,

Untitled-227

ইভানার মৃত্যু: স্বামী ও চিকিৎসকের বিরুদ্ধে মামলা

হাওর বার্তা ডেস্কঃ রাজধানীর পরীবাগ থেকে স্কলাস্টিকা স্কুলের কর্মকর্তা ইভানা লায়লা চৌধুরীর মরদেহ উদ্ধারের ঘটনায় শাহবাগ থানায় মামলা করেছেন ইভানার বাবা আমান উল্লাহ চৌধুরী। শনিবার রাত সাড়ে নয়টার দিকে তিনি মামলাটি করেন। মামলায় দুজনকে আসামি করা হয়েছে। তারা হলেন ইভানার স্বামী ব্যারিস্টার আবদুল্লাহ মাহমুদ হাসান রুম্মান ও ইমপালস মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের চিকিৎসক অধ্যাপক মুজিবুল হক মোল্লা। শাহবাগ থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মওদুদ হাওলাদার সাংবাদিকদের এই তথ্য নিশ্চিত করেন।

৩০৬ ও ১০৯ ধারায় দায়ের করা মামলায় আত্মহত্যা প্ররোচনা ও হত্যা সহযোগিতার অভিযোগ আনা হয়েছে। ইভানার বাবা আমান উল্লাহ চৌধুরী বলেন, ‘আশা করি ন্যায়বিচার পাব। সুষ্ঠু তদন্তের মাধ্যমে প্রকৃত দোষীদের সাব্যস্ত করা হবে এমনটাই আমাদের প্রত্যাশা।’ এ ব্যাপারে শাহবাগ থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মওদুত হাওলাদার শনিবার গণমাধ্যমকে বলেন, ‘ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তাদের নির্দেশনা ও পরামর্শ অনুযায়ী মামলা নথিভুক্ত করা হয়েছে। মামলায় দুজনকে আসামি করেছেন বাদী। এ বিষয়ে তদন্ত করে আসামিদের বিরুদ্ধে আইনগত পদক্ষেপ গ্রহণ করা হবে।’

গত ১৫ সেপ্টেম্বর বিকেল পৌনে ৪টার দিকে ৯৯৯-এর মাধ্যমে খবর পেয়ে পরীবাগে নবাব হাবিবুল্লাহ রোডের সাকুরা গলিতে দুই ভবনের মাঝখান থেকে ইভানার মরদেহ উদ্ধার করে পুলিশ। নবাব হাবিবুল্লাহ রোডের ২/ক/১৪ নম্বর ৯ তলা ভবনের পঞ্চম তলায় থাকতেন ইভানা। পরে ময়নাতদন্তের জন্য মরদেহ ঢাকা মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতাল মর্গে পাঠানো হয়।

Print Friendly, PDF & Email

     এ ক্যাটাগরীর আরো খবর