,

14

কিশোরগঞ্জের করিমগঞ্জ-তাডাইলের উপজেলায় উন্নয়নের রুপকার উপাধি পেলেন-চুন্নু

হাওর বার্তা ডেস্কঃ বিগত আট বছরে কিশোরগঞ্জের করিমগঞ্জ ও তাডাইল উপজেলায় ব্যাপক উন্নয়ন হয়েছে বলে দাবি করেছেন দুই উপজেলার সুবিধাভোগী বাসিন্দারা।

সদ্য নির্মিত জেলার সাথে সংযুগ মচিখালী ব্রজিটি নির্মিত হওয়ায় করিমগঞ্জবাসির মুখে হাসি ফুটেছে। স্থানীয় বেশ কয়েকজন এলাকাবাসী জানান। ব্রীজটি নির্মাণ হওয়ার আগে মরিচখালী গোদারাঘাটটি ছিল একটি মরন ফাঁদ।

সেখানে বর্ষা মৌসুমে খেয়া পাড়াপাড়ের সময় নৌকা ডুবে প্রতি বছরই কোন না কোন লোক মারা যেতো। জেলা এলজিইডি অফিস সূত্রে জানা গেছে দুই উপজেলায় প্রায় ডজন খানেকের ও বেশি এরকম ব্রীজ নির্মিত হয়েছে।

উপজেলার নিয়ামতপুর ফাজিলখালি ব্রিজ হতে মরিচখালি ব্রিজ পর্যন্ত রাস্তার পাকা করণ কাজের ভিত্তিপ্রস্তর স্থানের শুভ উদ্বোদন উপলক্ষে গত শনিবার বিকেলে আলোচনা সভা অনুষ্টিত হয়েছে।

এসময় বিপুল সংখ্যক নারী পুরুষ উপস্থিত ছিলেন। ১৬ কোটি টাকা ব্যয়ে রাস্তার কাজের বিত্তি প্রস্থর স্থাপন অনুষ্ঠানে জনবহূল এ সভায় সর্বস্থরের মানুষ সভাস্থলে তাকে উন্নয়নের রুপকার বলে আখ্যায়িত করেন।

শ্রম ও কর্ম সংস্থান মন্ত্রণালয়ের প্রতি মন্ত্রী বীর মুক্তিযোদ্ধা এড. মুজিবুল হক চুন্নু বলেন আামার নির্বাচনী দুটি উপজেলায় রাস্তা-ঘাট, ব্রীজ কালভার্ট সহ যাবতীয়কাজের এত উন্নয়ন হয়েছে যা মানুষ কোন দিন কল্পনা ও করতে পারেনি। সামনে যেই ক্ষমতায় আসুক কাজ করার কোন জায়গা খুঁজে পাবেনা।

গুরধর ইউনিয়ন জাতীয় পার্টির সভাপতি ডা,এম.জিমোস্তফা এর সভাপতিত্বে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন গণপ্রজাতন্ত্রী বাংলাদেশ সরকারের শ্রম ও কর্ম সংস্থান মন্ত্রণালয়ের প্রতি মন্ত্রী বীর মুক্তিযোদ্ধা এড. মুজিবুল হক চুন্নু।
অনুষ্ঠানে করিমগঞ্জ ও তাড়াইল উপজেলার গণ্যমান্য ব্যক্তিবর্গ, দলীয় নেতাকর্মী , সাংবাদিক ও সুধীজন উপস্থিত ছিলেন।

Print Friendly, PDF & Email

     এ ক্যাটাগরীর আরো খবর