ঢাকা ১০:১৯ অপরাহ্ন, বৃহস্পতিবার, ১৮ জুলাই ২০২৪, ৩ শ্রাবণ ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

কোরবানির ঈদে ৫ নাটকে ইয়াশ

  • Reporter Name
  • আপডেট টাইম : ১০:৩০:৩৭ পূর্বাহ্ন, শনিবার, ২৫ মে ২০২৪
  • ২৬ বার
গতকাল (২৪ মে) মুক্তি পেয়েছে ধ্রুব হাসানের ‘ফাতিমা’। নামভূমিকায় আছেন তাসনিয়া ফারিণ। ছবির অন্য প্রধান চরিত্রে আছেন ইয়াশ রোহান। ‘ফাতিমা’ ও অন্যান্য প্রসঙ্গে অভিনেতার সঙ্গে কথা বলেছেন হৃদয় সাহা।

যেভাবে ‘ফাতিমা’য়
ধ্রুব হাসানের এই ছবির নাম শুরুতে ছিল ‘দাহকাল’। পরে নাম বদলে রাখা হয় ‘ফাতিমা’, প্রধান নারী চরিত্রের নামে। তখনই যুক্ত হন ইয়াশ। ‘একদিন ধ্রুব ভাই আমাকে ফোন দিয়ে দেখা করতে বলেন, দেখা হওয়ার পর হাতে একটা পাণ্ডুলিপি দেন।

গল্পটি পড়ে ভীষণ মজা পাই, পাশাপাশি আমার জন্য বরাদ্দ চরিত্রটিও আগ্রহী করে তোলে। এভাবেই ছবিটিরর সঙ্গে জড়িয়ে যাই’, বলেন ইয়াশ।শুটিং অভিজ্ঞতা
পরিচালক ধ্রুব হাসানের প্রশংসা ঝরল ইয়াশের কণ্ঠে। বলেন, ‘ভাই ভীষণ ভালো মানুষ।

সবচেয়ে ভালো লেগেছে তিনি সবার মতামত খুব গুরুত্ব দিয়ে শোনেন। যদি বোঝেন এই দৃশ্যে আরেকজনের মতামত নিলে আরো ভালো হবে, তিনি সেটাই নিতেন।’ ইয়াশ নাটকেই বেশি অভিনয় করেন। সেখানে অল্প সময়ে অনেক দৃশ্যের শুটিং করতে হয়। তাই প্রচুর চাপ থাকে, বিশ্রামের তেমন সুযোগই থাকে না।
‘এ ছবিতে প্রচুর অবসর পেয়েছি। দেখা গেল দিনে হয়তো আমার একটা দৃশ্য, বাকি সময় সেটে ঘুমিয়ে বা আড্ডায় মেতে থাকতাম’, বলেন ইয়াশ।ঘুমকাতুরে
শুটিং সেটে মহাগ্যাঞ্জামের মধ্যেও নিশ্চিন্তে  ঘুমিয়ে যেতে পারেন ইয়াশ। তাঁর এই গুণের কথা নাটকের লোকজন ভালোই জানেন। নিজেই বলেন ইয়াশ, ‘আমার হুটহাট ঘুমিয়ে পড়া নিয়ে অনেকেই অবাক হয়ে যায়। তবে এটা আমার জন্য বেশ ভালো। ক্লান্তিভাব দূর হয়ে যায়। ব্যস্ততার চাপ পর্দায় যাতে ফুটে না ওঠে, সেই চেষ্টাই করি। আমার ব্যস্ততা থাকবে, চাপ থাকবে—এটা যেমন আমার জীবনের অংশ, তেমনই যে চরিত্রে অভিনয় করছি সেটা ফুটিয়ে তোলাটা আমার দায়িত্ব। যতই ক্লান্তি থাকুক, পর্দায় যেন সব সময় সতেজ লাগে দেখতে।’

কোরবানির ঈদে মাত্র ৫ নাটক
রোজার ঈদে প্রচারিত নিজের অভিনীত ‘শেষ কিছুদিন’ ইয়াশের বেশ পছন্দ। ‘কত যে আপন’, ‘সম্ভবত প্রেম’—এগুলো ভালো লেগেছে। তবে কোরবানির ঈদে একটু সময় নিয়ে কাজ করতে চান। কারণ? ইয়াশ বলেন, ‘মনে হয়েছে, গত ঈদের প্রতিটা নাটকে ঠিকঠাক সময় দিতে পারিনি। তাই এই ঈদে পাঁচটা নাটকে অভিনয় করছি, যাতে ঠিকঠাক সময় দিতে পারি। তিনটার কাজ এরই মধ্যে শেষ, বাকি দুইটার কাজ বাকি।’

ওয়েব, চলচ্চিত্র
বড়পর্দার কোনো খবর আপাতত নেই। তবে ঈদের পরপরই একটা ওয়েব ছবি আসবে ইয়াশের। যেহেতু প্ল্যাটফরম থেকে এখনো প্রচারণা শুরু হয়নি, তাই নাম বলতে পারছেন না। আরেকটা ইনডিপেনডেন্ট সিরিজেও অভিনয় করেছেন। কোন প্ল্যাটফরমে মুক্তি পাবে তা এখনো ঠিক হয়নি।

