,

WhatsApp-Image-2021-07-04-at-43253-PM-2107041037

অনন্য দৃষ্টান্ত, হাসপাতালের রোগী-স্বজনদের ফ্রিতে খাওয়াচ্ছেন বরিশালের হোটেল মালিকরা

হাওর বার্তা ডেস্কঃ লকডাউন বাস্তবায়নে খাবার হোটেল বন্ধ থাকায় বিপাকে পড়া হাসপাতালের রোগী ও স্বজনদের বিনামূল্যে খাবার দিচ্ছেন হোটেল মালিকরা। বরিশাল শের-ই-বাংলা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের সামনের ১০ জন হোটেল মালিক ঐক্যবদ্ধভাবে শনিবার থেকে এই কার্যক্রম শুরু করেন।

বিনামূল্যে খাবার বিতরণকারী হোটেলগুলো হলো- হাওলাদার, রাঁধুনী, তাওহিদ, ভাই ভাই, গোবিন্দ, মদিনা, নন্দিনী, ভোলা, মিতালী ও জমজম।

রোববারও দুপুরে হাসপাতালের সামনে মূল সড়কের পাশে খাবার বিতরণ করা হয়। এ সময় লাইনে দাড়িয়ে রোগীর স্বজনদের খাবার নিতে দেখা গেছে।

হোটেল মদিনার কামরুল হাসান বাবলু বলেন, আমরাতো সারা বছরই ভাত বেচি, ব্যবসা করি। এখন মানুষ বিপদে পড়েছে, ভাত ফ্রি দেওয়া আমাদের দায়িত্ব। তাই যতদিন পারি ফ্রি দেবো।

তিনি বলেন, লকডাউনে খাবার হোটেল বন্ধ করে দেওয়ায় শের-ই-বাংলা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে চিকিৎসা নিতে আসা রোগী ও স্বজনরা বিপদে পড়েন। আমরা লকডাউনের শুরুতে দেখেছি খাবারের জন্য রোগীর স্বজনরা যথারীতি হাহাকার করেছে। তখন হোটেল মালিকরা বসে সিদ্ধান্ত নেই, বিপদে পড়া মানুষদের বিনামূল্যে খাবার বিতরণের। সিদ্ধান্ত অনুযায়ী শনিবার প্রায় দেড় হাজার মানুষকে এবং রোববার এক হাজারের বেশি মানুষকে বিনামূল্যে দুপুরের খাবার দিয়েছি।

বাবলু বলেন, আমরা চেষ্টা করব সার্মথ্য অনুযায়ী আরো কিছুদিন চালিয়ে নেয়ার। কিন্তু আমাদের টাকা ফুরিয়ে গেলে বিতরণ কর্মসূচিও বন্ধ করে দিতে হবে।

খাবার নিতে আসা রোগীর স্বজন সুমাইয়া আক্তার বলেন, আমার বাবা ১ জুলাই হাসপাতালে ভর্তি হন। কিন্তু লকডাউনে খাবার হোটেল বন্ধ হয়ে যাওয়ায় বিপাকে পড়েছি। হোটেল মালিকরা বিনামূল্যে খাবার বিতরণ করছেন জানতে পেরে খাবার নিতে এসেছি। খাবার পেয়ে ভালো লাগছে।

Print Friendly, PDF & Email

     এ ক্যাটাগরীর আরো খবর