ঢাকা ০১:১১ পূর্বাহ্ন, শনিবার, ১৩ জুলাই ২০২৪, ২৮ আষাঢ় ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

কপ২৮-এ জলবায়ু, মানসিক স্বাস্থ্য স্থিতিস্থাপকতা দিবসের পরামর্শ সায়মা ওয়াজেদের

  • Reporter Name
  • আপডেট টাইম : ১১:২৯:২১ অপরাহ্ন, বুধবার, ১৫ নভেম্বর ২০২৩
  • ৯৩ বার

ডব্লিউএইচও মহাপরিচালকের মানসিক স্বাস্থ্য ও অটিজম বিষয়ক উপদেষ্টা এবং ক্লাইমেট ভালনারেবল ফোরাম (সিভিএফ)-এর ভলনারেবিলিটি বিষয়ক থিমেটিক দূত সায়মা ওয়াজেদ কমনওয়েলথকে কপ২৮-এ প্রথমবারের মতো অনুষ্ঠেয় স্বাস্থ্য দিবসে উৎসর্গীকৃত একটি জলবায়ু এবং মানসিক স্বাস্থ্য স্থিতিস্থাপকতা দিবসের আয়োজন করার সুপারিশ করেছেন।

আজ এখানে পাওয়া যুক্তরাজ্যের লন্ডনস্থ বাংলাদেশ হাইকমিশনের এক প্রেস বিজ্ঞপ্তিতে জানানো হয়, ডব্লিউএইচও-র দক্ষিণ-পূর্ব এশীয় অঞ্চলের আঞ্চলিক কার্যালয়ের পরিচালক (নির্বাচিত) ও শুচনা ফাউন্ডেশনের চেয়ারপারসন সায়মা ওয়াজেদ আগামী ১৫-১৬ নভেম্বর, ২০২৩ লন্ডনের কমনওয়েলথ সচিবালয়ে অনুষ্ঠেয় কমনওয়েলথ নারী নেতাদের শীর্ষ সম্মেলনের প্রাক্কালে শুচনা ফাউন্ডেশনের সাথে অংশীদারিতে মঙ্গলবার লন্ডনস্থ বাংলাদেশ হাইকমিশন ও কমনওয়েলথ আয়োজিত ‘জলবায়ু ঝুঁকি ও মানসিক স্বাস্থ্য: নারীদের কণ্ঠস্বর’ শীর্ষক একটি উচ্চ পর্যায়ের গোলটেবিলে মূল-প্রবন্ধ উপস্থাপন করছিলেন।

সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে বলা হয়, তিনি জলবায়ু ও মানসিক স্বাস্থ্য স্থিতিস্থাপকতার তাৎপর্য তুলে ধরেন এবং
পরামর্শ দেন যে কমনওয়েলথ দেশগুলোর জলবায়ু-সম্পর্কিত চ্যালেঞ্জ এবং মানসিক স্বাস্থ্যের ওপর তাদের বিরূপ প্রভাব মোকাবেলার জন সমাধানের জন্য আরও ঘনিষ্ঠভাবে সহযোগিতা করা উচিত। কেননা কোনো দেশের কাছে এসব চ্যালেঞ্জ মোকাবেলার জন্য নিজস্ব পর্যাপ্ত সম্পদ নেই।

তিনি একটি সম্মিলিত পদ্ধতি এবং বিশ্বব্যাপী সচেতনতার মাধ্যমে মানসিক স্বাস্থ্য অবস্থার প্রাথমিক সনাক্তকরণ এবং উপযুক্ত ব্যবস্থাপনার ওপর গুরুত্বের জোর দেন।

তার মূল বক্তব্যে তিনি বাংলাদেশে মানসিক স্বাস্থ্যের অবস্থা এবং সার্বজনীন স্বাস্থ্য কভারেজের ওপর আলোকপাত করেন এবং এই ক্রমবর্ধমান চ্যালেঞ্জ মোকাবেলায় বাংলাদেশের সঙ্গে বৈশ্বিক সহযোগিতার আহ্বান জানান।
সায়মা ওয়াজেদ ১৬ নভেম্বর, ২০২৩ কমনওয়েলথ এনসিডি গাইডিং ফ্রেমওয়ার্ক উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে সভাপতিত্ব করবেন।

যুক্তরাজ্যের পরিবেশ বিভাগের পরিবেশগত গুণমান ও স্থিতিস্থাপকতা, খাদ্য ও গ্রামীণ বিষয়ক মন্ত্রী রেবেকা পাও এমপি, সমতা দপ্তরের ছায়ামন্ত্রী ইয়াসমিন কুরেশি, কেনসিংটনের কনজারভেটিভ এমপি এবং হাউজিং ও হোমলেসনেস ফেলিসিটি বিষয়ক সংসদীয় আন্ডার সেক্রেটারি অফ স্টেট বুচান এবং ইউকে অল পার্টি পার্লামেন্টারি গ্রপ ফর ইউএন উইমেনের চেয়ারম্যান ব্যারনেস ভার্মা অনুষ্ঠানে বিশেষ অতিথির বক্তব্য রাখেন।

