনা রাজ্য’ এই শব্দগুলো যুক্ত করা হয়৷ সঙ্গে তাইওয়ানের পতাকা ব্যবহার করা হয়৷ কিন্তু ওই শব্দগুলোও তাইওয়ানের নাগরিকদের ক্ষুব্ধ করে৷ খবর রয়টার্সের।

এর প্রতিক্রিয়ায় বুধবার তাইওয়ানের পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের মুখপাত্র জোয়ানে উ বলেন, আমাদের দেশকে খাটো করার চেষ্টা মেনে নেওয়া যায় না৷ তারা আয়োজকদের সঙ্গে যোগাযোগ করে অবিলম্বে বিষয়টি সংশোধনের চেষ্টা করছেন বলেও জানান তিনি৷

কাতারের আয়োজকদের একটি ‘সুন্দর বিশ্বকাপ ফুটবল’ উপহার দেওয়ার আহ্বান জানান জোয়ানে উ৷ কোনো ‘অসঙ্গত রাজনৈতিক উপাদান’ যেন বিশ্বকাপ আয়োজনে প্রভাব ফেলতে না পারে সেই দাবিও জানান তিনি৷

এ ব্যাপারে কাতারের সংশ্লিষ্ট কর্তৃপক্ষের সঙ্গে যোগাযোগ করা হয়েছে৷ তবে এখনও প্রতিক্রিয়া জানা যায়নি৷ বিশ্বের বেশির ভাগ দেশের মতো কাতারের সঙ্গে তাইওয়ানের কোনো কূটনৈতিক সম্পর্ক নেই৷

বেইজিংয়ের সঙ্গে রাজনৈতিক সমস্যা এড়াতে অলিম্পিকের মতো প্রতিযোগিতায় ‘চাইনিজ তাইপে’ নামে অংশ নিয়ে থাকেন তাইওয়ানের অ্যাথলিটরা৷

সাম্প্রতিক সময় সরকারি নথিপত্র ও ওয়েবসাইটে তাইওয়ানকে চীনের অংশ হিসেবে উল্লেখ করতে বিভিন্ন দেশ ও কোম্পানির প্রতি চাপ প্রয়োগ করে আসছে চীন৷ এক্ষেত্রে ‘তাইওয়ান, চীনা রাজ্য’, ‘তাইওয়ান, চীন’ এসব শব্দ ব্যবহার করতে বলা হচ্ছে৷ সূত্র : ডয়েচে ভেলে

Print Friendly, PDF & Email

     এ ক্যাটাগরীর আরো খবর