নৌকায় ঠাঁই না পেয়ে একাই লড়ার ঘোষণা ব্যারিস্টার সুমনের

দ্বাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনে আওয়ামী লীগের মনোনয়ন না পেয়ে হবিগঞ্জ-৪ (চুনারুঘাট-মাধবপুর) আসনে স্বতন্ত্রপ্রার্থী হিসেবে লড়াইয়ের ঘোষণা দিয়েছেন হাইকোর্টের আলোচিত আইনজীবী ব্যারিস্টার সৈয়দ সায়েদুল হক সুমন। ওই আসনে আওয়ামী লীগের মনোনয়ন পেয়েছেন বেসামরিক বিমান পরিবহন ও পর্যটন প্রতিমন্ত্রী অ্যাডভোকেট মাহবুব আলী।

আজ রবিবার ফেসবুকে এই আইনজীবী স্বতন্ত্রপ্রার্থী হিসেবে নির্বাচনে অংশ নেওয়ার ঘোষণা দেন। এরপর অনেকেই ওই পোস্টে স্বাগত জানিয়ে অভিনন্দন ও শুভেচ্ছা জানান।

এর আগে, বিকেলে রাজধানীর বঙ্গবন্ধু অ্যাভিনিউয়ে অবস্থিত আওয়ামী লীগের কেন্দ্রীয় কার্যালয়ে আনুষ্ঠানিকভাবে প্রার্থীদের নাম ঘোষণা করেন দলটির সাধারণ সম্পাদক ওবায়দুল কাদের। এ সময় ৩০০ আসনের মধ্যে ২৯৮টি প্রার্থীর নাম ঘোষণা করেন তিনি। বাকি দুটি আসনে প্রার্থীর নাম পরে ঘোষণা করা হবে।

এ বিষয়ে ব্যারিস্টার সৈয়দ সায়েদুল হক সুমন সাংবাদিকদের বলেন, ‘আজকে গণভবনে জননেত্রী শেখ হাসিনা আমাদের যাকে নমিনেশন দেবেন তার সঙ্গে একজন ডামি ক্যান্ডিডেটও রাখতে বলেছেন এবং অন্যান্য প্রার্থী যারা আছেন তাদের সহযোগিতা করতে বলেছেন। এর মানে হচ্ছে তিনি অংশগ্রহণমূলক নির্বাচন চান। উনি ওয়ার্নিং দিয়েছেন যে কোনোভাবে নির্বাচনবিহীন অথবা বিনা প্রতিদ্বন্দ্বিতায় কাউকে আসতে দেওয়া হবে না। এর মানে হচ্ছে অংশগ্রহণমূলক ও উত্তেজনাপূর্ণ নির্বাচনের কথা বলেছেন। ওপেন করে দিয়েছেন। এ জন্য আমি সিদ্ধান্ত নিয়েছি আমার নিজের এলাকাকে বঙ্গবন্ধুর স্বপ্নের সোনার বাংলা বানানোর জন্য আমি নির্বাচনে ঘোষণা দিয়েছি।’

সৈয়দ সায়েদুল হক সুমন ২০১২ সালের ১৩ নভেম্বর আন্তর্জাতিক অপরাধ ট্রাইব্যুনালের প্রসিকিউটর হিসেবে যোগ দেন। পরবর্তীকালে ২০২০ সালের ফেব্রুয়ারিতে অব্যাহতি নেন।

এরপর ২০২০ সালের ১৪ নভেম্বর যুবলীগের ২০১ সদস্যের পূর্ণাঙ্গ কমিটি ঘোষণা করা হয়। সেখানে আইনবিষয়ক সম্পাদক হিসেবে দায়িত্ব পেয়েছিলেন সুমন। কিছুদিন পর ২০২১ সালের আগস্টে তাকে ওই পদ থেকে অব্যাহতি দেওয়া হয়।

Print Friendly, PDF & Email

     এ ক্যাটাগরীর আরো খবর