Tag :

Write Your Comment

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Save Your Email and Others Information

About Author Information

Haor Barta24

জনপ্রিয় সংবাদ

কপ২৮-এ জলবায়ু, মানসিক স্বাস্থ্য স্থিতিস্থাপকতা দিবসের পরামর্শ সায়মা ওয়াজেদের

আপডেট টাইম : ১১:২৯:২১ অপরাহ্ন, বুধবার, ১৫ নভেম্বর ২০২৩

ডব্লিউএইচও মহাপরিচালকের মানসিক স্বাস্থ্য ও অটিজম বিষয়ক উপদেষ্টা এবং ক্লাইমেট ভালনারেবল ফোরাম (সিভিএফ)-এর ভলনারেবিলিটি বিষয়ক থিমেটিক দূত সায়মা ওয়াজেদ কমনওয়েলথকে কপ২৮-এ প্রথমবারের মতো অনুষ্ঠেয় স্বাস্থ্য দিবসে উৎসর্গীকৃত একটি জলবায়ু এবং মানসিক স্বাস্থ্য স্থিতিস্থাপকতা দিবসের আয়োজন করার সুপারিশ করেছেন।

আজ এখানে পাওয়া যুক্তরাজ্যের লন্ডনস্থ বাংলাদেশ হাইকমিশনের এক প্রেস বিজ্ঞপ্তিতে জানানো হয়, ডব্লিউএইচও-র দক্ষিণ-পূর্ব এশীয় অঞ্চলের আঞ্চলিক কার্যালয়ের পরিচালক (নির্বাচিত) ও শুচনা ফাউন্ডেশনের চেয়ারপারসন সায়মা ওয়াজেদ আগামী ১৫-১৬ নভেম্বর, ২০২৩ লন্ডনের কমনওয়েলথ সচিবালয়ে অনুষ্ঠেয় কমনওয়েলথ নারী নেতাদের শীর্ষ সম্মেলনের প্রাক্কালে শুচনা ফাউন্ডেশনের সাথে অংশীদারিতে মঙ্গলবার লন্ডনস্থ বাংলাদেশ হাইকমিশন ও কমনওয়েলথ আয়োজিত ‘জলবায়ু ঝুঁকি ও মানসিক স্বাস্থ্য: নারীদের কণ্ঠস্বর’ শীর্ষক একটি উচ্চ পর্যায়ের গোলটেবিলে মূল-প্রবন্ধ উপস্থাপন করছিলেন।

সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে বলা হয়, তিনি জলবায়ু ও মানসিক স্বাস্থ্য স্থিতিস্থাপকতার তাৎপর্য তুলে ধরেন এবং
পরামর্শ দেন যে কমনওয়েলথ দেশগুলোর জলবায়ু-সম্পর্কিত চ্যালেঞ্জ এবং মানসিক স্বাস্থ্যের ওপর তাদের বিরূপ প্রভাব মোকাবেলার জন সমাধানের জন্য আরও ঘনিষ্ঠভাবে সহযোগিতা করা উচিত। কেননা কোনো দেশের কাছে এসব চ্যালেঞ্জ মোকাবেলার জন্য নিজস্ব পর্যাপ্ত সম্পদ নেই।

তিনি একটি সম্মিলিত পদ্ধতি এবং বিশ্বব্যাপী সচেতনতার মাধ্যমে মানসিক স্বাস্থ্য অবস্থার প্রাথমিক সনাক্তকরণ এবং উপযুক্ত ব্যবস্থাপনার ওপর গুরুত্বের জোর দেন।

তার মূল বক্তব্যে তিনি বাংলাদেশে মানসিক স্বাস্থ্যের অবস্থা এবং সার্বজনীন স্বাস্থ্য কভারেজের ওপর আলোকপাত করেন এবং এই ক্রমবর্ধমান চ্যালেঞ্জ মোকাবেলায় বাংলাদেশের সঙ্গে বৈশ্বিক সহযোগিতার আহ্বান জানান।
সায়মা ওয়াজেদ ১৬ নভেম্বর, ২০২৩ কমনওয়েলথ এনসিডি গাইডিং ফ্রেমওয়ার্ক উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে সভাপতিত্ব করবেন।

যুক্তরাজ্যের পরিবেশ বিভাগের পরিবেশগত গুণমান ও স্থিতিস্থাপকতা, খাদ্য ও গ্রামীণ বিষয়ক মন্ত্রী রেবেকা পাও এমপি, সমতা দপ্তরের ছায়ামন্ত্রী ইয়াসমিন কুরেশি, কেনসিংটনের কনজারভেটিভ এমপি এবং হাউজিং ও হোমলেসনেস ফেলিসিটি বিষয়ক সংসদীয় আন্ডার সেক্রেটারি অফ স্টেট বুচান এবং ইউকে অল পার্টি পার্লামেন্টারি গ্রপ ফর ইউএন উইমেনের চেয়ারম্যান ব্যারনেস ভার্মা অনুষ্ঠানে বিশেষ অতিথির বক্তব্য রাখেন।