,

1

তিনটি নতুন ছবিতে চুক্তিবদ্ধ হয়েছি

হাওর বার্তা ডেস্কঃ করোনার এ সময়টা কেমন কাটছে? আমার সময় ভালোই যাচ্ছে। কাজ না করলেও সিনেমার লোকদের সঙ্গে নিয়মিত যোগাযোগ হচ্ছে। কথা বলছি, আড্ডা দিচ্ছি, সবার খোঁজখবর নিচ্ছি। এভাবে সময় কেটে যাচ্ছে।

শুটিংয়ে ফেরার কথা ছিল গত মাসেই। এখনও ফিরছেন না কেন? আসলে পরিচালকরা বারবার পরিকল্পনা পরিবর্তন করছেন। আমি শুটিংয়ের জন্য প্রস্তুত আছি। তবে আগামী মাস থেকে যে শুটিং শুরু করব- এ বিষয়ে নিশ্চয়তা দিতে পারি। সেভাবেই কর্মপরিকল্পনা সাজাচ্ছি।

অবসরের এ সময়টায় অন্য কোনো কাজের সঙ্গে যুক্ত হয়েছেন? অন্য কোনো কাজ নয়, তিনটি নতুন ছবিতে চুক্তিবদ্ধ হয়েছি। এগুলো পরিচালনা করবেন সৈকত নাসির, আশরাফ শিশির ও রুমান রুনি। সে হিসেবে বলা যায়, কাজের মধ্যেই আছি আমি। আশা করছি এগুলোর কাজ শিগগিরই শুরু হবে।

আপনার অভিনীত অসমাপ্ত ছবিগুলোর অগ্রগতি কত দূর? বেলাল সানির পরিচালনায় ‘ডেঞ্জারজোন’ ছবির ডাবিং বাকি ছিল, সেটি শেষ করেছি গত ঈদের আগে। এছাড়া দীপঙ্কর দীপনের পরিচালনায় ‘ঢাকা-২০৪০’ ছবির শুটিং শুরু হবে যে কোনো সময়। আর ওয়াহিদুজ্জামান ডায়মন্ডের ‘কোভিড-১৯’ ছবির শুটিংও শুরুর প্রক্রিয়া চলছে।

কয়েকটি ছবি তো মুক্তির অপেক্ষায়ও আছে। সেগুলো কবে নাগাদ মুক্তি পাবে? আমার কাজ অভিনয় করা। ছবি মুক্তির বিষয়টি সম্পর্কে সেভাবে বলতে পারি না। তবে কাজ করতে গিয়ে প্রতিটি ছবির সঙ্গেই আত্মিক সম্পর্ক তৈরি হয়। সে কারণে ছবি মুক্তির দিন পর্যন্ত খোঁজ রাখি ছবিগুলোর। এখন আমার অভিনীত দুটি ছবি মুক্তির অপেক্ষায় আছে। এগুলো হল দেবাশীষ বিশ্বাসের পরিচালনায় ‘শ্বশুরবাড়ি জিন্দাবাদ-২’ ও সাফি উদ্দিন সাফির ‘সিক্রেট এজেন্ট’। খন যেসব ছবির শুটিংয়ে যোগ দেবেন, সেগুলোর ইউনিটে স্বাস্থ্যবিধি অনুসরণ করার বিষয়ে পরিচালকদের প্রস্তুতি কেমন?

Print Friendly, PDF & Email

     এ ক্যাটাগরীর আরো খবর