সাংবাদিক লায়েকুজ্জামান মারা গেছেন

দৈনিক রূপালী বাংলাদেশ পত্রিকার বিশেষ প্রতিনিধি লায়েকুজ্জামান মারা গেছেন (ইন্না লিল্লাহি ওয়া ইন্না ইলাইহি রাজিউন)। আজ শনিবার সন্ধ্যা সোয়া ৬টার দিকে রাজধানীর জাতীয় হৃদ্‌রোগ ইনস্টিটিউটে চিকিৎসাধীন অবস্থায় তিনি মারা যান। তিনি স্ত্রী ও দুই মেয়ে রেখে গেছেন।

লায়েকুজ্জামানের মৃত্যুর খবর নিশ্চিত করেন রূপালী বাংলাদেশের জ্যেষ্ঠ প্রতিবেদক এস আর জে সুমন। তিনি বলেন, শনিবার বিকেলে রূপালী বাংলাদেশ কার্যালয়ে কর্তব্যরত অবস্থায় বুকে ব্যথা অনুভব করেন লায়েকুজ্জামান। পরে সহকর্মীরা তাকে হৃদ্‌রোগ ইনস্টিটিউটে নিয়ে যান। সেখানে দায়িত্বরত চিকিৎসক পরীক্ষা-নিরীক্ষা শেষে তাকে মৃত ঘোষণা করেন।

রূপালী বাংলাদেশের আগে লায়েকুজ্জামান কালের কণ্ঠে জ্যেষ্ঠ প্রতিবেদক হিসেবে কর্মরত ছিলেন। এ ছাড়া তিনি দৈনিক মানবজমিন ও সকালের খবরে কাজ করেন। কলকাতা থেকে প্রকাশিত দৈনিক দিন দর্পণ পত্রিকায় বাংলাদেশ প্রতিনিধি ছিলেন লায়েকুজ্জামান।

লায়েকুজ্জামান ১৯৬৪ সালে ফরিদপুরে জন্মগ্রহণ করেন। তার পৈতৃক বাড়ি ফরিদপুরের নগরকান্দায়। তিন ভাই ও তিন বোনের সংসারে ভাইদের মধ্যে তিনি সবার ছোট ছিলেন।

প্রাথমিক ও মাধ্যমিক স্তরে ট্যালেন্টপুলে বৃত্তি পেয়েছিলেন লায়েকুজ্জামান। ১৯৮০ সালে তিনি ফরিদপুর জিলা স্কুল থেকে এসএসসি পাস করে ফরিদপুর রাজেন্দ্র কলেজে ভর্তি হন। এরপর তিনি ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় থেকে রাষ্ট্রবিজ্ঞানে অনার্স-মাস্টার্স করেন। রাষ্ট্রবিজ্ঞানে অনার্স-মাস্টার্স করলেও কর্মজীবনে তিনি পেশা হিসেবে সাংবাদিকতা বেছে নেন।

Print Friendly, PDF & Email

     এ ক্যাটাগরীর আরো খবর