ঢাকা ০৯:৪৫ অপরাহ্ন, বুধবার, ১২ জুন ২০২৪, ২৯ জ্যৈষ্ঠ ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

আমরা কোনো আগ্রাসীর কাছে মাথা নত করতে চাই না

  • Reporter Name
  • আপডেট টাইম : ১১:৪৩:২৩ অপরাহ্ন, মঙ্গলবার, ২৬ জানুয়ারী ২০১৬
  • ৫৪৩ বার

দেশকে বহিঃশক্তির আগ্রাসন থেকে মুক্ত করতে ঐক্যবদ্ধ হয়ে মুক্তিযুদ্ধের চেতনা বাস্তবায়নের আহ্বান জানিয়েছেন সাবেক সংসদ সদস্য মেজর অব. মো. আখতারুজ্জামান।

মঙ্গলবার রাতে তাঁর ফেসবুক পেইজে এক স্ট্যাটাসে তিনি এ আহ্বান জানান। আখতারুজ্জামানের সেই স্ট্যাটাসটি এখানে হুবহু তুলে ধরা হলো:

“বন্ধুগণ, আসুন এবার বাংলাদেশকে বহিঃশক্তির আগ্রাসন থেকে মুক্ত করতে ঐক্যবদ্ধ হয়ে মুক্তিযুদ্ধের চেতনা বাস্তবায়িত করি।

মুক্তিযুদ্ধের চেতনা বাস্তবায়িত করার জন্য ঐক্যবদ্ধ প্রচেষ্টা দরকার। আমরা মুক্ত থাকতে চাই। আমরা কোন আগ্রাসী শক্তির নিকট মাথানত করতে চাই না। আমাদের ধর্ম, কৃষ্টি, সংস্কৃতি, আচার-আচরন ও সার্বভৌমত্ব নিয়ে স্বাধীন ভাবে বাচার নাম হোল মুক্তিযুদ্ধের চেতনা। এখানে পাকিস্থান বা পাকিস্থানের রাজাকারদের যেমন স্থান নাই তেমনি অন্য কোন পরাশক্তির প্রভাবও বাংলাদেশের জনগণ কোন ভাবেই মেনে নিবে না। আমরা স্বাধীন এবং সার্বভৌম। আমরাই আমাদের ভাগ্য নিয়ন্ত্রণ করবো।

মুক্তিযুদ্ধের চেতনা বাস্তবায়ন কমিটির মত বিনিময় সভায় ও মিলনমেলায় যাওয়ার আমন্ত্রন থাকলে সেখানে গিয়ে এই কথায় বলতাম।

সংখ্যালগুর শাসন সংখ্যাগুরুর মাথায় যদি কেহ পরাশক্তির জোরে চাপাইয়া দিতে চায় তাহলে জনগণ তা বেশিদিন মেনে নিবে না। বাংলার ইতিহাস সংগ্রামের ইতিহাস। বাংলার মানুষ দিল্লীর মোঘল শাসনও মেনে নেয় নাই। সংখ্যাগরিষ্ঠ মানুষের ভাষা বুঝতে পারলেই মুক্তিযুদ্ধের চেতনা পরিস্কার হয়ে যাবে। আমরাও ধর্ম নিরপেক্ষতায় বিশ্বাস করি তবে ধর্মহীনতায় নয়। বাংলাদেশের ৯০% ভাগ মানুষের ধর্মকে অবজ্ঞা করে জনগণের কোন মুক্তি আসতে পারে না। চেতনারতো প্রশ্নই উঠে না। জয় বাংলা আমাদের স্বাধীন রাষ্ট্রের চেতনা তেমনি আল্লাহু আকবর আমার সার্বভৌম জাতির আত্মপরিচয়। এই দুইয়ের সমন্বয়েই আছে আমার সার্বজনীন মুক্তির চেতনা যাকে আমারা চিরন্ততন মুক্তিযুদ্ধের চেতনা নিয়ে ঐক্যবদ্ধ জাতি হিসাবে সামনে আগাইয়া নিয়ে যেতে পারি।”

