,

image-37715-1641860031

কারাগারে কয়েদির সঙ্গে নারী বিচারকের রোমান্সের ভিডিও ভাইরাল

হাওর বার্তা ডেস্কঃ ওপার বাংলার একটি জনপ্রিয় গান ‘পুলিশ-চোরের প্রেমে পড়েছে’ অনেকটা একই ধরনের ঘটনা ঘটেছে এক কারাগারে। তবে এখানে পুলিশ নয়, কুখ্যাত এক কয়েদির প্রেমে পড়েছেন এক নারী বিচারক।

আর শুধু প্রেমে পড়েই ক্ষান্ত হননি তিনি। রীতিমতো ক্ষমতার অপব্যবহার করে প্রেমিকের সাজা কমানোর চেষ্টাও করেছেন।

এখানেই শেষ নয়, কারাগারেই ওই কয়েদির সঙ্গে রোমান্সও করেছেন তিনি। সেই ঘটনার ভিডিও সিসিটিভিতে ধরা পড়ার পর তা ভাইরাল হয়েছে।

ব্রিটিশ গণমাধ্যম ডেইলি মেইল এক প্রতিবেদনে জানিয়েছে, আর্জেন্টিনার দক্ষিণ চুবুত প্রদেশের ট্রেলিউ শহরে এই ঘটনা ঘটে।

সিসিটিভি ফুটেজে দেখা যায়, মারিয়েল সুয়ারেজ নামে ওই বিচারক কারাগারেই কয়েদি ক্রিশ্চিয়ান ‘মাই’ বুস্টোসের সঙ্গে রোমান্স করছেন। ২৯ ডিসেম্বরের এই ঘটনা সম্প্রতি সামনে আসে।

ডেইলি মেইল জানায়, কয়েক সপ্তাহ আগেই ২০০৯ সালে এক পুলিশ কর্মকর্তাকে হত্যার দায়ে বুস্টোজের বিচার শুরু হয়। সে সময় প্যানেলের সব বিচারকই বুস্টোজকে যাবজ্জীবন কারাদণ্ড দেওয়ার সিদ্ধান্ত নিয়েছিলেন। মারিয়েল সুয়ারেজই ছিলেন প্যানেলের একমাত্র বিচারক যিনি ‘ভীষণ বিপজ্জনক কয়েদি’ বুস্টোসের যাবজ্জীবন কারাদণ্ডের বিপক্ষে ছিলেন।

তবে মারিয়েলের চেষ্টার পরও বুস্টোজের বিরুদ্ধে আনা অভিযোগ সন্দেহাতীতভাবে প্রমাণিত হওয়ায় তাকে যাবজ্জীবন কারাদণ্ড দেওয়া হয়।

এদিকে, কারাগারে ধারণ করা সিসিটিভি ফুটেজ ভাইরাল হওয়ার পর ওই ঘটনার তদন্ত শুরু করেছে কর্তৃপক্ষ।

এ ব্যাপারে চুবুতের সুপিরিয়র কোর্ট এক বিবৃতিতে জানিয়েছে, ওই বিচারক অনৈতিক আচরণ করেছেন। বিচারকের সঙ্গে ওই কয়েদির ঠিক কোন পরিস্থিতিতে সাক্ষাৎ হয়েছিল তা জানাতে তদন্ত শুরু হয়েছে।

তবে এ ব্যাপারে ওই বিচারকের কোনো মন্তব্য পাওয়া যায়নি।

Print Friendly, PDF & Email

     এ ক্যাটাগরীর আরো খবর