,

৪৮ বছর বয়সে এসএসসি পাস করলেন কাউন্সিলর

হাওর বার্তা ডেস্কঃ ৪৮ বছর বয়সে এসএসসি পাস করলেন ঠাকুরগাঁওয়ের পীরগঞ্জ পৌরসভার দুবারের নির্বাচিত কাউন্সিলর আব্দুস সামাদ। কারিগরি শিক্ষাবোর্ডের অধীনে পীরগঞ্জ কারিগরি উচ্চ বিদ্যালয় থেকে এবার এসএসসি (ভোকেশনাল) পরীক্ষায় অংশ নিয়ে জিপিএ-৪.৯৩ পেয়ে উত্তীর্ণ হয়েছেন তিনি।

সোমবার (২৮ নভেম্বর) দুপুরে পরীক্ষার ফল হাতে পেয়েছেন। মঙ্গলবার বাংলা ট্রিবিউনকে বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন তিনি।

আব্দুস সামাদ বলেন, ‌‘অশিক্ষিত জনপ্রতিনিধি এই দুর্নাম ঘোচাতে নতুন করে পড়াশোনা শুরু করি। শুরুতে বিষয়টি নিয়ে প্রতিবেশী ও বন্ধুদের হাসিঠাট্টার মুখে পড়েছি। বন্ধুদের কেউ কেউ বলেছেন, পড়ে কি জজ-ব্যারিস্টার হবি? তাদের বলেছি, পড়াশোনা করছি চাকরির জন্য নয়, জ্ঞানের জন্য এবং সমাজকে আলোকিত করার জন্য।’

গুয়াগাঁও মহল্লার বাসিন্দা ৭ নম্বর ওয়ার্ডের কাউন্সিলর সামাদ দুই ছেলের জনক। তার বড় ছেলে নাহিদ হাসান ২০২০ এসএসসি পাস করে বর্তমানে দিনাজপুর পলিটেকনিক ইনস্টিটিউটে ইলেকট্রিক্যাল ট্রেডে চতুর্থ সেমিস্টারে পড়ছেন। ছোট ছেলে সজিব আলী কোরআনের হাফেজ এবং পীরগঞ্জ এস আই সিনিয়র ফাজিল মাদ্রাসার ৬ষ্ঠ শ্রেণির ছাত্র।

কাউন্সিলর আব্দুস সামাদ বলেন, ‘পারিবারিক আর্থিক টানাপোড়েনের কারণে ছোবেলায় ৮ম শ্রেণি পর্যন্ত পড়ে আর পড়ালেখা করতে পারিনি। পৌর কাউন্সিলর নির্বাচিত হওয়ার পর সমাজের বিভিন্ন শ্রেণিপেশার মানুষের সঙ্গে আমাকে মিশতে হচ্ছে। সমাজের সঙ্গে তাল মিলাতে আমার প্রতিষ্ঠানিক শিক্ষার দরকার আছে। এমন অনুভব থেকেই এসএসসি পরীক্ষায় অংশ নিয়েছি। এটি আমার জন্য জরুরি ছিল। যদিও ততদিনে বড় ছেলের পড়াশোনা হয়তো শেষ হবে। তবু অনার্স পাস করার আশা করছি।’

এদিকে, সামাদের সাফল্যে নির্বাচনি এলাকায় তার সমর্থকরা একে-অপরকে মিষ্টিমুখ করিয়েছেন। পরিবারের স্বজনরা এ নিয়ে উচ্ছ্বসিত।

সামাদের ছেলে নাহিদ হাসান বলেন, ‘বাবার এই মনোবল, দৃঢ়তা ও শিক্ষা অনুরাগ আমার জন্য অনুপ্রেরণা।’

স্থানীয় শিক্ষাবিদ সহকারী অধ্যাপক আসাদুজ্জামান বলেন, ‘এই অঞ্চলের বয়স্ক শিক্ষায় এই জনপ্রতিনিধি অনুকরণীয় হয়ে থাকবেন।’

পীরগঞ্জ পৌরসভার মেয়র বীর মুক্তিযোদ্ধা একরামুল হক বলেন, ‘শিক্ষার কোনও বয়স নেই। জন্ম থেকে মৃত্যু পর্যন্ত প্রতিটি ক্ষেত্রই শিক্ষার। পৌরসভার জনপ্রতিনিধি সামাদ সেই সত্যকে প্রতিষ্ঠিত করলেন।’

 

Print Friendly, PDF & Email

     এ ক্যাটাগরীর আরো খবর