Tag :

Write Your Comment

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Save Your Email and Others Information

About Author Information

Haor Barta24

আমরা কোনো আগ্রাসীর কাছে মাথা নত করতে চাই না

আপডেট টাইম : ১১:৪৩:২৩ অপরাহ্ন, মঙ্গলবার, ২৬ জানুয়ারী ২০১৬

দেশকে বহিঃশক্তির আগ্রাসন থেকে মুক্ত করতে ঐক্যবদ্ধ হয়ে মুক্তিযুদ্ধের চেতনা বাস্তবায়নের আহ্বান জানিয়েছেন সাবেক সংসদ সদস্য মেজর অব. মো. আখতারুজ্জামান।

মঙ্গলবার রাতে তাঁর ফেসবুক পেইজে এক স্ট্যাটাসে তিনি এ আহ্বান জানান। আখতারুজ্জামানের সেই স্ট্যাটাসটি এখানে হুবহু তুলে ধরা হলো:

“বন্ধুগণ, আসুন এবার বাংলাদেশকে বহিঃশক্তির আগ্রাসন থেকে মুক্ত করতে ঐক্যবদ্ধ হয়ে মুক্তিযুদ্ধের চেতনা বাস্তবায়িত করি।

মুক্তিযুদ্ধের চেতনা বাস্তবায়িত করার জন্য ঐক্যবদ্ধ প্রচেষ্টা দরকার। আমরা মুক্ত থাকতে চাই। আমরা কোন আগ্রাসী শক্তির নিকট মাথানত করতে চাই না। আমাদের ধর্ম, কৃষ্টি, সংস্কৃতি, আচার-আচরন ও সার্বভৌমত্ব নিয়ে স্বাধীন ভাবে বাচার নাম হোল মুক্তিযুদ্ধের চেতনা। এখানে পাকিস্থান বা পাকিস্থানের রাজাকারদের যেমন স্থান নাই তেমনি অন্য কোন পরাশক্তির প্রভাবও বাংলাদেশের জনগণ কোন ভাবেই মেনে নিবে না। আমরা স্বাধীন এবং সার্বভৌম। আমরাই আমাদের ভাগ্য নিয়ন্ত্রণ করবো।

মুক্তিযুদ্ধের চেতনা বাস্তবায়ন কমিটির মত বিনিময় সভায় ও মিলনমেলায় যাওয়ার আমন্ত্রন থাকলে সেখানে গিয়ে এই কথায় বলতাম।

সংখ্যালগুর শাসন সংখ্যাগুরুর মাথায় যদি কেহ পরাশক্তির জোরে চাপাইয়া দিতে চায় তাহলে জনগণ তা বেশিদিন মেনে নিবে না। বাংলার ইতিহাস সংগ্রামের ইতিহাস। বাংলার মানুষ দিল্লীর মোঘল শাসনও মেনে নেয় নাই। সংখ্যাগরিষ্ঠ মানুষের ভাষা বুঝতে পারলেই মুক্তিযুদ্ধের চেতনা পরিস্কার হয়ে যাবে। আমরাও ধর্ম নিরপেক্ষতায় বিশ্বাস করি তবে ধর্মহীনতায় নয়। বাংলাদেশের ৯০% ভাগ মানুষের ধর্মকে অবজ্ঞা করে জনগণের কোন মুক্তি আসতে পারে না। চেতনারতো প্রশ্নই উঠে না। জয় বাংলা আমাদের স্বাধীন রাষ্ট্রের চেতনা তেমনি আল্লাহু আকবর আমার সার্বভৌম জাতির আত্মপরিচয়। এই দুইয়ের সমন্বয়েই আছে আমার সার্বজনীন মুক্তির চেতনা যাকে আমারা চিরন্ততন মুক্তিযুদ্ধের চেতনা নিয়ে ঐক্যবদ্ধ জাতি হিসাবে সামনে আগাইয়া নিয়ে যেতে পারি।”