,

Untitled-151

না ফেরার দেশে জালাল আহমেদ চৌধুরী

হাওর বার্তা ডেস্কঃ বাংলাদেশের ক্রিকেটের গুণী কোচের মধ্যে একজন জালাল আহমেদ চৌধুরী। শব্দের মোহ ছড়িয়ে যিনি মুগ্ধ করতেন সবাইকে। তিনি আজ থেকে আর লিখবেন না কিছু। দুনিয়ার সবকিছু থেকেই যে অনেক দূরে চলে গেছেন। ক্রিকেটার, কোচ, লেখক, ক্রীড়া সাংবাদিক। কত পরিচয় তার। ক্রিকেটের ধ্রুপদী এক লেখক ছিলেন তিনি। যা লিখতেন তাই যেন অমৃত। সব ছাপিয়ে এখন তিনি আর দুনিয়ার কেউ নন। পরপারের বাসিন্দা হয়ে গেছেন। গত শুক্রবার রাত থেকে ছিলেন ভেন্টিলেশনে। ছিলেন আইসিইউতেও। ফুসফুসের সংক্রমণ ও শ্বাসকষ্টের সমস্যায় ভুগে শেষ পর্যন্ত না ফেরার দেশে চলে গেলেন সর্বজন শ্রদ্ধেয় এই ব্যক্তিত্ব। মঙ্গলবার (২১ সেপ্টেম্বর) সকাল ১১টার দিকে মারা গেছেন ক্রিকেট কোচ ও ক্রীড়া লেখক জালাল আহমেদ চৌধুরী। (ইন্নালিল্লাহি ওয়া ইন্না ইলাইহে রাজিউন)।

তার মৃত্যুর খবর নিশ্চিত করেছেন ক্রিকেটার্স ওয়েলফেয়ার অ্যাসোসিয়েশন অব বাংলাদেশের (কোয়াব) সাধারণ সম্পাদক দেবব্রত পাল। অসুস্থ হয়ে ক্রীড়াঙ্গনের সর্বজন শ্রদ্ধেয় জালাল আহমেদ চৌধুরী ধানমন্ডির আনোয়ার খান মর্ডান হাসপাতালে ভর্তি হয়েছিলেন গত ১৫ সেপ্টেম্বর। পরে তার শারীরিক অবস্থার আরও অবনতি হয়। বিশিষ্ট এই ক্রিকেট কোচ রাজধানীর আজিমপুরে একটি ফ্ল্যাটে বসবাস করতেন একাই। তার সন্তানরা প্রবাসী। জালাল আহমেদ চৌধুরী সত্তর-আশির দশকে ক্রিকেট খেলেছেন। এরপর ক্রিকেট কোচিং করান। তার হাত ধরে দেশের অনেক শীর্ষ পর্যায়ের ক্রিকেটার তৈরি হয়েছে। বাংলাদেশ ওয়ানডে ক্রিকেট দলের অধিনায়ক গাজী আশরাফ হোসেন লিপুও জালাল আহমেদ চৌধুরীর ক্রিকেটের ছাত্র ছিলেন। হাল আমলের মোহাম্মদ আশরাফুল-তুষার ইমরানরা তারই শিষ্য। সর্বজন শ্রদ্ধেয় এই মানুষটি সবাইকে শোকে ভাসিয়ে চলে গেলেন। রেখে গেলেন তার অনবদ্য সব শব্দমালা আর ভক্ত অনুরাগী।

Print Friendly, PDF & Email

     এ ক্যাটাগরীর আরো খবর