,

1

মদনে সেতুর দুই পাশের মাটি না থাকায় জনদূর্ভোগ

বিজয় দাস নেত্রকোনাঃ নেত্রকোণার মদন উপজেলার  খুড়াইখালি খালের উপর নির্মিত সেতুর উভয় পাশে মাটি না থাকায় চলাচলে দূর্ভোগ পোহাচ্ছে আটটি গ্রামের প্রায় বিশ হাজার মানুষ। ২ -৩ বছর ধরে ঐ  সেতুর উপর দিয়ে যানবাহন চলাচল  বন্ধ  রয়েছে। এলাকাবাসী স্থানীয় জনপ্রতিনিধিদের নিকট বারবার আবেদন করে ও ব‍্যর্থ হয়েছেন।
 সরেজমিনে দেখা যায়, বাড়ৈউড়া গ্রামের সামনে ও দৌলতপুর গ্রামের পশ্চিমে নরুমসর বিলের পাড়ে, খুড়াইখালি  খালের উপর নির্মিত সেতুটি উভয় পাশের  মাটি ভেঙ্গে পড়েছে। রাস্তা থেকে সেতুতে ওঠার কোনো ব্যবস্থা নেই। অথচ তিয়শ্রী, বাড়ৈউড়া, শিবপাশা, বাস্তা, বৈঠাখালি, দৌলতপুর, বালালী, শ্রীধরপুর, কাওয়ালীবিন্নীসহ বেশ কয়েকটি  গ্রামের লোকজন চলাচল করত এই সড়ক দিয়ে। কয়েক বছর আগে বন্যায় ঐ সেতুর  উভয় পাশের  মাটি  ভেঙ্গে সরে যাওয়ায় চলাচল একবারে বন্ধ হয়ে গেছে স্থানীয়  বিশ  হাজার মানুষের।
স্থানীয়রা জানান, প্রায় ৭-৮ বছর আগে  খুড়াই খালী খালের ওপর নির্মিত হয় এই সেতুটি। বন্যায় ভাঙ্গনে ফলে সেতুর মুখের দুই পাশের মাটি সরে যাওয়ায় বিচ্ছিন্ন হয়ে পড়ে সংযোগ সড়কটি। এলাকাবাসী স্থানীয় ইউপি চেয়ারম্যান ফখর উদ্দিন আহমেদের সঙ্গে যোগাযোগ করেও কোনো  প্রতিকার পায়নি।
তিয়শ্রী উনিয়ন পরিষদ চেয়ারম্যান ফখরুদ্দিন আহমেদ  বলেন, খুড়াই খালি খালের ঐ সেতুর দুই মুখের মাটি ভেঙ্গে যাওয়ায় চলাচলে চরম দুর্ভোগ পোহাচ্ছে। সেতুটি মেরামতের জন্য আমি আপ্রাণ চেষ্টা করছি।
 উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা বুলবুল আহমেদ জানান, আমি উক্ত ব্রিজটি সরেজমিনে দেখে জনদূর্ভোগ লাগবসহ যান চলাচলে জন্য প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা গ্রহণ করব।
Print Friendly, PDF & Email

     এ ক্যাটাগরীর আরো খবর