ঢাকা ০৬:৫৯ পূর্বাহ্ন, শনিবার, ১৫ জুন ২০২৪, ১ আষাঢ় ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

মিনায় বিশ্বের কোন দেশের কত হাজি মারা গেছেন

  • Reporter Name
  • আপডেট টাইম : ০৫:৫১:৪৩ অপরাহ্ন, বৃহস্পতিবার, ১ অক্টোবর ২০১৫
  • ২৯৩ বার

সৌদি কর্তৃপক্ষ পদদলিত হয়ে মারা যাওয়া ৭৬৯ জন হাজির জাতীয়তার পরিচয় এখন পর্যন্ত সম্পূর্ণ প্রকাশ করেনি। তবে বিভিন্ন দেশ মিনায় নিহত তাদের নাগরিকদের তালিকা প্রকাশ করেছে।

তালিকায় দেখা যায়, সবচেয়ে বেশি ২৩৯ জন হাজি মারা গেছে ইরানের। নিখোঁজের সংখ্যা ২৪১ জন। দ্বিতীয় মিসর, নিহতের সংখ্যা ৭৫ এবং নিখোঁজ ৯৪। নাইজেরিয়ার নিহতের সংখ্যা ৬৪ ও নিখোঁজ ২৪৪। ইন্দোনেশিয়ার নিহতের সংখ্যা ৫৭জন। আর নিখোঁজের তালিকায় রয়েছেন ৭৮ জন। মালির নিহতের সংখ্যা ৬০জন। ভারতের ৪৫ জন।

পাকিস্তানের নিহতের সংখ্যা ৪০। নিখোঁজ ৬০ জনের বেশি। নাইজারের নিহতের সংখ্যা ২২ জন, ক্যামেরুনের ২০ জন। আইভরিকোস্টের নিহতের সংখ্যা ১৪, নিখোঁজ ৭৭ জন।

অন্যান্য দেশের মধ্যে শাদের ১১জন, আলজেরিয়ার ১১, সোমালিয়ার ৮, সেনেগালের ১০, মরক্কোর ১০, লিবিয়ার ৪, তাঞ্জানিয়ার ৪, কেনিয়ার ৩, তিউনিশিয়ার ২, বুরকিনাফাসোর ১, বুরুন্ডির ১, নেদারল্যান্ডসের ১ জন হাজি নিহত হওয়ার খবর পাওয়া গেছে।

বাংলাদেশের পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয় ৪১ জন হাজির মৃত্যুর কথা নিশ্চিত করেছে বলে জানা গেছে।

Tag :

Write Your Comment

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Save Your Email and Others Information

About Author Information

Haor Barta24

মিনায় বিশ্বের কোন দেশের কত হাজি মারা গেছেন

আপডেট টাইম : ০৫:৫১:৪৩ অপরাহ্ন, বৃহস্পতিবার, ১ অক্টোবর ২০১৫

সৌদি কর্তৃপক্ষ পদদলিত হয়ে মারা যাওয়া ৭৬৯ জন হাজির জাতীয়তার পরিচয় এখন পর্যন্ত সম্পূর্ণ প্রকাশ করেনি। তবে বিভিন্ন দেশ মিনায় নিহত তাদের নাগরিকদের তালিকা প্রকাশ করেছে।

তালিকায় দেখা যায়, সবচেয়ে বেশি ২৩৯ জন হাজি মারা গেছে ইরানের। নিখোঁজের সংখ্যা ২৪১ জন। দ্বিতীয় মিসর, নিহতের সংখ্যা ৭৫ এবং নিখোঁজ ৯৪। নাইজেরিয়ার নিহতের সংখ্যা ৬৪ ও নিখোঁজ ২৪৪। ইন্দোনেশিয়ার নিহতের সংখ্যা ৫৭জন। আর নিখোঁজের তালিকায় রয়েছেন ৭৮ জন। মালির নিহতের সংখ্যা ৬০জন। ভারতের ৪৫ জন।

পাকিস্তানের নিহতের সংখ্যা ৪০। নিখোঁজ ৬০ জনের বেশি। নাইজারের নিহতের সংখ্যা ২২ জন, ক্যামেরুনের ২০ জন। আইভরিকোস্টের নিহতের সংখ্যা ১৪, নিখোঁজ ৭৭ জন।

অন্যান্য দেশের মধ্যে শাদের ১১জন, আলজেরিয়ার ১১, সোমালিয়ার ৮, সেনেগালের ১০, মরক্কোর ১০, লিবিয়ার ৪, তাঞ্জানিয়ার ৪, কেনিয়ার ৩, তিউনিশিয়ার ২, বুরকিনাফাসোর ১, বুরুন্ডির ১, নেদারল্যান্ডসের ১ জন হাজি নিহত হওয়ার খবর পাওয়া গেছে।

বাংলাদেশের পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয় ৪১ জন হাজির মৃত্যুর কথা নিশ্চিত করেছে বলে জানা গেছে।