,

শুধু মৃতদের জন্যই তৈরি হচ্ছে শহর

শুধু মৃতদের জন্য আস্ত একটি শহর! হাজার হাজার দেহ শায়িত। কোনও জীবিত ব্যক্তি বসবাস করতে পারবেন না সেখানে। চিরঘুমে শায়িতরাই রাজত্ব করবে ওই শহরে। জেরুজালেমে তৈরি হতে চলেছে এমনই একটি শহর। সিটি অফ দ্য ডেড।
অত্যাধুনিকতায় কোনও অংশে কম হবে না বিশ্বের অন্যতম বড় শহরগুলির চেয়ে। পুরোটাই হবে শীতাতপ নিয়ন্ত্রিত। হালকা, স্নিগ্ধ আলোয় এক রোমাঞ্চকর পরিবেশ সদা বিরাজ করবে সেই শহরে। থাকছে লিফট-এর ব্যবস্থাও। কিন্তু বাসিন্দারা সকলেই হবে মৃত।
জেরুজালেমে তৈরি হচ্ছে বিশ্বের এই বৃহত্তম কবরস্থান। সুবিশাল ওই কবরস্থান তৈরি করা হচ্ছে অত্যাধুনিক শপিংমলের মতো।
ইহুদি প্রেস নিউজ-এ প্রকাশিত খবর অনুযায়ী, ২২ হাজার তলার কবরস্থানটি তৈরি করতে খরচ পড়ছে ৫ কোটি মার্কিন ডলার। বিশেষ ধরনের স্নিগ্ধ আলো থাকবে। গোটাটাই হবে শীতাতপ নিয়ন্ত্রিত। মাটির নীচেও থাকবে ঘরের ব্যবস্থা।
ইজরায়েলি নাগরিকরা প্রত্যেকেই চান, মৃত্যুর পর জেরুজালেমের মতো পবিত্র শহরে শেষকৃত্য সম্পন্ন করতে। ফলে প্রত্যেক বছরই জেরুজালেমে বিশ্বের নানা জায়গা থেকে ইহুদিরা তাঁদের মৃত পরিজনকে কবর দেন জেরুজালেমে। এই বিপুল শেষকৃত্যের চাপ কমাতেই জেরুজালেম প্রশাসন কার্যত একটি গোরস্থানের শহর তৈরির সিদ্ধান্ত নিয়ে ফেলেছে।
এই সুবিশাল কবরস্থানের প্রথম পর্যায়ের কাজও শুরু হয়ে গিয়েছে।
Print Friendly, PDF & Email

     এ ক্যাটাগরীর আরো খবর