,

Untitled-1

ভোটে জিতে ২৫০ ডেকচি বিরিয়ানি খাওয়ালেন চেয়ারম্যান

হাওর বার্তা ডেস্কঃ ঢাকার ধামরাইয়ে সোমবাগ ইউনিয়নের নবনির্বাচিত চেয়ারম্যান প্রভাষক আওলাদ হোসেন গণভোজের আয়োজন করেছেন। এতে প্রায় ২৭ হাজার মানুষ অংশগ্রহণ করেন। ১০টি গরু দিয়ে রান্না করা হয় প্রায় ২৫০ ডেকচি বিরিয়ানি।

গতকাল (১ জানুয়ারি) ধামরাইয়ের সোমবাগ ইউনিয়নের দেপাশাই সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের মাঠে এই বিশাল গণভোজের আয়োজন করা হয়। এতে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন ঢাকা জেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি ও ঢাকা-২০ আসনের সংসদ সদস্য বীর মুক্তিযোদ্ধার আলহাজ্ব বেনজীর আহমেদ।

আলহাজ্ব বেনজীর আহমেদ বলেন, নবনির্বাচিত চেয়ারম্যান আওলাদ ধামরাইয়ে যা দেখিয়েছে তা দৃষ্টান্ত হয়ে থাকবে। এমন ধরনের আয়োজন এর আগে কেউই করতে পারেনি। যেখানে দলমত নির্বিশেষে মানুষ একত্রিত হয়েছে।

যদিও কেউ কেউ এর সমালোচনাও করছেন। তাদের ভাষ্য, নির্বাচনে আওলাদ আওয়ামী লীগের বিদ্রোহী প্রার্থী হলেও তার বিরুদ্ধে নেওয়া হয়নি কোনো সাংগঠনিক ব্যবস্থা।

বরং ফুল দিয়ে বরণের পর এমন আয়োজনে হেভিওয়েট আওয়ামী লীগ নেতাদের উপস্থিতি নিয়েও প্রশ্ন তোলেন কেউ কেউ।

খোঁজ নিয়ে জানা যায়, বিশাল এই আয়োজনে ১০টি গরু রাঁধতে প্রায় ৯০ জন বাবুর্চি অংশগ্রহণ করেন। দেপাশাই খেলার মাঠ ও ঈদগাহ মাঠে একসঙ্গে ৫ হাজার লোক খাওয়ানোর ব্যবস্থা করা হয়। দূর থেকে আসা লোকজনের জন্য গাড়ির ব্যবস্থাও করা হয়েছিল এই আয়োজনে।

নবনির্বাচিত চেয়ারম্যান প্রভাষক মোহাম্মদ আওলাদ হোসেন বলেন, এ ইউনিয়নের চেয়ারম্যান বাবা হতে পারেননি। বাবার স্বপ্ন পূরণে নির্বাচনে অংশগ্রহণ করে আমি জনতার ভোটে নির্বাচিত হয়েছি। তারা যেভাবে আমাকে সম্মান দিয়েছে তাতে আমি ঋণি। এ আয়োজন তাদের জন্য কিছুই না।

এসময় আরো উপস্থিত ছিলেন, ধামরাই পৌর মেয়র আলহাজ্ব গোলাম কবির মোল্লা, পৌর কাউন্সিলর, উপজেলার বিভিন্ন ইউনিয়নের নবনির্বাচিত চেয়ারম্যান, আওয়ামী লীগের নেতৃবৃন্দসহ গণ্যমান্য ব্যক্তিবর্গ।

Print Friendly, PDF & Email

     এ ক্যাটাগরীর আরো খবর