,

Untitled-10-2204190741

সৈকতে মিললো পা ছাড়া কচ্ছপ

হাওর বার্তা ডেস্কঃ পটুয়াখালীর কুয়াকাটা সমুদ্র সৈকতে এবার ভেসে এসেছে এক পা ছাড়া জীবিত একটি মা কচ্ছপ। মঙ্গলবার (১৯ এপ্রিল) সকাল সাড়ে ১১টার দিকে সৈকতের ঝাউবাগান পয়েন্ট এলাকা থেকে কচ্ছপটি উদ্ধার করে ডলফিন রক্ষা কমিটির সদস্যরা।

ডলফিন রক্ষা কমিটির সদস্যরা জানান, কচ্ছপটির শীরের উপরিভাগে আঘাতের চিহ্ন রয়েছে। এটির ওজন ২৫ থেকে ৩০ কেজি হতে পারে। এক পা না থকায় ঢেউয়ের তোড়ে কচ্ছপটি ভেসে আসতে পারে। তবে এ মৌসুমে ডিম পাড়তেও কচ্ছপ তীরে চলে আসে বলে জানায় তারা।
ডলফিন রক্ষা কমিটির টিম লিডার রুমান ইমতিয়াজ তুষার জানান, খবর পাওয়া মাত্র আমরা ঝাউবাগান এলাকায় গিয়ে কচ্ছপটি উদ্ধার করি। এটির নিচের অংশে আঘাতের চিহ্ন রয়েছে। ধারণা করা হচ্ছে, জেলেদের জালের আঘাতে এটি আঘাতপ্রাপ্ত হয়েছে। এছাড়া এটির সামনের বাম পা অনেক আগেই হারিয়েছে।

তিনি আরো জানান, আমরা বন বিভাগ ও ওয়ার্ল্ডফিস ইকোফিসের গবেষকদের খবর দিয়েছি।

ওয়ার্ল্ডফিস ইকোফিস-২ প্রকল্পের সহকারী জীব বৈচিত্র্য গবেষক সাগরিকা স্মৃতি জানান, এটি মূলত জলপাই রঙ্গা সাগর কাছিম প্রজাতির কচ্ছপ। এর বৈজ্ঞানিক নাম হচ্ছে লিপিডোসিলাস ওলিভেসা। এসব কচ্ছপ মূলত গভীর সাগরে বিচরণ করে। এ মৌসুমের অমাবশ্যা এবং পূর্নিমায় ডিম পাড়তে উপরের দিকে চলে আসে। তবে এ কচ্ছপটি জেলেদের জালে আঘাতপ্রাপ্ত হয়ে ঢেউয়ের তোড়ে তীরে ভেসে এসেছে। এছাড়া এর আগে থেকেই একটি পা হারিয়েছে। আমরা চিকিৎসা দেওয়ার জন্য কচ্ছপটিকে নিয়ে যাচ্ছি। পরে এটিকে সমুদ্রে অবমুক্ত করা হবে।

তিনি আরো জানান, সৈকতে একের পর এক কচ্ছপের মৃত্যুতে আমরা অনেকটা উদ্বিগ্ন। কচ্ছপ সমুদ্রের পরিবেশের ভারসাম্য রক্ষায় অনেকটা গুরুরত্বপূর্ন ভূমিকা পালন করে।

মহিপুর বন বিভাগের রেঞ্জ কর্মকর্তা আবুল কালাম জানান, কচ্ছপটি উদ্ধার করা হয়েছে। প্রাথমিক চিকিৎসা শেষে এটিকে অবমুক্ত করা হবে।

চলতি বছরের এখন পর্যন্ত এই সমুদ্র সৈকত থেকে ৭টি মৃত কচ্ছপ উদ্ধার করা হয়েছে।

Print Friendly, PDF & Email

     এ ক্যাটাগরীর আরো খবর