,

IMG_20211025_225717

অষ্টগ্রামের আব্দুল্লাপুর হাওর অঞ্চলে তফসিলভূক্ত ভূমির ভাসান পানিতে বেআইনীভাবে মাছ ধরে জাতির ক্ষতি সাধন করছে

হাওর বার্তা ডেস্কঃ কিশোরগঞ্জে অষ্টগ্রামের আব্দুল্লাপুর হাওর অঞ্চলে তফসিলভূক্ত ভূমির ভাসান পানিতে ইজাদারগণ বেআইনীভাবে মাছ ধরে এলাকার কৃষক ও সাধারণ মানুষের ক্ষতি সাধন করছে।

কিশোরগঞ্জে অষ্টগ্রামের আব্দুল্লাপুর হাওর অঞ্চলে তফসিলভূক্ত ভূমির ভাষান পানিতে ইজাদারগণ বেআইনীভাবে মাছ ধরে জাতির ক্ষতি সাধন করছে। জলাশয়ের সীমানা চিহ্নিত না হওয়া পর্যন্ত সাধারণ জনগণের অধিকার প্রতিষ্ঠিত না করে জমিতে মাছ ধরিতে পারিবেন না। সমস্যাগুলি হাওর অঞ্চলে ভাষান পানিতে প্রতিনিয়ত মাছ নিধন হচ্ছে বলে আমরা আইনের আশ্রয় নিয়ে উকিল নোটিশ পাঠিয়েছি। এ ব্যাপারে হাওর রত্ন, ভাটির শার্দুল মহামান্য রাষ্ট্রপতি মোঃ আবদুল হামিদ মহোদয় ও তার সুযোগ্য সন্তান আমাদের এলাকার মাননীয় সংসদ সদস্য রেজওয়ান আহম্মদ তৌফিক মহোদয়কে অবহিত করা হয়েছে। হাওর অঞ্চলে যাদের জন্ম , যাহারা নিম্নবিত্ত কৃষক তারা বর্ষায় ভাষান পানিতে মাছ ধরে জীবিকা নির্বাহ করছে। ইজারাদারদের অত্যাচারে, আমাদের এলাকার অনেকেই নিজেদের ভিটা ছাড়া হয়ে কাজের সন্ধানে অন্যত্র পাড়ি জমিয়েছে।

উল্লেখ্য যে, ইজারাদারগণ হলো: ১। সানোয়ার খাঁ, ২। খুরশীদ খাঁ, ৩। মোক্তার খাঁ, ৪। মন্নর খাঁ গং যাহারা আবদুল্লাপুর মৎস্যজীবী সমিতির পক্ষে আমাদের জমিতে অবৈধভাবে মাছ ধরছে। আমাদেরকে বঞ্চিত করায় ইজারাদারদের এই অবৈধ কর্মকান্ডে পুলিশ বা প্রশাসন কোন ব্যবস্থা  না নেয়ায় আমরা আপনাদের মাধ্যমে জাতির কাছে তুলে ধরার জন্য এই সংবাদ সম্মেলনের আয়োজন করেছি।

Print Friendly, PDF & Email

     এ ক্যাটাগরীর আরো খবর