দলের প্রয়োজনেই স্বতন্ত্র প্রার্থীর অনুমতি: ওবায়দুল কাদের

হাওর বার্তা ডেস্কঃ আসন্ন দ্বাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনে স্বতন্ত্র প্রার্থীর অনুমতি দলের প্রয়োজনে কৌশলগত সিদ্ধান্ত বলে জানিয়েছেন আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ও সেতুমন্ত্রী ওবায়দুল কাদের।

মনোনয়নপ্রাপ্তদের বিষয়ে ওবায়দুল কাদের বলেন, বিজয়ী হতে পারবে, এমন প্রার্থীদেরই মনোনয়ন দেয়া হয়েছে৷

আজ সোমবার আওয়ামী লীগের ধানমন্ডি কার্যালয় থেকে আনুষ্ঠানিকভাবে দলীয় মনোনয়নপ্রাপ্তদের চিঠি হস্তান্তর অনুষ্ঠানে এ মন্তব্য করেন তিনি।

আওয়ামী লীগ সাধারণ সম্পাদক বলেন, শান্তিপূর্ণ নির্বাচনের চেষ্টা করছে সরকার৷ পরিবেশ বিঘ্নিত করছে বিরোধী দল৷ সরকারি দল কোনো সহিংসতা করছে না৷ এ সময় তিনি প্রশ্ন রেখে বলেন, একটা বিশেষ দল অংশ নিলেই কি নির্বাচন বৈধ হয়ে যায়? তারা এলেই কি অংশগ্রহণমূলক হয়ে যায়? ২৫-৩০টি দল এবারের নির্বাচনে অংশ নেবে ৷ বিএনপি অংশ না নিলেও, তাদের দলের কিছু নেতা নির্বাচনের জন্য প্রস্তুত হচ্ছে ৷

বিএনপি নির্বাচনে জিততে পারবে না বলেই ভোট এড়াতে চাচ্ছে উল্লেখ করে কাদের বলেন, ৩০ নভেম্বরের মধ্যেই পরিষ্কার হবে বিএনপি থেকে কারা কারা নির্বাচনে আসবে ৷

দুই আসনে প্রার্থী ঘোষণা না করার বিষয়ে তিনি বলেন, দলীয় কৌশলগত কারণেই দুটি আসনে প্রার্থী দেয়নি আওয়ামী লীগ৷ নির্বাচনী জোটের সুবিধা দেখে সিদ্ধান্ত নেয়া হবে। এখানে অ্যাডজাস্টমেন্ট-অ্যাকোমডেশনের বিষয় আছে ৷ সেগুলো চূড়ান্ত করবে দল ৷

এর আগে দুপুরে দলীয় সভাপতি শেখ হাসিনা এবং সাধারণ সম্পাদক ওবায়দুল কাদেরের মনোনয়নপত্র হস্তান্তরের মাধ্যমে কার্যক্রমের উদ্বোধন করা হয়। এবার নৌকার মনোনয়ন পেয়েছেন দলের তৃণমূলের পরীক্ষিত কর্মীর পাশাপাশি সাবেক সেনা কর্মকর্তা, সাবেক পুলিশ কর্মকর্তা, চিকিৎসকসহ ১০৪ জন নতুন মুখ। এ তালিকায় আছেন রূপালি পর্দার জনপ্রিয় তারকা থেকে শুরু করে সঙ্গীতশিল্পী, ক্রিকেটার, আইনজীবীও। আওয়ামী লীগের বর্তমান ৭১ জন সংসদ সদস্য এবার মনোনয়ন পাননি। এ তালিকায় আছেন তিন প্রতিমন্ত্রীও। মনোনয়ন না পেয়ে অনেকেই স্বতন্ত্র প্রার্থী হিসেবে নির্বাচনে লড়ার ঘোষণা দিয়েছেন।

প্রসঙ্গত, গত রোববার মনোনয়নপ্রাপ্ত ২৯৮ প্রার্থীর নাম ঘোষণা করে আওয়ামী লীগ। এর আগে ৩ হাজার ৩৬২ জন মনোনয়ন চেয়ে আবেদন করেন।

Print Friendly, PDF & Email

     এ ক্যাটাগরীর আরো খবর