,

ফুটবল খেলা নিয়ে শিক্ষার্থীদের মধ্যে সংঘর্ষ, শিক্ষকসহ আহত ৮

হাওর বার্তা ডেস্কঃ কুমিল্লার মনোহরগঞ্জ উপজেলায় আন্তঃস্কুল, কলেজ ও মাদ্রাসা ক্রীড়া সমিতির গ্রীষ্মকালীন ফুটবল খেলা কেন্দ্র করে দুদলের সংঘর্ষে শিক্ষকসহ আটজন আহত হয়েছেন।

শনিবার বিকালে মনোহরগঞ্জ সরকারি উচ্চ বিদ্যালয় ও কলেজ মাঠে লক্ষণপুর উচ্চ বিদ্যালয় ও নরহরীপুর দাখিল মাদ্রাসার শিক্ষার্থীদের মধ্যে এ সংঘর্ষের ঘটনা ঘটে।

হামলায় আহত হন লক্ষণপুর উচ্চ বিদ্যালয় শিক্ষক মোখলেছুর রহমানসহ উভয় প্রতিষ্ঠানের আট শিক্ষার্থী।

প্রত্যক্ষদর্শী ও স্কুল কর্তৃপক্ষ জানায়, শনিবার বিকালে লক্ষণপুর উচ্চ বিদ্যালয় বনাম নরহরীপুর দাখিল মাদ্রাসার শিক্ষার্থীদের ফুটবল খেলা চলছিল। মধ্য বিরতির পর পুনরায় খেলা শুরু হলে লক্ষণপুর উচ্চ বিদ্যালয় বিপক্ষ দল নরহরীপুর দাখিল মাদ্রাসার দলে ভাড়াটে খেলোয়াড় নিয়ে খেলছে বলে অভিযোগ করে। এতে দুই দলের খেলোয়াড়দের মাঝে কথা কাটাকাটি শুরু হয়।

পরবর্তী খেলায় অংশ নেওয়ার জন্য খেলার পরিচালনা কমিটির নেতৃবৃন্দ সিদ্ধান্ত দেন। নির্ধারিত সময়ে দুই মিনিট আগে লক্ষণপুর উচ্চ বিদ্যালয় ও নরহরীপুর দাখিল মাদ্রাসার দলে মধ্যে গোল না হওয়ার একপর্যায়ে সেটি সংঘর্ষের রূপ নেয়। এতে উভয়পক্ষের বাগবিতণ্ডায় হাতাহাতির ঘটনা ঘটে। পরে উভয় প্রতিষ্ঠানে খবর ছড়িয়ে পড়লে দুপক্ষের শিক্ষার্থী ও বহিরাগত লোকজনের মধ্যে সংঘর্ষ বেধে যায়। এ সময় একে অপরকে লক্ষ্য করে ইটপাটকেল নিক্ষেপ করতে থাকে।

উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা সোহেল রানা বলেন, দুই বিদ্যালয়ের শিক্ষক, শিক্ষার্থী ও পরিচালনা পরিষদের সমন্বয়ে আলোচনার মাধ্যমে সমাধানের উদ্যোগ নেওয়া হয়েছে।

এ বিষয়ে মনোহরগঞ্জ থানার ওসি সফিউল আলম যুগান্তরকে জানান, এ ঘটনা নিয়ে থানায় কেউ অভিযোগ করতে আসেনি।

Print Friendly, PDF & Email

     এ ক্যাটাগরীর আরো খবর