Tag :

Write Your Comment

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Save Your Email and Others Information

About Author Information

Haor Barta24

জনপ্রিয় সংবাদ

কোরবানির ঈদে ৫ নাটকে ইয়াশ

আপডেট টাইম : ১০:৩০:৩৭ পূর্বাহ্ন, শনিবার, ২৫ মে ২০২৪
গতকাল (২৪ মে) মুক্তি পেয়েছে ধ্রুব হাসানের ‘ফাতিমা’। নামভূমিকায় আছেন তাসনিয়া ফারিণ। ছবির অন্য প্রধান চরিত্রে আছেন ইয়াশ রোহান। ‘ফাতিমা’ ও অন্যান্য প্রসঙ্গে অভিনেতার সঙ্গে কথা বলেছেন হৃদয় সাহা।

যেভাবে ‘ফাতিমা’য়
ধ্রুব হাসানের এই ছবির নাম শুরুতে ছিল ‘দাহকাল’। পরে নাম বদলে রাখা হয় ‘ফাতিমা’, প্রধান নারী চরিত্রের নামে। তখনই যুক্ত হন ইয়াশ। ‘একদিন ধ্রুব ভাই আমাকে ফোন দিয়ে দেখা করতে বলেন, দেখা হওয়ার পর হাতে একটা পাণ্ডুলিপি দেন।

গল্পটি পড়ে ভীষণ মজা পাই, পাশাপাশি আমার জন্য বরাদ্দ চরিত্রটিও আগ্রহী করে তোলে। এভাবেই ছবিটিরর সঙ্গে জড়িয়ে যাই’, বলেন ইয়াশ।শুটিং অভিজ্ঞতা
পরিচালক ধ্রুব হাসানের প্রশংসা ঝরল ইয়াশের কণ্ঠে। বলেন, ‘ভাই ভীষণ ভালো মানুষ।

সবচেয়ে ভালো লেগেছে তিনি সবার মতামত খুব গুরুত্ব দিয়ে শোনেন। যদি বোঝেন এই দৃশ্যে আরেকজনের মতামত নিলে আরো ভালো হবে, তিনি সেটাই নিতেন।’ ইয়াশ নাটকেই বেশি অভিনয় করেন। সেখানে অল্প সময়ে অনেক দৃশ্যের শুটিং করতে হয়। তাই প্রচুর চাপ থাকে, বিশ্রামের তেমন সুযোগই থাকে না।
‘এ ছবিতে প্রচুর অবসর পেয়েছি। দেখা গেল দিনে হয়তো আমার একটা দৃশ্য, বাকি সময় সেটে ঘুমিয়ে বা আড্ডায় মেতে থাকতাম’, বলেন ইয়াশ।ঘুমকাতুরে
শুটিং সেটে মহাগ্যাঞ্জামের মধ্যেও নিশ্চিন্তে  ঘুমিয়ে যেতে পারেন ইয়াশ। তাঁর এই গুণের কথা নাটকের লোকজন ভালোই জানেন। নিজেই বলেন ইয়াশ, ‘আমার হুটহাট ঘুমিয়ে পড়া নিয়ে অনেকেই অবাক হয়ে যায়। তবে এটা আমার জন্য বেশ ভালো। ক্লান্তিভাব দূর হয়ে যায়। ব্যস্ততার চাপ পর্দায় যাতে ফুটে না ওঠে, সেই চেষ্টাই করি। আমার ব্যস্ততা থাকবে, চাপ থাকবে—এটা যেমন আমার জীবনের অংশ, তেমনই যে চরিত্রে অভিনয় করছি সেটা ফুটিয়ে তোলাটা আমার দায়িত্ব। যতই ক্লান্তি থাকুক, পর্দায় যেন সব সময় সতেজ লাগে দেখতে।’

কোরবানির ঈদে মাত্র ৫ নাটক
রোজার ঈদে প্রচারিত নিজের অভিনীত ‘শেষ কিছুদিন’ ইয়াশের বেশ পছন্দ। ‘কত যে আপন’, ‘সম্ভবত প্রেম’—এগুলো ভালো লেগেছে। তবে কোরবানির ঈদে একটু সময় নিয়ে কাজ করতে চান। কারণ? ইয়াশ বলেন, ‘মনে হয়েছে, গত ঈদের প্রতিটা নাটকে ঠিকঠাক সময় দিতে পারিনি। তাই এই ঈদে পাঁচটা নাটকে অভিনয় করছি, যাতে ঠিকঠাক সময় দিতে পারি। তিনটার কাজ এরই মধ্যে শেষ, বাকি দুইটার কাজ বাকি।’

ওয়েব, চলচ্চিত্র
বড়পর্দার কোনো খবর আপাতত নেই। তবে ঈদের পরপরই একটা ওয়েব ছবি আসবে ইয়াশের। যেহেতু প্ল্যাটফরম থেকে এখনো প্রচারণা শুরু হয়নি, তাই নাম বলতে পারছেন না। আরেকটা ইনডিপেনডেন্ট সিরিজেও অভিনয় করেছেন। কোন প্ল্যাটফরমে মুক্তি পাবে তা এখনো ঠিক হয়নি।