শ্রমিক নেতা কল্পনা আক্তারের এত টাকা কোথা থেকে আসে, প্রশ্ন মন্ত্রীর

হাওর বার্তা ডেস্কঃ পোশাক শ্রমিক নেতা কল্পনা আক্তারের টাকার উৎস নিয়ে প্রশ্ন তুলেছেন তথ্য ও সম্প্রচারমন্ত্রী এবং আওয়ামী লীগের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক ড. হাছান মাহমুদ।

বৃহস্পতিবার দুপুরে সচিবালয়ে মন্ত্রণালয়ের সভাকক্ষে সাংবাদিকদের সঙ্গে মতবিনিময়কালে এক প্রশ্নের জবাবে হাছান মাহমুদ পালটা এ প্রশ্ন তোলেন।

বিশ্বব্যাপী শ্রমিকদের অধিকার নিয়ে গত ১৬ নভেম্বর নতুন এক স্মারকপত্রে স্বাক্ষর করেছেন যুক্তরাষ্ট্রের প্রেসিডেন্ট জো বাইডেন। এটি প্রকাশের পর দেশটির পররাষ্ট্রমন্ত্রী অ্যান্টনি ব্লিংকেন তার বক্তব্যে কল্পনা আক্তার নামে বাংলাদেশের এক গার্মেন্ট শ্রমিক ও নেত্রীর কথা উল্লেখ করেন। সংবাদ সম্মেলনে তিনি বাংলাদেশের গার্মেন্টস শ্রমিক অধিকারকর্মী কল্পনা আক্তারের উদাহরণ তুলে ধরেন। ব্লিংকেন বলেন, ‘আমরা কল্পনা আক্তারের মতো মানুষদের পাশে থাকতে চাই।’ এ বিষয়ে তিনি আরও বলেন, ‘কল্পনা আক্তার একজন বাংলাদেশি গার্মেন্টসকর্মী এবং গার্মেন্টস শ্রমিক অধিকার কর্মী। তিনি (কল্পনা) বলেছেন যে, তিনি জীবিত আছেন কারণ, মার্কিন দূতাবাস তার পক্ষে কাজ করেছে।’

পোশাক শ্রমিক নেতা কল্পনা আক্তার আসলে কার এজেন্ট? সাংবাদিকরা প্রশ্ন করলে তথ্যমন্ত্রী হাছান মাহমুদ বলেন, ‘তিনি কার এজেন্ট আমি জানি না, আপনারা খুঁজে বের করুন। তবে এক বছরে যতবার তিনি বিদেশ গেছেন এবং বিদেশ যাত্রায় ১৪-১৫ লাখ টাকা খরচ হয়েছে, তা থেকে প্রশ্ন আসে একজন শ্রমিক নেতার এত টাকা কোথা থেকে আসে, এতবার বিদেশ যাত্রারই বা কেন প্রয়োজন।’

Print Friendly, PDF & Email

     এ ক্যাটাগরীর আরো খবর