ইতিহাস গড়ে অপরাজিত চ্যাম্পিয়ন বাংলাদেশ

কনফেত্তি উড়ল। উচ্ছ্বাসে লাল-সবুজের ঢেউ উঠল কাঠমান্ডুর আনফা কমপ্লেক্সে। নেপালের মাঠে আরও একবার শিরোপা উৎসব করল লাল-সবুজের মেয়েরা। সাফ অনূর্ধ্ব-১৬ নারী ফুটবল চ্যাম্পিয়নশিপের প্রথম আসরে অপরাজিত চ্যাম্পিয়ন হয়ে ইতিহাস গড়ল বাংলাদেশ। রোববার কাঠমান্ডুর আনফা কমপ্লেক্সে অনুষ্ঠিত ফাইনালে টাইব্রেকারে শক্তিশালী ভারতকে ৩-২ গোলে হারিয়ে শিরোপা জিতে নেয় অর্পিতা বিশ্বাস-সুরভী আকন্দরা। নির্ধারিত সময়ের খেলা ১-১ গোলে অমীমাংসিত ছিল।

২০২২ সালের সেপ্টেম্বরে নেপালে সাফ সিনিয়র নারী ফুটবলে প্রথমবার চ্যাম্পিয়ন হয়েছিল বাংলাদেশ জাতীয় নারী ফুটবল দল। ওই টুর্নামেন্টে অপরাজিত ছিল বাংলাদেশ। সেই নেপালে উৎসবে মাতলেন সাবিনাদের উত্তরসূরিরা। এবারও পুরো আসরে অপরাজিত থেকে শিরোপা জিতেছে অর্পিতারা। পার্থক্য এতটুকুই, স্বাগতিক নেপালকে হারিয়ে শিরোপা জিতেছিলেন সাবিনারা। এবার ভারতকে হারিয়ে শিরোপা জিতল অনূর্ধ্ব-১৬ দল।

টান টান উত্তেজনার এক ম্যাচ দেখলেন কাঠমান্ডুর দর্শকরা। কে জানত ম্যাচে এগিয়ে থাকা ভারতের জন্য অপেক্ষা করছে বিষাদ। মাত্র ৪ মিনিটে ভারতকে এগিয়ে দেন আনুষ্কা কুমারী (১-০)। দ্বিতীয়ার্ধে সমতা আনার প্রাণপণ চেষ্টা করে অর্পিতারা। বাংলাদেশের দুর্দান্ত আক্রমণে ভারত খানিকটা কোণঠাসা হয়ে পড়ে। ৭০ মিনিটে কর্নার থেকে জটলার মধ্যে মরিয়ম প্লেসিংয়ে বল জালে জড়ান (১-১)। ম্যাচে সমতা আনার পর বাংলাদেশ এগিয়ে যাওয়ার চেষ্টা করে। ভারত রক্ষণাত্মক ভূমিকায় থেকে কাউন্টার অ্যাটাকে খেলে। শেষ পর্যন্ত দুই দল আর গোল না পাওয়ায় ম্যাচ গড়ায় টাইব্রেকারে।

টাইব্রেকারে বাংলাদেশের মরিয়ম বিনতে হান্না, থুইনু মারমা ও সাথী মুন্ডা লক্ষ্যভেদ করেন। তবে ব্যর্থ হন আলপি আক্তার ও সুরভী আকন্দ প্রীতি। বিপরীতে ভারতের শ্বেতা রানী ও আনইতা ছাড়া আর কেউ গোল করতে পারেননি। দিভিয়ানির শেষ শট রুখে দিয়ে বাংলাদেশকে জয়ের আনন্দে ভাসান গোলকিপার ইয়ারজান বেগম। ভারতের আরও দুটি শট ঠেকিয়ে দেন তিনি।

 

Print Friendly, PDF & Email

     এ ক্যাটাগরীর আরো খবর