,

IMG_20211007_154708

স্বাস্থ্যবিধি মেনে জবিতে উৎসবমূখর পরিবেশে পরীক্ষা অনুষ্ঠিত

মোস্তাকিম ফারুকীঃ জগন্নাথ বিশ্ববিদ্যালয় (জবি) বিভিন্ন বিভাগ ও অনুষদের আটকে থাকা সেমিস্টার ফাইনাল পরীক্ষা সশরীরে শুরু হয়েছে। রাজধানীর বিভিন্ন এলাকা থেকে ছেড়ে আসা বাস এবং জগন্নাথের আশেপাশে অবস্থানরত শিক্ষার্থীরা ক্যাম্পাসে এসে সহপাঠী ও প্রিয় শিক্ষকদের সাথে কুশল বিনিময় করেন। এরপর ফুলেল শুভেচছা জানিয়ে শিক্ষার্থীদের অভিনন্দন জানানো হয়।
বৃহস্পতিবার বিশ্ববিদ্যালয়ের ট্রেজারার ও উপাচার্য (রুটিন দায়িত্ব) অধ্যাপক ড. কামালউদ্দিন আহমদ এর তত্ত্বাবধানে শিক্ষার্থীদের ফুল দিয়ে বরণ করে পরীক্ষার হলে প্রবেশ করানো হয়। তারপর পরীক্ষার হল পরিদর্শন করেন দায়িত্বপ্রাপ্ত উপাচার্য৷ এসময় সামাজিক বিজ্ঞান অনুষদের ডিন অধ্যাপক ড. অরুণ কুমার গোস্বামী, শিক্ষক সমিতির সভাপতি অধ্যাপক ড. নূরে আলম আব্দুল্লাহ, প্রক্টর ড. মোস্তফা কামাল এবং সহকারী প্রক্টরবৃন্দ সহ আরো অনেকে উপস্থিত ছিলেন।
হল পরিদর্শনকালে শিক্ষার্থীদের উদ্দেশ্যে পরীক্ষা চলাকালীন এবং অন্যান্য সময়ে (কোভিড-১৯) এর সকল প্রকার স্বাস্থ্যবিধি ও সামাজিক দূরত্ব বজায় রাখার নির্দেশ করেন কোষাধ্যক্ষ ড. কামালউদ্দিন আহমদ।
এর আগে সশরীরে পরিক্ষা গ্রহণের প্রস্তুতি হিসেবে সকল বিভাগ ও ইন্সটিটিউটের কক্ষগুলো জীবাণুনাশক ব্যবহার করে পরিস্কার-পরিচ্ছন্ন করা হয়। পরীক্ষা নিয়ন্ত্রক দপ্তরের আওতাধীন যে হলগুলো রয়েছে সেগুলোও পরিষ্কার পরিচ্ছন্ন করে রাখা হয়। সকল শিক্ষার্থীদের হাতে এডমিট কার্ড পৌঁছে দিতে তা প্রতিটি বিভাগে পৌঁছানোর ব্যবস্থা করে বিশ্ববিদ্যালয়ের পরীক্ষা নিয়ন্ত্রক দপ্তর। প্রশ্নপত্র ও উত্তরপত্র খাম ও সিল সহ পাঠানো হয় প্রতিটি বিভাগ ও ইন্সটিটিউটে।
পরীক্ষা চলাকালীন সময়ে সমাজকর্ম বিভাগের অধ্যাপক ড. আনোয়ার হোসেন বলেন, আমরা
শিক্ষার্থীদের স্বাস্থ্য বিধি নিশ্চিত করতে পরীক্ষার সময় কোনো শিক্ষার্থী মাস্ক না নিয়ে এলে মাস্কেরও ব্যবস্থাও করছি। প্রত্যেক কক্ষে হ্যান্ড স্যানিটাইজার এর ব্যবস্থা করা হয়েছে। পরীক্ষার কক্ষে প্রবেশের সময় শিক্ষার্থীদের তাপমাত্রা মাপার ব্যবস্থাও গ্রহণ করা হয়। এছাড়াও প্রতিটি বেঞ্চে একজন করে শিক্ষার্থীকে বসিয়ে পরীক্ষা গ্রহণ করা হয়েছে।
একই বিভাগের সহকারী অধ্যাপক পার্থ সারথী মোহন্ত বলেন, সকল শিক্ষার্থীরা স্বাস্থ্যবিধি মেনে পরীক্ষায় অংশগ্রহণ করেছে৷ দীর্ঘদিন পর একটা উৎসবমূখর পরিবেশ সৃষ্টি হয়েছে ক্যাম্পাসে।
পরীক্ষা চলাকালীন সময়ে ক্যাম্পাসে ভীড় কমাতে  সকাল ও বিকালে দুইটি শিফট অনুযায়ী ও বিরতি দিয়ে বিভাগগুলো পরীক্ষার রুটিন তৈরি করেছে বলে জানিয়েছেন বিজ্ঞান অনুষদের ডিন অধ্যাপক ড. রবীন্দ্রনাথ মণ্ডল। এছাড়াও ক্যাম্পাসে পরীক্ষার্থী ব্যাতীত অন্যদের প্রবেশে বিধিনিষেধ আরোপ করে নির্দেশনা প্রদান করা হয়েছে বলে জানিয়েছে বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রক্টর অফিস।
উল্লেখ্য যে, শিক্ষার্থীদের পরিবহন সুবিধা নিশ্চিত করতে সকল রুটে বিশ্ববিদ্যালয়ের বাস চালু করা হয়েছে। সকালে নির্ধারিত সময়ে সেসব স্থান থেকে শিক্ষার্থীদের নিয়ে ক্যাম্পাসে বাস প্রবেশ করে। পরীক্ষা শেষে বিকাল ৪ টায় শিক্ষার্থীদের নিয়ে স্ব স্ব গন্তব্যে ক্যাম্পাস থেকে সেসব বাস ছেড়ে যায়।
Print Friendly, PDF & Email

     এ ক্যাটাগরীর আরো খবর