,

11

রোনাল্ডোর মাইলফলক ছোঁয়ার দিনে জুভেন্টাসের জয়

হাওর বার্তা ডেস্কঃ রোববার রাতে শেষ ১০ মিনিটের এক রোমাঞ্চকর নৈপুণ্য দেখাল ইতালিয়ান চ্যাম্পিয়ন জুভেন্টাস। ৮০ মিনিট ধরে পয়েন্ট হারানোর শঙ্কায় থাকা সমর্থকদের মুখে হাসি ফোটালেন ক্রিশ্চিয়ানো রোনাল্ডো।

ড্র নিয়েই ফিরতে হতো ‘তুরিনের বুড়িদের’। তবে অতিরিক্ত যোগ করা সময়ে গোল করে সাসৌলোর কফিনে শেষ প্যারেক ঠুকে দেন দুর্দান্ত ফর্মে থাকা রোনাল্ডো।

৩-১ গোলের জয় নিয়ে মাঠ ছাড়ে জুভেন্টাস। আর শেষ গোলটি করে অনন্য এক মাইলফলক ছুঁয়েছেন রোনাল্ডো।

সেটি হলো- ক্লাব ও জাতীয় দলের হয়ে অফিসিয়াল গোলের হিসেবে তিনিই এখন সর্বোচ্চ গোলদাতা। অবশ্য যৌথভাবে। রোববারের গোলের পর জোসেফ বিকানের রেকর্ডে ভাগ বসিয়েছেন পর্তুগিজ ফুটবলের যুবরাজ।

কদিন আগে এসি মিলানের বিপক্ষে জোড়া গোল করে ব্রাজিলিয়ান কিংবদন্তি পেলেকে (৭৫৭ গোল) পেছনে ফেলেছিলেন রোনাল্ডো। এবার চেকোস্লোভাকিয়ার ফরোয়ার্ড জোসেফ বিকানকে ছুঁলেন তিনি। ক্লাব ক্যারিয়ারে রোনাল্ডোর এখন ৬৫৭তম গোল। এ ছাড়া জাতীয় দলের জার্সিতে আছে আরও ১০২ গোল।

কিংবদন্তি বিকানের ৭৫৯ গোল ছুঁতে রোনাল্ডো খেলেছেন ১০৩৯টি ম্যাচ। আর মাত্র একটি গোল করলেই ফুটবল ইতিহাসে সর্বকালের সর্বোচ্চ গোলদাতা হয়ে যাবেন পর্তুগিজ সুপারস্টার।

রোববার গোলশূন্য অবস্থায় শেষ হয় প্রথমার্ধ। দ্বিতীয়ার্ধে ফিরে ৫ মিনিট অতিক্রম না হতেই ব্রাজিলিয়ান ডিফেন্ডার দানিলোর গোলে লিড নেয় জুভেন্টাস। তবে সে লিড টিকেছিল ৮ মিনিট পর্যন্ত।

৫৮ মিনিটে গ্রেগইর ডেফরেলের চমৎকার নৈপুণ্যে সমতায় ফেরে সাসৌলো। এর পর ৮০ মিনিট পর্যন্ত সাসৌলোর জালের দেখা পাননি আন্দ্রে পিরলোর শিষ্যরা।

শেষের ১০ মিনিটে চিত্রনাট্য বদলে জুভেন্টাসের পক্ষে চলে যায়। ম্যাচের ৮২ মিনিটের সময় জুভেন্টাসকে এগিয়ে দেন রামসি। আর অতিরিক্ত যোগ করা সময়ের দ্বিতীয় মিনিটে দলের জয় নিশ্চিত করে দেন রোনাল্ডো।

৩-১ গোলের ব্যবধানে জয় নিয়ে মাঠ ছাড়েন ৯ বারের চ্যাম্পিয়নরা।

এ জয়ের পর পয়েন্ট টেবিলে জুভেন্টাসের অবস্থান চতুর্থ। এ পর্যন্ত খেলা ১৬ ম্যাচে তাদের সংগ্রহ ৩৩ পয়েন্ট। শীর্ষে থাকা এসি মিলান ১৭ ম্যাচে ঝুলিতে পুরেছে ৪০ পয়েন্ট। সাসৌলো ১৭ ম্যাচে ২৯ পয়েন্ট নিয়ে অবস্থান করছে সপ্তম স্থানে।

Print Friendly, PDF & Email

     এ ক্যাটাগরীর আরো খবর