,

image-478230-1634798547

বাংলাদেশকে হারিয়ে ইতিহাস গড়তে চায় পাপুয়া নিউগিনি

হাওর বার্তা ডেস্কঃ হেসেখেলেই প্রথম পর্ব পেরিয়ে যাওয়ার বিশ্বাস নিয়ে টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপ মিশন শুরু করেছিল বাংলাদেশ।

কেননা ‘বি’ গ্রুপে বাংলাদেশের প্রতিদ্বন্দ্বী শক্তিতে পিছিয়ে থাকা স্কটল্যান্ড, ওমান আর পাপুয়া নিউগিনি।

কিন্তু প্রথম ম্যাচেই স্কটল্যান্ডের বিপক্ষে ৬ রানে হেরে দৃশ্যপটটাই পাল্টে যায় মাহমুদউল্লাহদের।

মূলত ম্যাচের আগে বাংলাদেশকে বলে-কয়ে হারিয়েছেন স্কটিশরা। বাঁচা-মরার লড়াইয়ে ওমানের বিপক্ষেও কষ্টার্জিত জয় পায় বাংলাদেশ।

যে কারণে গ্রুপে নিজেদের শেষ ম্যাচে বাংলাদেশকে চোখরাঙানি দিচ্ছে বিশ্বকাপে প্রথমবারের মতো কোয়ালিফাই করতে আসা পাপুয়া নিউগিনি।

স্কটল্যান্ডের বিপক্ষে বাংলাদেশের হারকেই নিজেদের অনুপ্রেরণা হিসেবে দেখছে দলটি।

যদিও বাংলাদেশের জন্য হুমকি হয়ে ওঠার মতো তারা আসরের প্রথম দুই ম্যাচে দেখাতে পারেনি। প্রথম ম্যাচে ওমানের কাছে উড়ে যায় তারা ১০ উইকেটে, পরের ম্যাচে স্কটল্যান্ডের সঙ্গে কিছুটা প্রতিরোধ গড়ে তুলতে পারে।

তবে বড় জয় না হলেও বাংলাদেশকে হারানোর বিশ্বাস নিয়েই মাঠে নামবে তার দল, এমনটিই জানালেন পাপুয়া নিউগিনির অলরাউন্ডার চার্লস আমিনি।

ওমান ক্রিকেট একাডেমি মাঠে বুধবার সংবাদ সম্মেলনে আমিনি বললেন, ‘প্রথম দুই ম্যাচ যদিও হেরেছি, তার পরও এখনও আমাদের সুযোগ আছে। স্কটল্যান্ড প্রথম ম্যাচে অঘটন ঘটিয়েছে। আমাদের বিশ্বাস আছে, আমরা একই রকম কিছু করতে পারি। আমাদের প্রথম কাজ জয়ের চেষ্টা করা। বিশ্বকাপে একটি ম্যাচ জিততে পারলে তা হবে ইতিহাস। এটিই আমাদের মাথায় আছে আপাতত। এর পর যা হওয়ার তা আমাদের নিয়ন্ত্রণে নেই। তবে আমরা সর্বোচ্চ চেষ্টা করব।

তবে বাংলাদেশকে সমীহ করেই কথা বলেছেন আমিনি। বললেন, ‘বিশ্বের সেরা টি-টোয়েন্টি দলগুলোর একটির বিপক্ষে আমাদের প্রথম লড়াই আজ। বিশ্বকাপের আগে অস্ট্রেলিয়া ও নিউজিল্যান্ডকে হারিয়ে যাওয়া দলের বিপক্ষে নামছি আমরা। ওরা খুব ভালো ফর্মে ছিল। এখানে যদিও প্রথম ম্যাচে হেরেছে, তার পরও ওরা ভালো দল। বাংলাদেশের বিপক্ষে ম্যাচটি খেলতে আমরা মুখিয়ে আছি।’

তথ্যসূত্র: ইএসপিএন ক্রিকইনফো

Print Friendly, PDF & Email

     এ ক্যাটাগরীর আরো খবর