,

13

আজ থেকে বন্ধ করোনা বুলেটিন

হাওর বার্তা ডেস্কঃ দেশে করোনাভাইরাস নিয়ে প্রতিদিনের অনলাইন হেলথ বুলেটিন প্রচার আজ বুধবার থেকে বন্ধ। করোনা সংক্রান্ত সর্বশেষ আপডেট এখন থেকে গণমাধ্যমে প্রেস বিজ্ঞপ্তিতে পাঠানো হবে।

গতকাল মঙ্গলবার শেষবারের মতো বুলেটিন প্রচারে এসে স্বাস্থ্য অধিদফতরের অতিরিক্ত মহাপরিচালক (প্রশাসন) অধ্যাপক ডা. নাসিমা সুলতানা এ তথ্য জানান।

তিনি বলেন, আজকের পর থেকে লাইভ এ অনুষ্ঠান বন্ধ হয়ে যাচ্ছে। তবে ব্রিফিং বন্ধ হলেও তথ্যপ্রবাহে কোনো অসুবিধা হবে না। যথারীতি প্রেস রিলিজ সবাইকে পাঠিয়ে দেয়া হবে। আপনারা সব তথ্যই জানতে পারবেন। তথ্য নিয়মিতভাবে স্বাস্থ্য অধিদফতর থেকে পাঠানো হবে।

স্বাস্থ্য অধিদফতর সূত্র জানিয়েছে, মূলত স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয়ের নির্দেশে স্বাস্থ্য অধিদফতরের বুলেটিন বন্ধ হচ্ছে।

এ বিষয়ে স্বাস্থ্যমন্ত্রী বলেন, দেশে করোনা পরিস্থিতির উন্নতি ঘটায় এখন আর এমন বুলেটিন প্রচার করার প্রয়োজন দেখছেন না তারা। তার ভাষায়, ‘চার-পাঁচ মাস ধরে তো বুলেটিন প্রচার হলোই। এখন তো আল্লাহর রহমতে পরিস্থিতি অনেকটাই ভালো। আমরা মনে করি, এখন সংক্রমণ কমে আসছে, পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আসছে। এ কারণে আমাদের সিদ্ধান্ত নিয়মিত একজন ব্যক্তি দিয়ে বুলেটিন না করে প্রেস রিলিজ দেয়া।

গত ফেব্রুয়ারির প্রথম সপ্তাহে করোনাভাইরাস ইস্যুতে প্রথম ব্রিফিং আয়োজন করে জাতীয় রোগতত্ত্ব, রোগ নিয়ন্ত্রণ ও গবেষণা প্রতিষ্ঠান (আইইডিসিআর)। প্রতিষ্ঠানটির পরিচালক অধ্যাপক ডা. মীরজাদী সেব্রিনা ফ্লোরা নিজেই ব্রিফিং করতেন।

দেশে করোনা আক্রান্ত রোগী শনাক্ত হওয়ার পর আইইডিসিআরের সঙ্গে স্বাস্থ্য অধিদফতরও সরাসরি ব্রিফিংয়ে যুক্ত হয়। মার্চের শেষের দিকে ডা. ফ্লোরার পরিবর্তে নিয়মিত ব্রিফিং পরিচালনা করতে থাকেন অধিদফতরের এমআইএস বিভাগের পরিচালক ডা. হাবিবুর রহমান। বিকেল ৩টায় এই ব্রিফিং অনুষ্ঠিত হলেও পরে দুপুর আড়াইটায় ব্রিফিংয়ের সময় চূড়ান্ত করে দেয় অধিদফতর।

এরপর স্বাস্থ্যঝুঁকি বিবেচনায় নিয়ে অনলাইনে ব্রিফিং পরিচালনার সিদ্ধান্ত নেয় স্বাস্থ্য অধিদফতর। এপ্রিলের দ্বিতীয় সপ্তাহে ব্রিফিংকে বুলেটিন আকারে উপস্থাপন করতে শুরু করে অধিদফতর। স্বাস্থ্য বুলেটিনে নিয়মিতভাবে তথ্য উপস্থাপন করতেন স্বাস্থ্য অধিদফতরের অতিরিক্ত মহাপরিচালক অধ্যাপক ডা নাসিমা সুলতানা।

উল্লেখ্য, শিক্ষা প্রতিষ্ঠান ছাড়া করোনার মধ্যে দেশের প্রায় সবকিছুই স্বাভাবিক হতে শুরু করেছে। কমেও এসেছে করোনা রোগীর সংখ্যা।

Print Friendly, PDF & Email

     এ ক্যাটাগরীর আরো খবর